পানির তোড়ে রাজধানীতে খালে মাইক্রোবাস, সকালে উদ্ধার

রাজধানীর কদমতলীর মোহাম্মদবাগ এলাকায় পানির স্রোতের তোড়ে ভেসে যাওয়া একটি মাইক্রোবাস পরদিন সকালে উদ্ধার করা হয়েছে।

একজন অসুস্থ নারীকে নিয়ে মাইক্রোবাসটি সোমবার রাতে নোয়াখালী থেকে ঢাকায় আসে।

মোহাম্মদবাগ এলাকায় আসার পর পানিতে নিমজ্জিত একটি কালভার্ট পার হওয়ার সময় সেটি তীব্র স্রোতে ভেসে খালে পড়ে যায় বলে স্থানীয়রা জানান।

ঢাকা মহানগর পুলিশের ডেমরা জোনের (ট্রাফিক) সহকারী কমিশনার মো. ইমরান হোসেন মোল্লা বলেন, খবর পেয়ে সকালে ট্রাফিক বিভাগের একটি রেকার গিয়ে খাল থেকে মাইক্রোবাসটি তুলে আনে।

“এটি স্রোতের তোড়ে ভেসে গিয়ে আংশিক নিমজ্জিত অবস্থায় খালে পড়ে ছিল। তবে এই দুর্ঘটনায় এতে কেউ হতাহত হননি।“

ঘূর্ণিঝড় জোয়াদের প্রভাবে রোববার থেকে সোমবার গভীর রাত পর্য্নত বৃষ্টি হয়। এতে রাজধানীর অনেক স্থানেই পানি জমে যায়।    

মোহাম্মদবাগের স্থানীয় ইকবাল মেহেদি বলেন, দুদিনের বৃষ্টিতে এ এলাকার একটি কালভার্ট পানির নীচে চলে যায়। সেটির ওপর দিয়ে তীব্র গতিতে স্রোত বইছিল দেখে স্থানীয়রা সেদিক দিয়ে যান চলাচল বন্ধ করে দেন।

সোমবার রাত ১টার দিকে নোয়াখালী থেকে অসুস্থ এক নারীকে চিকিৎসক দেখানোর জন্য তার স্বজনেরা ঢাকায় নিয়ে আসেন। তারা আত্মীয়ের বাসায় যাওয়ার জন্য ওই কালভার্ট পার হতে গাড়ি চালককে অনুরোধ করেন।

গাড়ি চালক কালভার্টের ওপর উঠলে মাইক্রোবাসটি স্রোতের তোড়ে ভেসে খালে পড়ে যায়। স্থানীয়রা ছুটে এসে কাঁচ ভেঙে গাড়ির চালক ও যাত্রীদের উদ্ধার করেন।

সকালে পুলিশের রেকার এসে গাড়িটি উদ্ধার করে বলে তিনি জানান।