জৈব-সুরক্ষা বলয়ের স্কিল ক্যাম্পের দলে সোহান-খালেদ

  • ক্রীড়া প্রতিবেদক, বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
    Published: 2020-09-19 20:15:44 BdST

বাংলাদেশ দলের শ্রীলঙ্কা সফর নিয়ে অনিশ্চয়তা কাটেনি এখনও। তবে বিসিবি আগের পরিকল্পনামতোই এগিয়ে নিচ্ছে প্রক্রিয়া। স্কিল ক্যাম্পের জন্য শনিবার ঘোষণা করেছে ২৭ জনের দল। সবশেষ গত ফেব্রুয়ারিতে টেস্ট খেলেছে বাংলাদেশ। জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে সেই স্কোয়াডের ১৬ জনের সবাই আছেন এবারের দলে। এর বাইরে থেকে সুযোগ পাওয়াদের মধ্যে কৌতূহল জাগানিয়া নাম নুরুল হাসান সোহান ও সৈয়দ খালেদ আহমেদ।

ডাক পাওয়া ক্রিকেটারদের একজন ছাড়া বাকিরা রোববার থেকে টিম হোটেলে উঠে ঢুকে যাবেন জৈব-সুরক্ষা বলয়ে। এই বলয়ে থেকেই চলবে অনুশীলন। সফর হলে শ্রীলঙ্কার বিমানে ওঠার আগ পর্যন্ত এই বলয়েই থাকবে হবে সবাইকে।

২৭ জনের স্কিল ক্যাম্পের দলে রাখা হয়েছে সাইফ হাসানকেও। করোনাভাইরাস পরীক্ষায় গত ৮ সেপ্টেম্বর পজিটিভ হয়েছিলেন এই টপ অর্ডার ব্যাটসম্যান। সবশেষ পরীক্ষায় তিনি নেগেটিভ হয়েছেন। তবে রোববারই তিনি টিম হোটেলে উঠছেন না। আরও এক দফা পরীক্ষায় নেগেটিভ হলেই তাকে টিম হোটেলে জায়গা দেওয়া হবে।

স্কিল ক্যাম্পের দলে সুযোগ পাওয়া কিপার-ব্যাটসমান সোহান সবশেষ আন্তর্জাতিক ম্যাচ খেলেছেন ২০১৮ সালের জুলাইয়ে ওয়েস্ট ইন্ডিজ সফরে। দুটি টেস্ট খেলা পেসার খালেদ সম্প্রতি অনুশীলনে ফিরেছেন চোট নিয়ে লম্বা সময় মাঠের বাইরে থাকার পর।

বিসিবির লাল বলের চুক্তিতে না থাকা মাহমুদউল্লাহও আছেন ক্যাম্পের দলে। ফেব্রুয়ারিতে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে সিরিজের দল থেকে বাদ পড়েছিলেন এই অভিজ্ঞ ক্রিকেটার।

রোববার সকালে হোটেলে চেক-ইন করে দুপুর থেকেই মিরপুর শের-ই-বাংলা স্টেডিয়ামে শুরু হবে স্কিল ট্রেনিং পর্ব। এর মধ্যেই দুই দফায় করোনাভাইরাস পরীক্ষা করানো হয়েছে ক্রিকেটারদের। আগামী সোম ও শুক্রবার করানো হবে আরও দুই দফায়।

বিসিবির ক্রিকেট পরিচালনা বিভাগের প্রধান আকরাম খান বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে জানালেন, জৈব-সুরক্ষা বলয়ে ক্রিকেটারদের নিরাপদ রাখতে তারা সম্ভব সবরকম ব্যবস্থা নেওয়ার চেষ্টা করছেন।

“যখন এইচপি দলও যাওয়ার কথা ছিল সফরে, তখন আমাদের পরিকল্পনা ছিল হোটেলের দুটি ফ্লোর ভাড়া নেওয়া। এখন শুধু জাতীয় দলেরই সফর হতে পারে বলে একটি ফ্লোর নিয়েছি। এখানেই ক্রিকেটার, সাপোর্ট স্টাফ সবাই থাকবেন। খাওয়া, লন্ড্রি, সব এই ফ্লোরে হবে, বাইরে যেতে পারবে না কেউ।”

“টিম বাসের ড্রাইভার বা এরকম যাদেরকে হোটেলে রাখা যাবে না, তাদেরকেও আমরা পরীক্ষা করাব এবং তাদের সঙ্গে যেন নিরাপদ দূরত্ব থাকে, সেটা নিশ্চিত করব। সফরে যাওয়ার আগ পর্যন্ত ছেলেদেরকে নিরাপদ রাখার সব চেষ্টাই করা হবে। ২৭ তারিখ সফরে যাওয়ার জন্য আমরা সবকিছুই পরিকল্পনামতো করছি। বাকিটা নির্ভর করবে শ্রীলঙ্কার সিদ্ধান্তের ওপর।”

