উপাচার্য সৎ হলে বিশ্ববিদ্যালয় ভালো চলে: শাবি ভিসি

উপাচার্য সৎ হলে বিশ্ববিদ্যালয় ভালো চলে বলে মন্তব্য করেছেন শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ফরিদ উদ্দিন আহমেদ।

বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় মিলনায়তনে রোববার সকালে 'উদ্যোক্তা ও উদ্ভাবন' বিষয়ক এক সেমিনারে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

বিশ্ববিদ্যালয়ের বন ও পরিবেশ বিজ্ঞান (এফইএস) বিভাগের শিক্ষার্থীদের সংগঠন 'বাংলাদেশ প্রফেশনাল ফরেস্ট্রি স্টুডেন্ট অ্যাসোসিয়েশন (বাফসা)’ এ সেমিনারের আয়োজন করে।

উপাচার্য বলেন, “বিশ্ববিদ্যালয় সামনে ভালো চলবে নাকি খারাপ চলবে, সেটা নির্ভর করবে বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যের ওপর। উপাচার্য যদি সৎ থাকেন, পরিশ্রম করেন, ভিশন-মিশন থাকে; তাহলে বিশ্ববিদ্যালয় এগিয়ে যাবে। তেমনি বিভাগীয় প্রধান যদি সৎ থাকেন, তাদের মধ্যে নিষ্ঠা থাকে, একাগ্রতা থাকে, তাহলে বিভাগও সামনে এগিয়ে যাবে।"

এ সময় পরিশ্রমের বিকল্প কোনো কিছু নেই বলেও মন্তব্য করেন ফরিদ উদ্দিন।

বিভাগীয় প্রধান ও শিক্ষকদের উদ্দেশে তিনি বলেন, “ডিপার্টমেন্টে আসলাম, এক ঘণ্টা থাকলাম, চলে গেলাম- এভাবে ডিপার্টমেন্ট কিন্তু এগোবে না। ডিপার্টমেন্টকে ভালো করতে গেলে, এগিয়ে নিয়ে যেতে হলে ডিপার্টমেন্টে প্রচুর সময় দিতে হবে। ফাঁকিবাজি করলে চলবে না।”

“শিক্ষার্থীদের উদ্দেশে বলব, তোমরা টাইম ম্যানেজমেন্ট করে চলবে। সময়ের কাজ সময়ে করবে। সৎ থাকবে। কথা দিয়ে কথা রাখবে, পড়াশোনা করবে, পরীক্ষার সময় পরীক্ষা দিবে।”

অনুষ্ঠানে এফইএসের বিভাগীয় প্রধান ও বাফসার সভাপতি অধ্যাপক ড. রোমেল আহমেদ, কোষাধ্যক্ষ অধ্যাপক ড. মো. আনোয়ারুল ইসলাম, অ্যাগ্রিকালচারাল অ্যান্ড মিনারেল সায়েন্সেস অনুষদের ডিন অধ্যাপক স্বপন কুমার সরকার, এফইএসের অধ্যাপক ড. বেলাল উদ্দিন, অধ্যাপক ড. কামরুজ্জামান চৌধুরী, অধ্যাপক ড. মঞ্জুর রশীদ ও শিক্ষার্থীরা উপস্থিত ছিলেন।