নানা হলেন আলীরাজ

নব্বইয়ের দশকের চিত্রনায়ক আলীরাজ নানা হয়েছেন।

শুক্রবার রাজধানীর এক হাসপাতালে তার মেয়ে মহিমা হোসেন শরনী ও জামাতা নাহিদ হোসেন পিন্টুর কোলজুড়ে কন্যাসন্তান এসেছে বলে জানান আলীরাজ।

মঙ্গলবার এক ফেইসবুক পোস্টে এ সুখবর জানানোর পর বুধবার সকালে আলীরাজ গ্লিটজকে বলেন, “প্রথমবার নানা হলাম। অনুভূতি প্রকাশের মতো ভাষা পাচ্ছি না। মেয়ে ও নাতনি সুস্থ আছেন। সবার কাছে দোয়া চাইছি।”

ধর্মীয় আনুষ্ঠানিকতা শেষে নাতনির নাম জানাবেন আলীরাজ।

দুই ছেলে-মেয়ে ও স্ত্রীকে নিয়ে আলীরাজের সংসার। ২০২০ সালের শুরুর দিকে মেয়ে শরনীর বিয়ে দিয়েছেন তিনি। তার ছেলে মাহমুদ হোসেন শরণ সেপ্টেম্বরে বাবা হচ্ছেন বলে জানালেন আলীরাজ।

টিভি নাটকের মধ্য দিয়ে অভিনয়ে অভিষেকের পর আশির দশকে রাজ্জাকের হাত ধরে চলচ্চিত্রে অভিনয় শুরু করেন আলীরাজ। তার আসল নাম ডব্লিউ আনোয়ার; রাজ্জাক তাকে ‘আলীরাজ’ নামটি দেন। পরে সেই নামেই চলচ্চিত্রে পরিচিত পান তিনি।

দীর্ঘ ক্যারিয়ারে শতাধিক চলচ্চিত্রে অভিনয় করা আলীরাজ ২০১৬ সালে ‘পুড়ে যায় মন’ চলচ্চিত্রে অভিনয়ের জন্য পার্শ্বচরিত্রে সেরা অভিনেতার জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার পান।