স্কিল ও অভিজ্ঞতায় বড় পার্থক্য দেখছেন বাংলাদেশ কোচ

  • ক্রীড়া প্রতিবেদক, বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
    Published: 2020-01-25 23:49:00 BdST

bdnews24

প্রথম ম্যাচে তবু লড়াইয়ের স্বস্তি ছিল। দ্বিতীয় ম্যাচ থেকে প্রাপ্তি নেই বলতে গেলে কিছুই। স্বাভাবিকভাবেই হতাশ রাসেল ডমিঙ্গো। র‌্যাঙ্কিংয়ে দুই দলের যে ব্যবধান, মাঠের ক্রিকেটে সব দিক থেকেই সেটি ফুটে উঠেছে বলে মনে করেন বাংলাদেশ কোচ।

১৪১ রানের পুঁজি নিয়ে প্রথম টি-টোয়েন্টিতে পাকিস্তানকে বেগ দিয়েছিল বাংলাদেশ। কিন্তু শনিবার দ্বিতীয় ম্যাচে বাংলাদেশ স্রেফ উড়ে গেছে। ২০ ওভারে কেবল ১৩৫ রান তুলে ম্যাচ হেরেছে ৯ উইকেটে।

ম্যাচের পর সংবাদ সম্মেলনে ডমিঙ্গো হতাশার সুরে বললেন, দুই দলের ব্যবধান স্পষ্ট হয়েছে এই দুই ম্যাচে।

“দিনটি ছিল হতাশার। প্রথম ম্যাচে ওদেরকে আরও বেশি চ্যালেঞ্জ জানাতে পেরেছিলাম আমরা। উইকেট খুব সহজ নয় (ব্যাটিংয়ের জন্য), এখানে গড় স্কোর ১৫৫ রানের মতো। প্রথম ম্যাচে আমাদের ১৫ রানের মতো ঘাটতি ছিল, আজকে ২৫ রান।”

“তবে এতেই বোঝা যায়, তারা কেন ১ নম্বর দল, আমরা কেন ৯ নম্বর। এই মুহূর্তে দুই দলের অভিজ্ঞতা ও স্কিলে পার্থক্য বিশাল। ওদেরকে ধরতে হলে আমাদের অনেক পথ পাড়ি দিতে হবে।”

বাংলাদেশ কোচের মতে, পাকিস্তানের দারুণ বোলিং আক্রমণ খেলে বাংলাদেশের অনভিজ্ঞ ব্যাটিং লাইন আপ শিখেছে অনেক।

“পাকিস্তান সবসময়ই দারুণ সব ফাস্ট বোলার পেয়েছে, বিশেষ করে এই সংস্করণে। তারা নতুন বলে ভালো, দারুণ ইয়র্কার দেয়, রিভার্স সুইং করাতে পারে। আমাদের কাজটি তাই কঠিন ছিল। আমাদের ব্যাটিং লাইনআপে নাঈম কেবল পঞ্চম টি-টোয়েন্টি খেলছে, আফিফ ৯-১০টি ম্যাচ খেলেছে। মেহেদি আজকে তিনে খেলেছে তার দ্বিতীয় টি-টোয়েন্টিতে।”

“এই ব্যাটিং লাইনআপ তাই বেশ অনভিজ্ঞ। তবে আশা করি সামনে ওরা ভালো করবে। কঠিন উইকেটে দারুণ এক বোলিং আক্রমণ খেলেছে ওরা। আশা করি, ওরা শিখতে পেরেছে অনেক।”


ট্যাগ:  বাংলাদেশ  বাংলাদেশ-পাকিস্তান সিরিজ  ডমিঙ্গো