মুশফিকের স্বপ্নের ফাউন্ডেশন ও একটি ‘চমক’

  • ক্রীড়া প্রতিবেদক, বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
    Published: 2020-05-26 22:46:49 BdST

bdnews24

মাশরাফি বিন মুর্তজা, সাকিব আল হাসানদের পথ ধরে এবার ফাউন্ডেশন গড়ার ঘোষণা দিলেন মুশফিকুর রহিমও। বাংলাদেশের এই সিনিয়র ক্রিকেটার জানালেন, শিগগিরই পথচলা শুরু হবে তার স্বপ্নের ‘এমআর ১৫’ ফাউন্ডেশনের। পাশাপাশি তিনি উপহার দিলেন একটি ‘চমক’; এই ফাউন্ডেশনের জন্য লোগো ডিজাইন করে সুযোগ থাকছে তার সঙ্গে পাঁচ তারকা হোটেলে ডিনার করার।

ঈদের আগের রাতে নিজের ফেইসবুক পাতায় মুশফিক জানিয়েছিলেন, আন্তর্জাতিক ক্যারিয়ারের ১৫ বছর পূর্তিতে একটি চমক দেবেন তিনি। মঙ্গলবার ছিল সেই দিন।

২০০৫ সালের ২৬ মে, লর্ডসে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে টেস্ট দিয়ে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে পা রেখেছিলেন ১৭ বছর বয়সী মুশফিক। সময়ের পরিক্রমায় তিনি হয়ে উঠেছেন দেশের ইতিহাসের অন্যতম সেরা ব্যাটসম্যান।

ক্যারিয়ারের দীর্ঘ এই ভ্রমণে যাদের পাশে পেয়েছেন মুশফিক, মঙ্গলবার রাতে ফেইসবুক লাইভে তিনি ধন্যবাদ জানালেন সবাইকে। জানালেন তার ফাউন্ডেশন গড়ার কথাও।

করোনাভাইরাসের প্রকোপ শুরুর পর থেকে দুঃস্থ মানুষদের সহায়তায় ব্যক্তিগতভাবে ও সতীর্থদের সঙ্গে মিলে অনেক কিছু করেছেন মুশফিক। নিজের ডাবল সেঞ্চুরির ব্যাট নিলামে তুলে প্রায় ১৭ লাখ টাকা আয় করে সহায়তা করেছেন অসহায়দের। মুশফিক জানালেন, আরও বড় পরিসরে কাজ করতেই ফাউন্ডেশনের উদ্যোগ।

“এখন এমন একটি সময়, যেখানে আমার মনে হয় আপনাদেরকে প্রতিদান দেওয়ার অনেক কিছুই আছে। সেজন্যই আমি কিছু পদক্ষেপ হাতে নিয়েছি। প্রথম পদক্ষেপ হচ্ছে, আমার স্বপ্নের ‘এমআর ১৫’ ফাউন্ডেশন গড়ে তোলা। আপনারা জেনে খুশি হবেন, খুব শিগগিরই আমি এটি শুরু করতে যাচ্ছি।”

জাতীয় দলে মুশফিকের জার্সি নম্বর ১৫। নিজের নাম আর জার্সি নম্বরের সঙ্গে মিলিয়েই রাখা হয়েছে ফাউন্ডেশনের নাম।

এরপরই মুশফিক জানালেন ভক্তদের জন্য চমকের কথা।

“আপনাদের জন্য যে সারপ্রাইজটি আমি দিতে চাই, সেটি হলো ‘এমআর ১৫’ ফাউন্ডেশনের জন্য লোগো ডিজাইন করে আমার কাছে পাঠিয়ে দিন। আমি নিজে সেরা পাঁচজনকে বাছাই করব। তারা আমার সঙ্গে ঢাকার কোনো ফাইভ স্টার হোটেলে ডিনার করার সুযোগ পাবেন, করোনা পরিস্থিতি ঠিক হয়ে গেলে। পাঁচ জনের মধ্যে সেরা হবেন যিনি, তিনি পাবেন আমার অটোগ্রাফসহ একটি জার্সি। সেই লোগোই ব্যবহার করা হবে আমার ফাউন্ডেশনে ও সোশ্যাল মিডিয়ার সব প্ল্যাটফর্মে।”

লোগোর ডিজাইন কোথায়, কিভাবে ও কত দিনের মধ্যে পাঠাতে হবে, তা শিগগিরই নিজের অফিসিয়াল ফেইসবুক পাতায় জানানো হবে বলে জানিয়েছেন মুশফিক।


ট্যাগ:  বাংলাদেশ  মুশফিক