স্টারলিংক নিয়ে এয়ারলাইন সংস্থার সঙ্গে ‘আলোচনায়’ মাস্ক

স্যাটেলাইট নির্ভর স্টারলিংক ব্রডব্যান্ড সেবা নিয়ে একাধিক এয়ারলাইন সংস্থার সঙ্গে আলোচনা চলছে বলে জানিয়েছেন ইলন মাস্ক। সম্প্রতি এক টুইটে একথা বললেও কোন কোন সংস্থার সঙ্গে আলোচনা চলছে, সেই বিষয়ে কিছু বলেননি মাস্ক।

টুইটারে নিজের ইচ্ছে মতো বলে বিভিন্ন সময়ে আলোচনা-সমালোচনার মুখে পড়েছেন মাস্ক। বিভিন্ন বিষয়ে টু্‌ইট করে রসিকতা করার জন্যেও বেশ পরিচিতি আছে তার। বার্তাসংস্থা রয়টার্স বলছে, স্টারলিংক ইনস্টলেশন নিয়ে বৃহস্পতিবার টুইটার অনুসারীদের সঙ্গে বেশ প্রাণবন্ত আলাপচারিতা চালিয়েছেন তিনি।

তবে, কোন প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে আলোচনা করছেন মাস্ক সেই বিষয়ে পরিষ্কার কোনো তথ্য বা ইঙ্গিত মেলেনি ওই আলাপচারিতা থেকে।  

স্টারলিংককে বলা হচ্ছে স্পেসএক্সের স্যাটেলাইট ইন্টারনেট ইউনিট। ইন্টারনেট সেবা দিতে সক্ষম এমন ছোট ছোট ১২ হাজার স্যাটেলাইট পৃথিবীর কক্ষপথে পাঠানোর পরিকল্পনা রয়েছে প্রতিষ্ঠানটির।

স্যাটলাইট নির্ভর ইন্টারনেট সেবা খাতে স্পেসএক্স একা নয়। উদ্যোক্তা প্রতিষ্ঠানগুলোর তালিকায় আছে অ্যামাজনের কুইপার, ব্রিটেনের ওয়ারওয়েব, ভেঞ্চার-ক্যাপিটাল প্রতিষ্ঠান প্ল্যানেট এবং রেথিয়ন টেকনোলজিস কর্পোরেশনের ব্লু ক্যানিয়ন টেকনোলজিস।

অন্যদিকে প্রযুক্তি খাতের গুরুত্বপূর্ণ তিনটি প্রতিষ্ঠানের নেতৃত্ব দিচ্ছেন মাস্ক। এর মধ্যে আছে বিদ্যুচ্চালিত গাড়ি নির্মাতা টেসলা, রকেট নির্মাতা প্রতিষ্ঠান স্পেসএক্স এবং স্টার্টআপ প্রতিষ্ঠান নিউরাললিংক। বলা হচ্ছে, মানব মস্তিষ্ক আর কম্পিউটারের মধ্যে সংযোগ স্থাপনের লক্ষ্য নিয়ে ‘আল্ট্রা-হাই ব্যান্ডউইথ ব্রেইন-মেশির ইন্টারফেইস’ নির্মাণ করছে স্টার্টআপ প্রতিষ্ঠানটি।