চট্টগ্রামে বিরল চর্মরোগের কারণে ডোরাকাটা শিশুর জন্ম

  • চট্টগ্রাম ব্যুরো, বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
    Published: 2020-11-22 21:50:46 BdST

bdnews24
চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল

জন্মগত চর্মরোগ নিয়ে চট্টগ্রামে একটি হাসপাতালে একটি শিশুর জন্ম হয়েছে।

সারা দেহের ত্বকে বাদামির উপর ডোরাকাটা দাগের এ ধরনের নবজাতকদের ‘কলোডিয়ান বেবি’ বলা হয়ে থাকে। 

চিকিৎসকরা বলছেন, হারলেকুইন ইকথাইয়োসিস নামে এক ধরনের জন্মগত চর্ম রোগ নিয়ে এ ধরনের শিশু জন্ম নেয়। এমন শিশুর জন্ম হয় কয়েক লাখে একটি।

নগরীর বেসরকারি একটি হাসপাতালে অস্ত্রোপচারের মাধ্যমে গত শনিবার রাতে এ শিশুর জন্ম দেন ২৫ বছর বয়সী এক গৃহবধূ। ৩৮ সপ্তাহে জন্ম নেওয়া শিশুটি ওই নারীর প্রথম সন্তান। 

জন্মের পর শিশুটিকে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।  

চট্টগ্রামের মেমন হাসপাতালের গাইনি বিভাগের চিকিৎসক ইশরাত জাহান বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে বলেন, হারলেকুইন ইকথাইয়োসিস নামে একটি চর্মরোগে ভুগছে নবজাতকটি। শিশুটির পুরো শরীরে বাদামি আবরণের উপর লাল ডোরাকাটা রয়েছে।

“কয়েক লাখে একজন বাচ্চা এ ধরনের রোগ নিয়ে জন্মগ্রহণ করতে পারে। বাবা বা মায়ের বংশগত দিক থেকে নবজাতকটি তা পেতে পারে।”

চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের নবজাতক ওয়ার্ডের প্রধান অধ্যাপক ডা. জগদীশ দাশ বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে বলেন, “আমাদের হাসপাতালে এ ধরনের সমস্যা নিয়ে আগেও শিশু এসেছে। তবে এই নবজাতকটির জন্মগত চর্মরোগের সমস্যাটি মারাত্মক।”

এই ধরনের শিশু পুরো ভালো না হলেও বেঁচে থাকতে পারে বলে জানান তিনি।  

“কলোডিয়ান বেবি জিনগত ত্রুটির কারণে জন্ম নেয়। পায়ের পেশি দুর্বল হওয়ায় নাড়াতে কম পারে।”

চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের শিশু বিভাগের সাবেক প্রধান অধ্যাপক ডা. প্রণব কুমার চৌধুরী বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে বলেন, “এ ধরনের শিশু পানিশূন্যতা, ত্বক ও শ্বাস প্রশ্বাসের সংক্রমণে ভোগে। সেকারণে তাদের মৃত্যুঝুঁকিও বেশি। তবে বিরল এই রোগে আক্রান্তদের অনেকেই বাঁচে।

ভবিষ্যতে ওই দম্পতির সন্তান নেওয়ার আগে তাদের ‘জেনেটিক কাউন্সেলিং’ করা দরকার বলে মন্তব্য করেন তিনি।