কিশোর বয়সীদের মাদক থেকে রক্ষায় তৎপরতা বাড়াচ্ছে স্ন্যাপচ্যাট

ছবি: রয়টার্স
নিজস্ব প্ল্যাটফর্মে বেআইনি মাদকের বেচা-কেনা বন্ধে তৎপরতা বাড়ানোর ঘোষণা দিয়েছে সামাজিক মাধ্যম প্রতিষ্ঠান স্ন্যাপচ্যাট। নিজ প্ল্যাটফর্মে কিশোর বয়সীদের নিরাপত্তা বাড়ানোর অংশ হিসেবে নতুন কয়েকটি পদক্ষেপ সম্পর্কে জানিয়েছে প্রতিষ্ঠানটি।

শিশু-কিশোরদের সঙ্গে অপরিচিতিদের আলাপচারিতার সুযোগ কমিয়ে আনতে ‘কুইক অ্যাড সাজেশন’-এ পরিবর্তন আনার কথা জানিয়েছে স্ন্যাপ। “অন্য কারো কাছে কুইক অ্যাডের মাধ্যমে আবিষ্কৃত হতে চাইলে ১৮ বছরের কম বয়সীদের ওই ব্যক্তির সঙ্গে নির্দিষ্ট সংখ্যক বন্ধুর পরিচয় থাকতে হবে”-- এক ব্লগ পোস্টে বলেছে প্রতিষ্ঠানটি।

আগে ‘মিউচুয়াল কানেকশন’-এর ভিত্তিতে সম্ভাব্য বন্ধুদের সাজেশন দিত অ্যাপটি। এ ক্ষেত্রে ওই ব্যক্তিকে ব্যবহারকারী বাস্তব জীবনে চেনেন কি না, সেটি বিবেচনায় নেওয়ার কোনো সুযোগ ছিল না।

পাশাপাশি, অভিভাবকদের জন্যেও নতুন ‘টুল’ তৈরি করছে স্ন্যাপ। স্ন্যাপ আগামী কয়েক মাসের মধ্যেই বাজারে নতুন ‘প্যারেন্টাল টুল’ আনবে বলে জানিয়েছে প্রযুক্তিবিষয়ক সাইট সিনেট। এর মাধ্যমে অ্যাপটিতে অপ্রাপ্তবয়স্কদের কার্যক্রমের উপর নজর রাখতে পারবেন অভিভাবকরা।

গেল বছরের অক্টোবর মাসেই নিজস্ব প্ল্যাটফর্মে নিষিদ্ধ মাদকের বেচা-কেনা নিয়ে বিতর্কিত হয়েছিল স্ন্যাপ। মাদক সেবনে কিশোর বয়সী ও তরুণদের মৃত্যুর ঘটনায় অভিযোগের আঙ্গুল উঠেছিল স্ন্যাপচ্যাটের দিকে। ওই প্ল্যাটফর্মটির মাধ্যমেই কিশোর বয়সীরা মাদক বিক্রেতার সঙ্গে যোগাযোগ করেছিলেন– সন্দেহ তদন্তকারীদের।

নিজস্ব প্ল্যাটফর্মের অ্যালগরিদমে মাদক নিয়ে আলাপ এবং কনটেন্ট চিহ্নিত করতে মতো সক্ষমতা যোগ করার কথাও জানিয়েছে প্রতিষ্ঠানটি; পাশাপাশি আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর সঙ্গেও কাজ চলছে বলে জানিয়েছে স্ন্যাপ।