ভারতকে গুঁড়িয়ে নিউ জিল্যান্ডের লিড

  • স্পোর্টস ডেস্ক, বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
    Published: 2020-02-22 13:28:22 BdST

আগের দিন গতি আর বাউন্সে ভারতকে কাঁপিয়ে দিয়েছিলেন অভিষিক্ত কাইল জেমিসন। দ্বিতীয় দিন টিম সাউদির তোপে বিরাট কোহলির দল গুটিয়ে গেছে অল্প রানে। কেন উইলিয়ামসনের ব্যাটে নিউ জিল্যান্ড পেয়েছে লিড। দিনের শেষ ভাগে ১১ রানের জন্য সেঞ্চুরি না পাওয়ার হতাশা অবশ্য সঙ্গী হয়েছে কিউই অধিনায়কের।

ওয়েলিংটন টেস্টে শনিবার ভারত অলআউট হয় ১৬৫ রানে। কোহলির নেতৃত্বে প্রথম ইনিংসে ভারতের দ্বিতীয় সর্বনিম্ন স্কোর এটি। ২০১৮ সালে লর্ডসে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে ১০৭ রান সর্বনিম্ন। দিন শেষে নিউ জিল্যান্ডের রান ৫ উইকেটে ২১৬। লিড ৫১ রানের। ১৪ রানে অপরাজিত বিজে ওয়াটলিংয়ের সঙ্গী কলিন ডি গ্র্যান্ডহোম, খেলছেন ৪ রান নিয়ে।

বেসিন রিজার্ভে বৃষ্টিবিঘ্নিত প্রথম দিন খেলা হয়েছিল মোটে ৫৫ ওভার। ভারত ৫ উইকেটে তুলেছিল ১২২ রান। দ্বিতীয় দিন এক ঘণ্টার একটু বেশি সময়ে তারা হারায় বাকি ৫ উইকেট, যোগ করতে পারে মাত্র ৪৩ রান।

দিনের চতুর্থ ওভারে পরপর দুই বলে ফেরেন রিশাব পান্ত ও রবিচন্দ্রন অশ্বিন। অজিঙ্কা রাহানের সঙ্গে ভুল বোঝাবুঝিতে পান্ত হন রান আউট। সাউদির দারুণ এক ডেলিভারিতে বোল্ড অশ্বিন।

সাউদি পরে ফেরান ভারতের ইনিংসে একমাত্র ব্যাটসম্যান হিসেবে একশর বেশি বল খেলা রাহানেকেও। আউট-সুইঙ্গারে শট খেলতে গিয়ে পরে ব্যাট সরিয়ে নেওয়ার চেষ্টা করেছিলেন। কানা ছুঁয়ে ক্যাচ যায় কিপারের গ্লাভসে। ১৩৮ বলে রাহানে করেন ৪৬।

শেষ দুই ব্যাটসম্যানকে ফেরাতে স্বাগতিকদের আর বেশি সময় লাগেনি। জেমিসন প্রথম দিন নিয়েছিলেন ৩ উইকেট, এদিন নেন একটি। সাউদি এদিন ৩টিসহ নেন মোট ৪ উইকেট।

সাবধানী ব্যাটিংয়ে ইনিংস শুরু করেছিলেন নিউ জিল্যান্ডের দুই ওপেনার টম ল্যাথাম ও টম ব্লান্ডেল। একাদশ ওভারে ল্যাথামকে কট বিহাইন্ড করে ২৬ রানের উদ্বোধনী জুটি ভাঙেন ইশান্ত শর্মা। ডানহাতি পেসার পরে বোল্ড করে ফেরান ব্লান্ডেলকে। কিউই ওপেনার ৮০ বলে করেন ৩০।

দর্শকদের করতালির মধ্যে দিয়ে ক্রিজে আসেন শততম টেস্ট খেলতে নামা রস টেইলর। অধিনায়ক উইলিয়ামসনের সঙ্গে টেইলরের জুটিতে নিউ জিল্যান্ড পেয়ে যায় লিড। এরপরই টেইলরকে ফিরিয়ে ৯৩ রানের জুটি ভাঙেন ইশান্ত। শর্ট লেগে সহজ ক্যাচ দেওয়ার আগে তিন সংস্করণেই একমাত্র ক্রিকেটার হিসেবে ১০০টি করে ম্যাচ খেলা এই ব্যাটসম্যান করেন ৪৪।

৯৩ বলে পঞ্চাশ ছোঁয়া উইলিয়ামসন ছিলেন সেঞ্চুরির পথে। তবে মাইলফলক স্পর্শ করতে পারেননি। মোহাম্মদ শামির অফ স্টাম্পের বাইরের বলে ড্রাইভ করে কাভারে দ্বাদশ ফিল্ডার রবীন্দ্র জাদেজাকে ক্যাচ দেন কিউই অধিনায়ক। ১৫৩ বলে ১১ চারে সাজান ৮৯ রানের ইনিংস।

থিতু হয়ে ইনিংস বড় করতে পারেননি হেনরি নিকোলস। অফ স্পিনার অশ্বিনকে ডিফেন্স করতে গিয়ে ক্যাচ দেন দ্বিতীয় স্লিপে কোহলির হাতে। আলোকস্বল্পতায় এরপর খেলা আর বেশিদূর এগোয়নি।

সংক্ষিপ্ত স্কোর:

ভারত ১ম ইনিংস: ৬৮.১ ওভারে ১৬৫ (পৃথ্বী ১৬, মায়াঙ্ক ৩৪, পুজারা ১১, কোহলি ২, রাহানে ৪৬, বিহারি ৭, পান্ত ১৯, অশ্বিন ০, ইশান্ত ৫, শামি ২১, বুমরাহ ০*; সাউদি ২০.১-৫-৪৯-৪, বোল্ট ১৮-২-৫৭-১, ডি গ্র্যান্ডহোম ১১-৫-১২-০, জেমিসন ১৬-৩-৩৯-৪, প্যাটেল ৩-২-৭-০)

নিউ জিল্যান্ড ১ম ইনিংস: ৭১.১ ওভারে ২১৬/৫ (ল্যাথাম ১১, ব্লান্ডেল ৩০, উইলিয়ামসন ৮৯, টেইলর ৪৪, নিকোলাস ১৭, ওয়াটলিং ১৪*, ডি গ্র্যান্ডহোম ৪*;  বুমরাহ ১৮.১-৪-৬২-০, ইশান্ত ১৫-৬-৩১-৩, শামি ১৭-২-৬১-১, অশ্বিন ২১-১-৬০-১)।


ট্যাগ:  ভারত  নিউ জিল্যান্ড  টেস্ট  ম্যাচ রিপোর্ট