খালেদার 'উন্নত চিকিৎসা' দাবি নিউ ইয়র্ক বিএনপির

বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার 'উন্নত চিকিৎসার' দাবি জানিয়েছে দলটির নিউ ইয়র্ক অঙ্গরাজ্য শাখা।

স্থানীয় সময় শনিবার সন্ধ্যায় নিউ ইয়র্কে অনুষ্ঠিত এক সভা থেকে এ দাবি জানান তারা।

সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক সাঈদুর রহমান সাঈদের সঞ্চালনায় এতে সভাপতিত্ব করেন অঙ্গরাজ্য বিএনপির সভাপতি অলিউল্লাহ মোহাম্মদ আতিকুর রহমান।

প্রধান অতিথি ছিলেন বিএনপি কেন্দ্রীয় কমিটির সাবেক আন্তর্জাতিক সম্পাদক গিয়াস আহমেদ।

তিনি বলেন, "এরশাদের মতো স্বৈরাচারও ক্ষমতায় টিকতে পারেনি। নব্বইয়ের স্বৈরাচার-বিরোধী আন্দোলন থেকে সংশ্লিষ্টদের শিক্ষা নেওয়া দরকার। অবিলম্বে সব মামলা প্রত্যাহার করে উন্নত চিকিৎসার জন্য বেগম জিয়াকে মুক্তি দেওয়া হোক।"

সভায় আরও উপস্থিত ছিলেন যুক্তরাষ্ট্র বিএনপির সাবেক সহ সভাপতি এমদাদুল হক কামাল, সাবেক যুগ্ম সম্পাদক আনোয়ারুল ইসলাম, গোলাম ফারুক শাহীন ও সৈয়দ এম রেজা, নারী বিষয়ক সম্পাদক সৈয়দা মাহমুদা শিরিন, মার্শাল মুরাদ, আরাফাত রহমান কোকো স্মৃতি পরিষদের সভাপতি শাহাদৎ হোসেন রাজু, বীর মুক্তিযোদ্ধা মীর মশিউর রহমান ও ওয়াহেদ আলী মন্ডল।

এর আগের দিন সন্ধ্যায় নিউ ইয়র্ক মহানগর বিএনপির উদ্যোগে বেগম খালেদা জিয়ার 'রোগমুক্তির জন্য দোয়া-মাহফিল' অনুষ্ঠিত হয় জ্যাকসন হাইটস ইসলামিক সেন্টার জামে মসজিদে।

আয়োজক সংগঠনের সভাপতি হাবিবুর রহমান সেলিম রেজার সভাপতিত্বে এ মাহফিল পরিচালনা করেন ইসলামিক সেন্টারের ইমাম মোহাম্মদ আবদুস সাদিক।

উপস্থিত ছিলেন যুক্তরাষ্ট্র বিএনপির সাবেক সাধারণ সম্পাদক জিল্লুর রহমান জিল্লু, সাবেক ভারপ্রাপ্ত সভাপতি শরাফত হোসেন বাবু, মিজানুর রহমান মিল্টন ভূঁইয়া, জসিম উদ্দিন ভূইয়া, যুক্তরাষ্ট্র বিএনপির সাবেক যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক গিয়াস উদ্দিন, মহানগর বিএনপির সিনিয়র সহ সভাপতি মো. রুহুল আমিন নাসির, সাধারণ সম্পাদক মো. আশরাফ হোসেন, সাংগঠনিক সম্পাদক আলমগীর হোসেন মৃধা ও জাসাস কেন্দ্রীয় কমিটির সাবেক মানবাধিকার সহ সম্পাদক মো. সোহরাব হোসেন।

এদিকে শুক্রবার নিউ ইয়র্ক শহরের ছয়টি মসজিদে জুমআর নামাজের পর 'দোয়া-মাহফিল' অনুষ্ঠিত হয় 'তারেক রহমান স্বদেশ প্রত্যাবর্তন সংগ্রাম পরিষদ’-এর সভাপতি পারভেজ সাজ্জাদের উদ্যোগে।

প্রবাস পাতায় আপনিও লিখতে পারেন। প্রবাস জীবনে আপনার ভ্রমণ,আড্ডা,আনন্দ বেদনার গল্প,ছোট ছোট অনুভূতি,দেশের স্মৃতিচারণ,রাজনৈতিক ও সাংস্কৃতিক খবর আমাদের দিতে পারেন। লেখা পাঠানোর ঠিকানা probash@bdnews24.com। সাথে ছবি দিতে ভুলবেন না যেন!