রংপুরে একজনকে হত্যার দায়ে ২ জনের সাজা

রংপুর সদর উপজেলায় এক বালু ব্যবসায়ীকে হত্যার দায়ে একজনকে ফাঁসি আরেকজনকে যাবজ্জীবন দিয়েছে আদালত।

রংপুরের অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ আদালত ২-এর বিচারক মো. তারিখ হোসেন বুধবার দুপুরে এ রায় ঘোষণা করেন।

মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত আসামি হলেন রংপুরের পীরগাছা উপজেলার দেউতি গ্রামের আফছার আলীর ছেলে মেহেদী হাসান সাগর (২৫) আর যাবজ্জীবনপ্রাপ্ত আসামি শাকিল মিয়া (২৫) একই গ্রামের দৌলত মিয়ার ছেলে।

এছাড়া এ মামলায় আরেকজনকে অভিযোগ প্রমাণিত না হওয়ায় খালাস দিয়েছে আদালত।

মামলার নথি অনুযায়ী, রংপুর সদর উপজেলার মেকুরা মধ্যপাড়া গ্রামের আবু সিদ্দিক মিয়ার ছেলে জুয়েল রানার (২৮) সঙ্গে নদী থেকে বালু উত্তোলন নিয়ে আসামিদের সঙ্গে বিরোধ চলছিল। ২০১৮ সালের ২৬ জুলাই সন্ধ্যার পর মোটরসাইকেল নিয়ে বাড়ি থেকে বেড়িয়ে আর ফিরে আসেননি জুয়েল। পরদিন সকালে মেকুরা পাঠানটারী গ্রামের ঘাঘট নদীর তীরে একটি ভুট্টাক্ষেতে মাথা পুঁতে রাখা অবস্থায় মরদেহ দেখতে পায় স্থানীয়রা। খবর পেয়ে পুলিশ গিয়ে মরদেহ উদ্ধার করে।

এ ঘটনায় জুয়েলের ছোট ভাই জাকির হোসেন বাদী হয়ে কয়েকজনের বিরুদ্ধে হত্যা মামলা দায়ের করেন।

আদালতের অতিরিক্ত এপিপি শাহ মো. নয়ন্নুর রহমান টফি বলেন, অভিযোগ প্রমাণিত হওয়ায় আদালত এই দুইজনকে সাজা দিয়েছে। তাছাড়া অভিযোগ প্রমাণিত না হওয়ায় আরেকজনকে বেকসুর খালাস দিয়েছে আদালত।