পুঁজিবাজারে সূচক পতন অব্যাহত

মহামারী ও লকডাউনের কারণে ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের একটি ব্রোকারেস হাউজে বৃহস্পতিবার শেয়ার কেনাবেচায় পুঁজিবাজারে বিনিয়োগকারীরা। ছবি: মাহমুদ জামান অভি
অর্থনৈতিক অবস্থা নিয়ে উদ্বেগের মধ্যে সূচক পতন অব্যাহত রয়েছে দেশের দুই পুঁজিবাজারে।

সপ্তাহের প্রথম দিনের লেনদেনে প্রথম দুই ঘণ্টায় ১ দশমিক ৩৫ শতাংশ সূচক কমেছে বাংলাদেশের প্রধান পুঁজিবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই), চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) কমেছে দশমিক ৯৬ শতাংশ।

রোববার বেলা ১২টা পর্যন্ত সময়ে ডিএসইর প্রধান সূচক ডিএসইএক্স আগের দিনের চেয়ে ৮৪ দশমিক ৬২ পয়েন্ট কমে ৬ হাজার ১৭৩ দশমিক ৬২ পয়েন্ট হয়েছে।

আর চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জের (সিএসই) প্রধান সূচক সিএএসপিআই আগের দিনের চেয়ে ১৭৭ দশমিক ৮৬ পয়েন্ট কমে ১৮ হাজার ২৬১ দশমিক ৮৬ পয়েন্ট হয়েছে।

সাত দিনে ডিএসই সূচক পিছিয়ে গেল ১০ মাস  

পুঁজিবাজারে পতনের হাওয়া চলছে এক সপ্তাহের বেশি সময় ধরে। গত বৃহস্পতিবার পর্যন্ত টানা ৭ কার্যদিবসে ডিএসই সূচক ৪৩৯ দশমিক ৮৪ পয়েন্ট বা ৬ দশমিক ৫৭ শতাংশ কমে যায়।

রোববার বেলা ১২টা পর্যন্ত ২৩০ কোটি ৮৫ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে ডিএসইতে। ওই সময়ে মোট ৩৭৩টি কোম্পানির শেয়ার ও মিউচুয়াল ফান্ডের ইউনিট হাতবদল হয়, এর মধ্যে ৩১টির দর বাড়ে, ৩২২টির কমে এবং ২০টির দর অপরিবর্তিত ছিল।

সিএসইতে ১৮২টি কোম্পানির শেয়ার ও মিউচুয়াল ফান্ড কেনাবেচা হয় প্রথম দুই ঘণ্টায়। এর মধ্যে ২০টির দর বাড়ে, ১৪৪টির কমে এবং ১৮টির দর অপরিবর্তিত ছিল।

ওই সময়ে চট্টগ্রামের বাজারে ৫ কোটি ৬১ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়।