কোভিড: খুলনায় সাড়ে ৫ মাসের মধ্যে সর্বোচ্চ শনাক্ত

খুলনা বিভাগে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনাভাইরাসে শনাক্তের হার সাড়ে ৩৪ শতাংশে পৌঁছেছে; যা প্রায় সাড়ে পাঁচ মাসের মধ্যে সর্বোচ্চ।

রোববার দুপুরে খুলনা বিভাগীয় স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের পরিচালক মো. মনজুরুল মুরশিদ গণমাধ্যমকে এই তথ্য জানিয়েছেন।

তিনি জানান, গত ২৪ ঘণ্টায় বিভাগে এক হাজার ৪১১ জনের নমুনা পরীক্ষা করে ৪৮৭ জনের করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়েছে। শনাক্তের হার ৩৪ দশমিক ৫১ শতাংশ। এ সময়ে বিভাগের কুষ্টিয়া জেলায় একজন মারা গেছেন।

খুলনা বিভাগে আগের দিন শনাক্তের হার ছিল ২২ দশমিক ৫১ শতাংশ।

পরিস্থিতি ক্রমেই খারাপের দিকে যাচ্ছে উল্লেখ করে বিভাগীয় স্বাস্থ্য পরিচালক বলেন, “গত প্রায় সাড়ে পাঁচ মাসের মধ্যে এটিই একদিনে সর্বোচ্চ শনাক্তের সংখ্যা। গত বছরের ১৩ আগস্ট একদিনে ৬১২ জন শনাক্ত হওয়ার পর থেকে রোববার পর্যন্ত এটাই একদিনে সর্বোচ্চ শনাক্তের সংখ্যা।”

তিনি আরও বলেন, গত ২৪ ঘণ্টায় খুলনা জেলায় ১৫৩, যশোরে ১৯৪, ঝিনাইদহে ৪৭, কুষ্টিয়ায় ২৭, নড়াইলে চার, মেহেরপুরে আট, চুয়াডাঙ্গায় ১৩, সাতক্ষীরায় ১১, বাগেরহাটে ২০ ও মাগুরায় ১০ জন শনাক্ত হয়েছে।

“বিভাগের মধ্যে বাগেরহাটে শনাক্তের হার সর্বোচ্চ ৫০ শতাংশ, যশোরে ৪৭ দশমিক ৭৮, ঝিনাইদহে ৪৩ দশমিক ১২, মেহেরপুরে ৩৮ দশমিক ১ ও খুলনায় ৩৪ দশমিক ৫৪ শতাংশ।“

বিভাগীয় স্বাস্থ্য অধিদপ্তর জানিয়েছে, খুলনা বিভাগের মধ্যে প্রথম করোনারোগী শনাক্ত হয় চুয়াডাঙ্গায়, ২০২০ সালের ১৯ মার্চ। রোববার পর্যন্ত বিভাগে করোনা শনাক্ত হয়েছেন এক লাখ ১৬ হাজার ৫৯ জন। মারা গেছেন তিন হাজার ২০১ জন। সুস্থ হয়েছেন এক লাখ নয় হাজার ৪৩৯ জন।

বিভাগীয় স্বাস্থ্য পরিচালক মনজুরুল মুরশিদ বলেন, “করোনার এ উদ্বেগজনক সময়েও স্বাস্থ্যবিধি মানতে মানুষের মধ্যে অনীহা রয়েছে। বিভাগের প্রায় সব জেলায় সংক্রমণ দ্রুত বাড়ছে। কঠোরভাবে স্বাস্থ্যবিধি অনুসরণ করা আর টিকা নেওয়ার কোনো বিকল্প নেই।”