ফেনীর মাদ্রাসা থেকে শিক্ষার্থীর লাশ উদ্ধার

ফেনী শহরের একটি মাদ্রাসা ভবনের নিচ থেকে এক শিক্ষার্থীর মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। পুলিশের ধারণা, ছয়তলার ছাদ থেকে পড়ে তার মৃত্যু হয়েছে।

নিহত ইসরাফিল হোসেন ইফাত (১৪) কুমিল্লার চৌদ্দগ্রাম উপজেলার সাতঘরিয়া গ্রামের ওমান প্রবাসী মো. ইয়াসিনের ছেলে। শহরের মিছবাহুল কুরআন ওয়াস সুন্নাহ মাদ্রাসার হেফজ বিভাগের শিক্ষার্থী ছিল সে।

ইসরাফিলের নানা সিরাজুল ইসলাম বলেন, “গত ঈদে বাড়ি এসে ইসরাফিল আর মাদ্রাসায় যেতে চায়নি। মাদ্রাসার শিক্ষকরা বিভিন্নভাবে নির্যাতন করে বলে তার অভিযোগ। শুক্রবার বিকালে তার মা তাকে জোর করে মাদ্রাসায় রেখে আসেন।”

আর শনিবার সকালে মাদ্রাসা ভবনের পাশে তার মরদেহ পড়ে থাকতে দেখে স্থানীয়রা।

মাদ্রাসার প্রধান শিক্ষক মো. ইউনুছ বলেন, ”ভোরে পড়ার সময় তাকে ক্লাসে না পেয়ে খোঁজাখুজি করা হয়। পরে মাদ্রসা ভবনের পাশে লাশ মেলে। খবর দিলে পুলিশ এসে লাশ নিয়ে যায়।”

মৃত্যুর কারণ সম্পর্কে তিনি কিছু বলতে পারেননি।

ফেনী থানার এসআই মো. ইফরান খান বলেন, “প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে মাদরাসার ছয়তলা ভবনের ছাদ থেকে পড়ে ইসরাফিলের মৃত্যু হয়েছে।”

ঘটনাস্থল থেকে একটি ভাঙা বালতি জব্দ করা হয়েছে জানিয়ে তিনি বলেন, এ ঘটনায় পরিবার মামলার প্রস্তুতি নিচ্ছে। মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য ফেনী সদর হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে। পিবিআই সদস্য ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে।