সত্যজিৎ রায়ের ‘বিমলা’র চিরবিদায়

প্রয়াত কিংবদন্তি নির্মাতা সত্যজিৎ রায়ের ‘ঘরে বাইরে’ চলচ্চিত্রে ‘বিমলা’ চরিত্রে অভিনয় করে দর্শকমহলে পরিচিতি পাওয়া টালিগঞ্জের অভিনেত্রী স্বাতীলেখা সেনগুপ্ত মারা গেছেন।

হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে বুধবার দুপুরে কলকাতার এক হাসপাতালে তার মৃত্যু হয়েছে বলে এক খবরে জানিয়েছে আনন্দবাজার পত্রিকা। স্বাতীলেখার বয়স হয়েছিল ৭১ বছর।

দীর্ঘদিন ধরে কিডনির জটিলতায় ভুগছিলেন তিনি। হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় শারীরিক অবস্থার অবনতি ঘটলে সবশেষ তিন সপ্তাহে ২১ দিন আইসিইউতেও ভর্তি ছিলেন তিনি।

১৯৮৪ সালে রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের উপন্যাস 'ঘরে-বাইরে' অবলম্বনে সত্যজিৎ রায়ে চলচ্চিত্রের মধ্য দিয়ে বড়পর্দায় যাত্রা শুরু হয় স্বাতীলেখার। ছবিতে তার বিপরীতে অভিনয় করেন সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায়।

তার তিন দশক পর ২০১৫ সালে সৌমিত্র-স্বাতীলেখা জুটিকে নিয়ে ‘বেলা শেষে’ নির্মাণ করেছেন পরিচালক নন্দিতা রায় ও শিবপ্রসাদ মুখোপাধ্যায়। ছবিটি পশ্চিমবঙ্গের পাশাপাশি বাংলাদেশেও দারুণ জনপ্রিয়তা পেয়েছিল।

একই জুটিকে নিয়ে নন্দিতা-শিবপ্রসাদ নির্মাণ করেছেন ‘বেলা শুরু’; ছবিটি মুক্তির আগে সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায়ের পর স্বাতীলেখাও না ফেরার দেশে পাড়ি জমালেন।

চলচ্চিত্রে অভিষেকের আগে থেকেই মঞ্চনাটকের সঙ্গে যুক্ত ছিলেন স্বাতীলেখা। কলকাতার নাট্যদল ‘নান্দীকার’ এর অন্যতম প্রতিষ্ঠাতা তিনি।

নাট্যব্যক্তিত্ব রুদ্রপ্রসাদ সেনগুপ্তের সঙ্গে বিয়েবন্ধনে আবদ্ধ হন স্বাতীলেখা। তাদের মেয়ে সোহিনী সেনগুপ্তও মঞ্চনাটক ও চলচ্চিত্রের অভিনয়শিল্পী।