পছন্দের খবর জেনে নিন সঙ্গে সঙ্গে

কুমিল্লার ঘটনার ‘রাজনৈতিক রূপ’ দিতে চায় ষড়যন্ত্রকারীরা: মোশাররফ

  • জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক, বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
    Published: 2021-10-16 18:40:19 BdST

bdnews24

কুমিল্লার ঘটনায় ষড়যন্ত্রের মাধ্যমে সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি নষ্ট করে ‘রাজনৈতিক রূপ’ দেওয়ার চেষ্টা করা হচ্ছে বলে অভিযোগ করেছেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য খন্দকার মোশাররফ হোসেন।

শনিবার দুপুরে জাতীয় প্রেস ক্লাবের তোফাজ্জ্বল হোসেন মানিক মিয়া হলে এক আলোচনাসভায় তিনি এই মন্তব্য করেন।

খন্দকার মোশাররফ বলেন, “কুমিল্লার যে ঘটনা, সেটা কে ঘটিয়েছে সেটা আমরা জানি না। তবে যে ঘটিয়েছে, এটা ষড়যন্ত্রমূলকভাবে ঘটিয়েছে। আমাদের বাংলাদেশে ৯২ ভাগ মুসলমান অধিবাসী হলেও বাংলাদেশ দাবি করে সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতির দেশ।

“এখানে হিন্দুরা এবং অন্যান্য ধর্মের মানুষ নির্ভয়ে তাদের ধর্ম পালন করতে পারে, পূজা অনুষ্ঠান পালন করতে পারে। এখানে কোনো সময় এই ধরনের অপচেষ্টা বা কোনো রকমের বাধা সৃষ্টি করা হয়নি।”

এ ঘটনায় ষড়যন্ত্র হয়েছে দাবি করে তিনি বলেন, “সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতির দেশে সম্প্রীতিকে বিনষ্ট করার জন্য এই ষড়যন্ত্রকারী কোরআন মন্দিরে অত্যন্ত গর্হিতভাবে অপমানজনকভাবে রাখা হয়েছে।

“এটা আমরা তীব্র নিন্দা করি এবং যারা এটা করেছে তাদেরকে খুঁজে বের করে তাদের বিচার দাবি করি। কেন না এই সম্প্রীতি নষ্ট করে এটাকে একটা রাজনৈতিক একটা রূপ দিতে চায়্”

ঘটনার তদন্ত দাবি করে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য বলেন, “এই বিষয়টা কিন্তু বাংলাদেশের জন্য খারাপ ইনডিকেশন বহন করে, নেগেটিভ ইনডিকেশন বহন করে। সেজন্য এখনই এই ষড়যন্ত্র নির্মূল করা প্রয়োজন।

“আমরা সরকারের কাছে দাবি করি যদি সরকার আন্তরিক হয়, আমার বিশ্বাস কারা করেছে– এটা বের করতে পারবে। আমি আশা করি, এ ব্যাপারে আমরা জানতে পারব এবং তার বিচার পাব।”

দুর্গাপূজার মধ্যে কুমিল্লার একটি মন্দিরে কোরআন অবমাননার কথিত অভিযোগ তুলে বুধবার কয়েকটি মন্দিরে হামলা, ভাংচুর চালানো হয়। এর পর দেশের বিভিন্ন জেলায় মন্দিরে ও পূজা মণ্ডপে হামলা হয়। তা ঠেকাতে গেলে পুলিশের সঙ্গে সংঘর্ষও বাঁধে, যাতে চাঁদপুরের হাজীগঞ্জে প্রাণহানিও ঘটে।

দেশে বিচারব্যবস্থা স্বাধীন নেই অভিযোগ করে আলোচনাসভায় খন্দকার মোশাররফ বলেন, “আজকে হুকুমের নির্দেশে রায় হচ্ছে। আপনারা জানেন, দেশের সাবেক প্রধান বিচারপতি এসকে সিনহা তার রা্য়ের অবজারভেশনে সরকারের বিরুদ্ধে একটা কমেন্ট করেছিলেন। সেই অবজারভেশন কেন করল সেজন্য কিভাবে তাকে অপমানিত হয়ে প্রধান বিচারপতির পদ ছেড়ে … দেশ ত্যাগ করতে হয়েছিল।

