পছন্দের খবর জেনে নিন সঙ্গে সঙ্গে

নারায়ণগঞ্জে কাগজের কারখানায় দগ্ধ শাহিনও মারা গেলেন

  • জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক, বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
    Published: 2022-01-18 14:37:18 BdST

bdnews24
শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন অ্যান্ড প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউট। ফাইল ছবি

নারায়ণগঞ্জের বন্দর থানা এলাকার মদনপুরের ‘গাজী পেপার মিলসে’ দুদিন আগে গরম পানিতে দগ্ধ চারজনের কাউকেই বাঁচানো গেল না।

ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল পুলিশ ফাঁড়ির পরিদর্শক বাচ্চু মিয়া জানান, তিনজনের মৃত্যুর পর সর্বশেষ শাহিন মিয়া নামে ৩২ বছর বয়সী একজন ঢাকার শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন অ্যান্ড প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটে চিকিৎসাধীন ছিলেন। মঙ্গলবার ভোর সাড়ে ৫টার দিকে তিনিও মারা যান।

রোববার প্রথম প্রহরে ওই কারখানায় বয়লার বিস্ফোরণের পর গরম পানিতে দগ্ধ চার শ্রমিককে ঢাকায় আনা হয়। তখনই আব্দুল হানিফ নামে ৪২ বছর বয়সী একজনকে মৃত ঘোষণা করেন চিকিৎসকরা। বাকিরা সেখানেই চিকিৎসাধীন ছিলেন।

তাদের মধ্যে আব্দুল হক (৫৫) রোববার রাতে এবং হাফিজুর (২৬) সোমবার দুপুরে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান। সবশেষে শাহিন মারা গেলেন মঙ্গলবার ভোরে। 

বার্ন অ্যান্ড প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটের আবাসিক সার্জন এসএম আইউব হোসেন জানান, শাহিন মিয়ার শরীরের ৭০ শতাংশ পুড়েছিল।

আরও খবর

নারায়ণগঞ্জে কাগজের কারখানায় দগ্ধ আরও দুজনের মৃত্যু  

নারায়ণগঞ্জে কাগজের কারখানায় দগ্ধ ৪, একজনের মৃত্যু