বিশেষ অবদানের স্বীকৃতিতে দেওয়া হবে ১০টি শেখ রাসেল স্বর্ণপদক

‘শেখ রাসেল দিবস ২০২১’ উপলক্ষে বিজ্ঞান ও প্রযুক্তিসহ বিভিন্ন ক্ষেত্রে বিশেষ অবদানের স্বীকৃতি হিসেবে ১০টি শেখ রাসেল স্বর্ণপদক দেবে তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিভাগ।

‘শেখ রাসেল দীপ্ত জয়োল্লাস, অদম্য আত্মবিশ্বাস’ এ প্রতিপাদ্যে নিয়ে সোমবার প্রথম বারের মতো 'ক' শ্রেণির জাতীয় দিবস হিসেবে জাতীয়ভাবে দেশব্যাপী জেলা-উপজেলা এবং বাংলাদেশ দূতাবাসগুলোতে উদযাপিত হবে শেখ রাসেল দিবস ২০২১।

রোববার আগারগাঁও আইসিটি টাওয়ারে বিসিসি মিলনায়তনে এক সংবাদ সম্মেলনে তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক এ তথ্য জানান।

পলক জানান, দিবসটি উপলক্ষে তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিভাগের উদ্যোগে বিশেষ চাহিদা সম্পন্ন শিশু এবং শিক্ষা, শিল্পকলা, সাহিত্য ও সংস্কৃতি, ক্রীড়া, বিজ্ঞান ও প্রযুক্তিতে বিশেষ অবদানের স্বীকৃতি স্বরূপ ১০টি শেখ রাসেল স্বর্ণপদক দেওয়া হবে।

শেখ রাসেল পদকপ্রাপ্ত ও অনলাইন কুইজ প্রতিযোগিতায় বিজয়ীদের ২০টি ল্যাপটপ, এলইডিপি’র আওতায় মূল অনুষ্ঠানে ৫টি এবং বিভিন্ন জেলায় ৩ হাজার ৯৯৫টি মোট ৪ হাজার ল্যাপটপ দেওয়া হবে। এছাড়া শেখ রাসেল শিশু-কিশোর পরিষদ ৬০টি পুরস্কার দেবে।

প্রতিমন্ত্রী বলেন, “শেখ রাসেলের জন্মদিনে আমাদের কামনা ও প্রত্যাশা শুধু বাংলাদেশে নয়, সারা পৃথিবীর শিশুরাই যেন নিরাপদে বেড়ে ওঠে তাদের স্বপ্ন ও সুপ্ত প্রতিভা বিকশিত করতে পারে তার জন্য আমরা সকলেই একসাথে মিলে কাজ করব। এই বাংলাদেশ এবং সারা পৃথিবীতে আগামী প্রজন্মের সন্তানদের জন্য একটি নিরাপদ দেশ ও নিরাপদ বিশ্ব হিসেবে গড়ে তোলার জন্য।”

তিনি জানান, দেশে ৮ হাজার শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে শেখ রাসেল ডিজিটাল কম্পিউটার ল্যাব প্রতিষ্ঠা করা হয়েছে। আরও ৫ হাজার শেখ রাসেল ডিজিটাল কম্পিউটার ল্যাব প্রতিষ্ঠা করা হচ্ছে। ৩০০টি সংসদীয় আসনে ‘স্কুল অব ফিউচার’ এ বছরেই স্থাপনের উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে।

পলক বলেন, “একটি শিশুও যেন পথে না থাকে, গৃহহীন না থাকে তার জন্য সরকারের ১৩টি শেখ রাসেল শিশু প্রশিক্ষণ ও পুনর্বাসন কেন্দ্র পরিচালিত হচ্ছে।”

সংবাদ সম্মেলনে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন আইসিটি বিভাগের সিনিয়র সচিব এন এম জিয়াউল আলম, তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি অধিদপ্তরের ভারপ্রাপ্ত মহাপরিচালক রেজাউল মাকছুদ জাহেদী ও শেখ রাসেল শিশু কিশোর পরিষদের মহাসচিব কে এম শহীদুল্লাহ ।

সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়, দিবসটি উপলক্ষে আইসিটি বিভাগ ও বাংলাদেশ শিশু একাডেমির যৌথ উদ্যোগে ১৮ অক্টোবর সকাল ৬টায় বনানী কবরস্থানে শেখ রাসেলের কবরে ফুল দেওয়া হবে।

এরপর সকাল সাড়ে ৯টায় তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিভাগ এবং শেখ রাসেল শিশু কিশোর পরিষদের যৌথ উদ্যোগে বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে (বিআইসিসি) শেখ রাসেল দিবসের উদ্বোধন ও পুরষ্কার বিতরণ অনুষ্ঠান হবে। এ অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা গণভবন থেকে ভার্চুয়াল মাধ্যমে প্রধান অতিথি হিসেবে অংশ নেবেন।

ই পোস্টার প্রকাশ

জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ছোট ছেলে শেখ রাসেলের ৫৮তম জন্মদিন উপলক্ষে দুটি ই-পোস্টার প্রকাশ করেছে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উদযাপন জাতীয় বাস্তবায়ন কমিটি।

রোববার পোস্টারগুলো প্রকাশের খবর জানিয়ে এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, “বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবর্ষ ও বঙ্গবন্ধুপুত্র শহিদ শেখ রাসেলের ৫৮তম জন্মদিন উপলক্ষে উভয়ের প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদনের অংশ হিসেবে ই-পোস্টার প্রকাশিত হয়।”