“এথন তিনি দুর্নীতি দমন কমিশনের মামলার আসামি। আরেকটি মামলায় নিম্ন আদালতে তারেক রহমানের বিরুদ্ধে কিছু পায়নি তাকে খালাস দিয়েছিল সেজন্য সেই বিচারককে দেশ ছেড়ে বিদেশে পালিয়ে যেতে হয়েছে। ”

বর্তমান সংকট উত্তরণে সুষ্ঠু নির্বাচনের বিকল্প নেই দাবি করে তিনি বলেন, “যেভাবে আপনারা (সরকার) মানুষকে ক্ষেপিয়ে রেখেছেন, মানুষ মনঃকষ্টে আছে। সময় বেশি নেই, তার প্রকাশ গণঅভ্যুত্থানের মাধ্যমে হবে।

“যদি আগামী নির্বাচন একটি নির্দলীয় নিরপেক্ষ সরকারের অধীনে না হয়, তাহলে কিন্তু দেশে মানুষ বসে থাকবে না। তাদের যে পুঞ্জীভূত ক্ষোভ একদিন গণঅভ্যুত্থানে রুপান্তরিত হবে। আমি আশা করি সরকার সেই অবস্থায় না গিয়ে একটি সুষ্ঠু নিরপেক্ষ নির্বাচনের স্বার্থে একটি নির্বাচনকালীন নির্দলীয় সরকারের দিকে যাবেন।”

বিএনপি নেতৃত্বাধীন ২০ দলীয় জোটের অন্যতম শরিক দল বাংলাদেশ কল্যাণ পার্টির উদ্যোগে ঈদে মিলাদুন্নবী উপলক্ষে মহানবী (সা.) এর জীবনাদর্শ ও সমকালীন বাংলাদেশ শীর্ষক এই আলোচনাসভা হয়।

সভায় বর্তমান সরকারের শাসনামলকে ‘আইয়ামে জাহেলিয়াত’ বা ‘অন্ধকার যুগ’ হিসেবে বর্ণনা করেন খন্দকার মোশাররফ হোসেন।

তিনি বলেন, “এর থেকে আমাদের মুক্ত হতে হবে এবং এই থেকে মুক্তি পেতে হলে এদেশের মানুষের কথা বলার অধিকার, ভোট দেওয়ার অধিকার এবং গণতন্ত্রকে পুণঃপ্রতিষ্ঠা করতে হবে। গণতন্ত্র পুনঃপ্রতিষ্ঠা করে জনগণের ওপর ছেড়ে দিতে হবে তারা কীভাবে দেশ পরিচালনা করতে চায়?”

কল্যাণ পার্টির চেয়ারম্যান অবসরপ্রাপ্ত মেজর জেনারেল সৈয়দ মুহাম্মদ ইবরাহিমের সভাপতিত্বে ও যুগ্ম মহাসচিব আবদুল্লাহ আল হাসান সাকীবের সঞ্চালনায় আলোচনাসভায় সদরঘাট কেন্দ্রীয় জামে মসজিদের খতীব মাওলানা নাসির ইকবাল বিন শাফী, সাভার বায়তুল মাগফেরাত কেন্দ্রীয় জামে মসজিদের খতীব মাওলানা হুমায়ুন কবির মাজেদী, কল্যাণ পার্টির ড. বদরুল আলম সিদ্দিকী, মাওলানা সালেহ উদ্দিন সিদ্দিকী, অবসরপ্রাপ্ত কর্নেল মো. আকরাম, অবসরপ্রাপ্ত বিগ্রেডিয়ার জেনারেল হাসান নাসির বক্তব্য রাখেন।