কোভিড-১৯: চট্টগ্রামে শনাক্তের সংখ্যা বাড়ছে লাফিয়ে লাফিয়ে

  • চট্টগ্রাম ব্যুরো, বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
    Published: 2020-11-23 20:45:05 BdST

bdnews24
চট্টগ্রামের কর্ণফুলী তৃতীয় সেতু এলাকায় ভ্রাম্যমাণ আদালতের অভিযানে বাস থামিয়ে দেখা হচ্ছে সবাই মাস্ক পরেছেন কি না।

প্রায় সাড়ে তিন মাস পর চট্টগ্রাম জেলায় একদিনে দুই শতাধিক কোভিড-১৯ রোগী শনাক্ত হল।

সোমবার জেলা সিভিল সার্জনের দেওয়া তথ্য মতে, আগের ২৪ ঘণ্টায় এক হাজার ২৭০ জনের নমুনা পরীক্ষা করে ২৪২ জনের কোভিড-১৯ শনাক্ত হয়েছে। শতকরা হিসেবে যা পরীক্ষা করা নমুনার প্রায় ১৯ শতাংশ।

গত ১০ দিন ধরে শনাক্তের সংখ্যা দেড়শর আশপাশে ছিল। অক্টোবরে দৈনিক শনাক্তের সংখ্যা ছিল একশর কাছাকাছি।

এর আগে ৮ জুলাই তার আগের ২৪ ঘণ্টায় ১৪৭১টি নমুনা পরীক্ষা করে ২৯৫ জনের করোনাভাইরাস সংক্রমণ শনাক্ত হওয়ার তথ্য জানিয়েছিল সিভিল সার্জন কার্যালয়। সেদিন জেলায় ছয়জন করোনা রোগী মারা গিয়েছিল।

এরপর থেকে চট্টগ্রামে কোভিড-১৯ শনাক্তকরণ পরীক্ষা এবং শনাক্তের সংখ্যা দুটোই কমতে শুরু করে।

তার আগে গত ২৯ জুন চট্টগ্রাম জেলায় সর্বোচ্চ ১৫৯৪টি নমুনা পরীক্ষা করে সবচেয়ে বেশি ৪৪৫ জনের করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়েছিল।

চট্টগ্রামের সিভিল সার্জন ডা. সেখ ফজলে রাব্বি বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে বলেন, “জুন মাসে চট্টগ্রামে সর্বোচ্চ করোনা রোগী শনাক্ত হয়েছিল, যা ছিল দিনে চারশর বেশি। এরপর জুলাইর শুরুর দিকে এ সংখ্যা আড়াইশর মত ছিল।

“প্রায় সাড়ে তিন মাস পর আবার আড়াইশর কাছাকাছি রোগী শনাক্ত হল। শনাক্তের হার গত কয়েক দিন ধরেই বাড়ছিল। মানুষ সচেতন না হলে এই শীতে পরিস্থিতি আরও খারাপ হতে পারে। স্বাস্থ্যবিধি মানায় সর্বোচ্চ জোর দিতে হবে।”

সোমবার পর্যন্ত জেলায় করোনাভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে মোট ২৩ হাজার ৮৭০ জন। শনাক্তদের মধ্যে নগরীর ১৭ হাজার ৮৫১ জন এবং উপজেলার ৬ হাজার ১৯ জন।

সরকারি হিসেবে, এই পর্যন্ত করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে জেলায় মোট ৩১৩ জনের মৃত্যু হয়েছে।

মে-জুন মাসে চট্টগ্রাম জেলায় করোনাভাইরাস শনাক্তের হার ছিল নমুনা পরীক্ষার প্রায় ২৮-৩০ শতাংশ। জুলাই মাসের শুরুতে তা কমে ১৯-২২ শতাংশে দাঁড়ায়।

জুলাইয়ের শেষ দিকে এই হার ছিল ১১-১২ শতাংশ। অগাস্ট মাসের শুরুতে শনাক্তের হার কিছুটা বেশি থাকলেও অগাস্ট মাসের শেষ দিকে তা ছিল ১০ শতাংশের মত। যা সেপ্টেম্বর মাসে গড়ে সাড়ে ৫ থেকে ৭ শতাংশের মধ্যে ছিল। অক্টোবর মাসের শুরুতে তা আবার বেড়ে সাড়ে ৮ থেকে সাড়ে ৯ শতাংশের মতো ছিল। গত সপ্তাহে তা বেড়ে গড়ে ১২ থেকে ১৩ শতাংশ হয়।

১৪ নভেম্বর ১৪৬ জন, ১৫ নভেম্বর ৬৩ জন, ১৬ নভেম্বর ১৮১ জন, ১৭ নভেম্বর ১৫৭ জন, ১৮ নভেম্বর ১৭৮ জন, ১৯ নভেম্বর ১৬১ জন, ২০ নভেম্বর ১৯৭ জন, ২১ নভেম্বর ১৪৫ জন এবং ২২ নভেম্বর ৬৪ জনের করোনাভাইরাস শনাক্ত হয় চট্টগ্রাম জেলায়।