২২ জুলাই ২০১৮, ৭ শ্রাবণ ১৪২৫

ঢাবিতে ‘টেলিভিশন স্টুডিও’ উদ্বোধন

  • ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিনিধি, বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
    Published: 2017-07-18 16:40:31 BdST

bdnews24

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সামাজিক বিজ্ঞান ভবনে ‘টেলিভিশন স্টুডিও’ উদ্বোধন করা হয়েছে।

মঙ্গলবার সকালে সামাজিক বিজ্ঞান ভবনের সাততলায় স্টুডিওটির উদ্বোধন করেন বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক আ আ ম স আরেফিন সিদ্দিক।

বিশ্ববিদ্যালয়ের টেলিভিশন, চলচ্চিত্র ও ফটোগ্রাফি বিভাগের উদ্যোগে এই স্টুডিওটি স্থাপিত হয়, যার অর্থায়ন করেছে বিশ্বব্যাংক হেকেপ প্রকল্প ও বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশন-ইউজিসি।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠান শেষে স্টুডিওতে ‘উদ্ভাবন ও উন্নয়নে উচ্চশিক্ষা’ শীর্ষক আলোচনা সভা হয়।

সভায় প্রধান অতিথি বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশনের চেয়ারম্যান অধ্যাপক আব্দুল মান্নান বলেন, “এই টেলিভিশন স্টুডিও স্থাপন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ইতিহাসে একটি অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ ঘটনা। স্টুডিওটিতে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা ব্যবহারিকভাবে মিডিয়া জগতের নানা দিক শিখতে পারবে।

“শিক্ষার্থীদের কাছ থেকে অনেক সৃজনশীল ধারণা বেরিয়ে আসবে। যার মাধ্যমে আমাদের দেশের মিডিয়া জগত আরো সমৃদ্ধ হবে।”

অধ্যাপক আরেফিন সিদ্দিক বলেন, শিক্ষার্থীদের ব্যবহারিক সুযোগ-সুবিধা বৃদ্ধির লক্ষ্যে বিশ্বব্যাংকের উচ্চশিক্ষার গুণগত মান প্রকল্পের (হেকেপ) আওতায় এই টিভি স্টুডিও স্থাপন করা হয়েছে।

এর মাধ্যমে দেশের টেলিভিশন ও চলচ্চিত্র শিল্পের জন্য দক্ষ ও প্রশিক্ষিত জনশক্তি সৃষ্টি করা সম্ভব হবে বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেন তিনি।

টেলিভিশনকে অত্যন্ত শক্তিশালী গণমাধ্যম মন্তব্য করে উপাচার্য বলেন, “প্রশিক্ষিত ও দক্ষ জনশক্তির হাতে এই মাধ্যম পরিচালিত হলে সমাজ তথা মানব সভ্যতার উপকার হবে। এটি অদক্ষ ও ভুল লোকের হাতে পড়লে মানব সভ্যতার ক্ষতি হতে পারে।”

তিনি বলেন, “একজন মানুষ যে মাধ্যমেই কাজ করুক না কেন; সবার আগে তাকে সেই কাজের ব্যাকরণ জানতে হবে। এই স্টুডিওটি স্থাপনের মাধ্যমে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা মিডিয়া সংক্রান্ত নানা কাজের ব্যাকরণ জানার সুযোগ পাবে। এতে শিক্ষার্থীরা সমাজ ও সভ্যতার উন্নয়নে ভূমিকা রাখব।”

সামাজিক বিজ্ঞান অনুষদের ভারপ্রাপ্ত ডিন অধ্যাপক এ জে এম শফিউল আলম ভূইয়ার সভাপতিত্বে আলোচনায় অন্যদের মধ্যে বক্তব্য দেন টেলিভিশন, চলচ্চিত্র ও ফটোগ্রাফি বিভাগের চেয়ারপারসন অধ্যাপক রিফফাত ফেরদৌস ও বিভাগের সহকারী অধ্যাপক হাবিবা রহমান।