প্রবাস ফেরত দুস্থ কর্মীরা সহায়তার আওতায় আসছেন

  • নিজস্ব প্রতিবেদক, বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
    Published: 2020-07-05 17:36:28 BdST

bdnews24

করোনাভাইরাস সঙ্কটের মধ্যে দেশে ফিরতে বাধ্য হওয়া ‘অসহায়, ক্ষতিগ্রস্ত ও দরিদ্র’ প্রবাসী কর্মী এবং প্রবাসে থাকা কর্মীদের পরিবারের সদস্যদের সামাজিক সুরক্ষাসহ মানবিক সহায়তা দিতে জেলা ও উপজেলা প্রশাসনকে নির্দেশ দিয়েছে দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়। 

জেলা কর্মসংস্থান অফিসের মাধ্যমে তালিকা করে এই সহায়তা দেওয়া হবে বলে রোববার প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়ের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়।    

করোনাভাইরাস সঙ্কটের শুরু থেকে এ পর্যন্ত এক লাখেরও বেশি প্রবাসী শ্রমিক বিভিন্ন দেশ থেকে দেশে ফিরে এসেছেন। আরও অনেকে বিদেশে কাজ হারিয়ে দেশে ফেরার চিন্তায় আছেন।    

বিপদগ্রস্ত অবস্থায় দেশে ফিরে তাদের অনেকেই কাজের অভাবে অর্থসঙ্কটে দিন কাটাচ্ছেন। আবার কবে বিদেশে যাওয়া যাবে, তা নিয়েও রয়েছে অনিশ্চয়তা। 

এই প্রেক্ষাপটে গত ২৬ এপ্রিল প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রী ইমরান আহমদের সভাপতিত্বে এক আন্তঃমন্ত্রণালয় সভার বিষয়টি নিয়ে আলোচনা হয়। সেখানে বিদেশ ফেরত অসহায়, ক্ষতিগ্রস্ত, দরিদ্র কর্মী ও বিদেশে অবস্থানরত বাংলাদেশি কর্মীদের পরিবারের সদস্যদের সামাজিক নিরাপত্তা বেষ্টনী এবং সরকারের সহায়তা কার্যক্রমের আওতায় আনার সুপারিশ করা হয়।

সেই আলোকে গত ১ জুলাই দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয় একটি পরিপত্র জারি করে বিদেশফেরত দরিদ্র কর্মী এবং প্রবাসী কর্মীদের পরিবারকে উপজেলাভিত্তিক বরাদ্দ দিতে জেলা প্রশাসক ও উপজেলা নির্বাহী অফিসারদের নির্দেশনা দেয়।

সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, সহায়তা পেতে ইচ্ছুক বিদেশ ফেরত কর্মী এবং প্রবাসী কর্মীদের পরিবারকে নিজ জেলার জনশক্তি ও কর্মসংস্থান অফিসে এবং যেসব জেলায় কর্মসংস্থান অফিস নেই, সেসব জেলা সদরে টেকনিক্যাল ট্রেনিং সেন্টারে যোগাযোগ করে তালিকাভুক্ত হতে হবে।