রেজাউলের নির্বাচনী মিছিলে যুবলীগ নেতা ‘ছুরিকাহত’

আহত আদিত্য নন্দী
চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশন নির্বাচনে আওয়ামী লীগ মনোনীত মেয়রপ্রার্থীর পক্ষে যুবলীগের প্রচার মিছিলে এক কেন্দ্রীয় নেতা ছুরিকাঘাতে আহত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে।

যদিও ছুরি মারার ঘটনা ঘটেনি বলে জানিয়েছেন নগর যুবলীগের এক নেতা।

রোববার দুপুরে নগরীর ষোলশহর দুই নম্বর গেইটে ওই ঘটনায় আহত যুবলীগ নেতা আদিত্য নন্দী কেন্দ্রীয় কমিটির উপ-প্রচার সম্পাদক। ঢাকার কেন্দ্রীয় নেতাদের সঙ্গে তিনিও চট্টগ্রামে এসেছেন মেয়রপ্রার্থী রেজাউল করিমের পক্ষে প্রচারণা চালাতে।

চট্টগ্রাম নগর পুলিশের উপ-কমিশনার (উত্তর) বিজয় বসাক বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে বলেন, “মিছিলের মধ্যে অতির্কিতভাবে একজনকে ছুরিকাঘাত করা হয়েছে। বিষয়টি আমরা দেখছি।”

মিছিলে থাকা কয়েকজন জানান, মিছিলে ব্যানার ধরা নিয়ে ধাক্কাধাক্কি হয়। এসময় আদিত্য নন্দীর পায়ে ছুরিকাঘাত করা হয়।

পরে তাকে জিইসি মোড়ে বেসরকারি মেডিকেল সেন্টারে নিয়ে প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে বাসায় পাঠানো হয়েছে।

তবে ছুরিকাঘাতের বিষয়টি অস্বীকার করেন নগর যুবলীগের আহ্বায়ক মহিউদ্দিন বাচ্চু।

“আজকে ষোলশহর এলাকায় একটি কনভেনশন সেন্টারে আমাদের প্রতিনিধি সভা ছিল। সেখান থেকে কেন্দ্রীয় নেতাদের নিয়ে প্রচার মিছিল হয়েছে। মিছিলে অনেক লোক ছিল। সেখানে নালার পাশে (আদিত্য) হোঁচট খেয়ে পড়ে গেছে।”

ওই মিছিলে আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক এসএম কামাল, দপ্তর সম্পাদক বিপ্লব বড়ুয়া, যুবলীগের কেন্দ্রীয় যুগ্ম সম্পাদক শেখ ফজলে নাঈম, বদিউল আলমসহ বিভিন্ন নেতারা উপস্থিত ছিলেন বলে জানান মহিউদ্দিন বাচ্চু।

ঢাকায় রাজনীতি করা চট্টগ্রামের ছেলে আদিত্য নন্দীকে দেখতে বিকালে তার বাসায় গেছেন আওয়ামী লীগের দপ্তর সম্পাদক ও প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ সহকারী বিপ্লব বড়ুয়া।