জাহানারাকে নিয়েই বিশ্বকাপে বাংলাদেশ

সদ্য সমাপ্ত কমনওয়েলথ গেমসের বাছাইয়ের দলে জাহানারা আলমকে না রাখা নিয়ে হয়েছিল অনেক আলোচনা-সমালোচনা। এবার অভিজ্ঞ এই পেসারকে নিয়েই ওয়ানডে বিশ্বকাপের প্রথম অভিযানে যাচ্ছে বাংলাদেশের মেয়েরা।

নিউ জিল্যান্ডে অনুষ্ঠেয় টুর্নামেন্টের জন্য শুক্রবার রাতে ১৬ সদস্যের স্কোয়াড ঘোষণা করে বিসিবি। শনিবার মিরপুরে একাডেমি মাঠে শুরু হবে প্রস্তুতি ক্যাম্প। 

টি-টোয়েন্টি সংস্করণে মালয়েশিয়ায় হওয়া কমনওয়েলথ গেমসের বাছাইয়ের দলের ১৫ জনের সবাই আছেন বিশ্বকাপের স্কোয়াডে। ওই টুর্নামেন্টে ‘ফাইনালে’ পরিণত হওয়া শেষ ম্যাচে শ্রীলঙ্কার কাছে হেরে চূড়ান্ত পর্বে খেলার স্বপ্ন ভাঙে বাংলাদেশের মেয়েদের।

জাহানারাকে কমনওয়েলথ গেমস বাছাইয়ের দলে রাখা হয়নি শৃঙ্খলাজনিত কারণে। বিসিবির উইমেন’স উইংয়ের প্রধান শফিউল ইসলাম নাদেল তখন বলেছিলেন, যথেষ্ট প্রমাণ পেয়েই তারা সিদ্ধান্ত নিয়েছেন এবং সিনিয়র ক্রিকেটার হিসেবে জাহানারার ব্যাপারটি তারা সতর্কতার সঙ্গে সামলাচ্ছেন। এবার দলে ফেরায় বলা যায় তার ‘শাস্তি’ শেষ হলো।

জাহানারা ফিরলেও অভিজ্ঞ স্পিনার খাদিজা তুল কুবরা ফিরতে পারেননি। শৃঙ্খলাজনিত কারণে তিনিও ছিলেন না কমনওয়েলথ গেমস দলের বিবেচনায়।

গত নভেম্বরে জিম্বাবুয়েতে ওয়ানডে বিশ্বকাপের বাছাইপর্বের দল থেকে বিশ্বকাপের স্কোয়াডে কুবরা ছাড়া আর নেই কেবল নুজহাত তাসনিয়া।

এবারই প্রথম মেয়েদের ওয়ানডে বিশ্বকাপে খেলার যোগ্যতা অর্জন করেছে বাংলাদেশ। দলে অভিজ্ঞ জাহানারা, রুমানা আহমেদ, সালমা খাতুনদের সঙ্গে আছেন ফারিহা ইসলাম তৃষ্ণার মতো নতুন খেলোয়াড়। গত নভেম্বরে জিম্বাবুয়েতে ওয়ানডে অভিষেক হয় বাঁহাতি পেসার তৃষ্ণার।

দল ঘোষণার সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে ভিডিও বার্তায় মেয়েদের দলের নির্বাচক ও সাবেক পেসার মঞ্জুরুল ইসলাম বললেন, খেলোয়াড় বাছাইয়ের ক্ষেত্রে সব কিছুই বিবেচনায় রেখেছিলেন তারা।  

“সব কিছু মিলিয়েই আমরা দলটা ঘোষণা করেছি। যেখানে অভিজ্ঞ খেলোয়াড়, তরুণ, পারফরমার, সব কিছু মিলিয়ে সমন্বয়ের মাধ্যমে দলটা ঘোষণা করেছি। একই সঙ্গে এই দলটা গত দুই বছর ধরে দেশে ও দেশের বাইরে খেলছে এবং পারফর্ম করে আসছে। সেই সঙ্গে কন্ডিশনও আমরা বিবেচনায় রেখেছি। আশা করি, যে উদ্দেশ্য নিয়ে আমরা দল ঘোষণা করেছি, সেটাতে আমরা সফল হব।”  

৮ দলের বিশ্বকাপে প্রাথমিক পর্বে সব দল পরস্পরের বিপক্ষে লড়বে একবার করে। শীর্ষ চার দল খেলবে সেমি-ফাইনালে।

আগামী ৪ মার্চ তাওরাঙ্গায় স্বাগতিক নিউ জিল্যান্ডের সঙ্গে ওয়েস্ট ইন্ডিজের লড়াই দিয়ে শুরু হবে মেয়েদের মহারণ। পরদিন ডানেডিনে দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে ম্যাচ দিয়ে অভিযান শুরু করবে বাংলাদেশ।

আইসিসি উইমেন’স চ্যাম্পিয়নশিপ ২০১৭-২০২০-এ ওপরের দিকে অবস্থানের সৌজন্যে বিশ্বকাপে সরাসরি খেলছে অস্ট্রেলিয়া, ইংল্যান্ড, দক্ষিণ আফ্রিকা ও ভারত। স্বাগতিক হিসেবে সরাসরি খেলছে নিউ জিল্যান্ড।

ওয়েস্ট ইন্ডিজ, বাংলাদেশ ও পাকিস্তান খেলছে বাছাইপর্ব থেকে। গত নভেম্বরে জিম্বাবুয়েতে কোভিডের কারণে বাছাইপর্ব মাঝপথে বাতিল হওয়ার পর র‌্যাঙ্কিংয়ে অবস্থানের ভিত্তিতে এই তিন দল যোগ্যতা অর্জন করে বিশ্বকাপ খেলার।  

বাংলাদেশ নারী দল: নিগার সুলতানা (অধিনায়ক), সালমা খাতুন, রুমানা আহমেদ, ফারজানা হক, জাহানারা আলম, শামিমা সুলতানা, ফাহিমা খাতুন, রিতু মনি, মুর্শিদা খাতুন, নাহিদা আক্তার, শারমিন আক্তার, লতা মণ্ডল, সোবহানা মোস্তারি, ফারিহা ইসলাম তৃষ্ণা, সুরাইয়া আজমিন, সানজিদা আক্তার মেঘলা।