ইংল্যান্ড ও ওয়েলস ক্রিকেট বোর্ড (ইসিবি) জৈব-সুরক্ষা বলয় সৃষ্টি করে ইংলিশ গ্রীষ্মের খেলাগুলি শেষ করেছে সফলভাবে। তাদের মতো ব্যপকতা না থাকলেও বাংলাদেশের বাস্তবতায় যথাসম্ভব বলয় সৃষ্টি করা হচ্ছে, জানালেন বিসিবির প্রধান চিকিৎসক দেবাশিস চৌধুরি।

“সম্প্রতি ইংল্যান্ড খুব সাফল্যের সঙ্গে তাদের গ্রীষ্মকালীন ক্রিকেট কার্যক্রম সম্পন্ন করেছে। তারই ধারাবাহিকতায় বিসিবি জৈব-নিরাপত্তামূলক পরিবেশ তৈরি মাধ্যমে ক্রিকেটারদের ঝুঁকি কমানোর চেষ্টা করছে। এই যে সুরক্ষা বলয় বা ‘বাবল’, এর আওতায় ক্রিকেটারদের হোটেল, রেস্টুরেন্ট, যে বাহনে মাঠে যাওয়া-আসা করবে সেটা, জিম, সুইমিং পুল, ট্রেনিং সুবিধা, মেডিকেল, সবকিছুই থাকবে।”

“আমরা স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় ও কোভিড বিশেষজ্ঞেদর তত্ত্বাবধানে, ইসিবি ও আইসিসির গাইডলাইনের আলোকে প্রতিটি খেলোয়াড় ও সাপোর্ট স্টাফকে দফায় দফায় পরীক্ষা করানোর মাধ্যমে, তাদের শরীরে করোনাভাইরাস সংক্রমণের অনুপস্থিতি নিশ্চিত হয়ে এই বলয়ে নিয়ে আসছি। শ্রীলঙ্কা সফরের আগ পর্যন্ত এটা ধরে রাখার চেষ্টা করা হবে। এছাড়া হোটেলের যারা কর্মচারী, মাঠকর্মী, ক্লিনার, যাদেরই ক্রিকেটারদের কাছে আসার সম্ভাবনা আছে, তাদেরকেও পরীক্ষা করাচ্ছি।”

যে জন্য এত আয়োজন, সেই শ্রীলঙ্কা সফর নিয়ে বিসিবি এখনও লঙ্কান বোর্ডের জবাবের অপেক্ষায় আছে। লঙ্কান পত্রিকা ডেইলি মিরর শুক্রবার খবর প্রকাশ করেছিল, কোয়ারেন্টিনের সময় কমানোর নিয়ে শ্রীলঙ্কা ক্রিকেটের (এসএলসি) আবেদন রাখেনি দেশটির স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়। বাংলাদেশ দলকে ১৪ দিনই কোয়ারেন্টিন করতে হবে বলে জানিয়েছে তারা। তবে একই পত্রিকার শনিবারের খবর, স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়কে আবারও কোয়ারেন্টিনসহ অন্যান্য শর্ত শিথিলের অনুরোধ করেছে এসএলসি।

বিসিবির প্রধান নির্বাহী নিজাম উদ্দিন চৌধুরি শনিবার দুপুরে বললেন, আশা নিয়েই অপেক্ষা করছেন তারা।

“ইতোমধ্যে বেশ কিছু বিষয়ে শ্রীলঙ্কান বোর্ডের সাথে আমাদের আলোচনা হয়েছে। যতটুকু জেনেছি বা শ্রীলঙ্কান বোর্ড জানিয়েছে, আমাদের বিষয়গুলো তারা সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের কাছে তুলে ধরেছে এবং ইতিবাচক সভা হয়েছে। আমরা আশা করেছি আগামী দুই-একদিনের মধ্যে তাদের কাছ থেকে দিক নির্দেশনা বা হেলথ প্রোটোকল পাব।”

স্কিল ক্যাম্পের বাংলাদেশ দল: মুমিনুল হক, তামিম ইকবাল, মুশফিকুর রহিম, মাহমুদউল্লাহ, সাদমান ইসলাম, লিটন কুমার দাস, মেহেদী হাসান মিরাজ, মোহাম্মদ মিঠুন, সৌম্য সরকার, তাইজুল ইসলাম, আল আমিন হোসেন, রুবেল হোসেন, মুস্তাফিজুর রহমান, ইমরুল কায়েস, তাসকিন আহমেদ, নুরুল হাসান সোহান, শফিউল ইসলাম, ইয়াসির আলি চৌধুরি, নাঈম হাসান, আবু জায়েদ চৌধুরি, ইবাদত হোসেন চৌধুরি, সৈয়দ খালেদ আহমেদ, নাজমুল হোসেন শান্ত, মোসাদ্দেক হোসেন, হাসান মাহমুদ, মোহাম্মদ সাইফ উদ্দিন, সাইফ হাসান।


ট্যাগ:  বাংলাদেশ  বাংলাদেশ-শ্রীলঙ্কা সিরিজ