সাতক্ষীরায় প্রাইভেটকার থেকে ফেন্সিডিলসহ পুলিশ সদস্য গ্রেপ্তার

সাতক্ষীরার তালায় একটি প্রাইভেটকার এক মোটরসাইকেল আরোহীকে ধাক্কা দেওয়ার পর ওই প্রাইভেটকার থেকে ফেন্সিডিলসহ পুলিশের এক কন্সটেবল ও চালককে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

তালা থানার ওসি আবু জিহাদ ফকরুল আলম খান জানান, শনিবার সকালে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় আব্দুল গফুর (৬০) নামের ওই মোটরসাইকেল আরোহীর মৃত্যু হয়।

নিহত আব্দুল গফুর (৬০) তালা উপজেলার মদনপুর গ্রামের নেহাল উদ্দিন মাহমুদের ছেলে।

গ্রেপ্তাররা হলেন- সাতক্ষীরা আদালত পুলিশের কন্সটেবল উত্তম দাস (২৬) ও সাতক্ষীরা সদর থানা এলাকার বাসিন্দা প্রাইভেটকার চালক লুৎফর রহমান (২৫)।

ওসি বলেন, গফুর মদনপুর বাজার এলাকা থেকে মোটরসাইকেলে করে বাড়ি ফিরছিলেন। পথে সাতক্ষীরা থেকে খুলনাগামী দ্রুতগতির প্রাইভেটকারটি গফুরের মোটরসাইকেলে ধাক্কা দেয়।

“এ সময় প্রাইভেটকারটি দুমড়ে-মুচড়ে যায় এবং গুরুতর আহত হন গফুর।”

তিনি বলেন, এ সময় স্থানীয় লোকজন প্রাইভেটকারটি আটক করে সড়ক অবরোধ করে রাখে। খবর পেয়ে হাইওয়ে পুলিশ গিয়ে গফুরকে উদ্ধার করে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠায়।

পরে প্রাইভেটকারে তল্লাশি চালিয়ে ছয় বোতল ফেনসিডিল, ২ লাখ ৮৫ হাজার টাকা ও স্বর্ণ উদ্ধার এবং আদালত পুলিশের এক কন্সটেবল ও এর চালককে গ্রেপ্তার করা হয় বলে আবু জিহাদ জানান। 

এ ঘটনায় মাদক ও দুর্ঘটনার মামলা করেছে পুলিশ।