করোনাভাইরাস: নগদ টাকার জোগান বাড়াবে কেন্দ্রীয় ব্যাংক

  • নিজস্ব প্রতিবেদক, বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
    Published: 2020-03-22 23:56:02 BdST

নভেল করোনাভাইরাসের কারণে বাজারে যাতে নগদ টাকার সংকট দেখা না দেয় সেজন্য তারল্য জোগান দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে কেন্দ্রীয় ব্যাংক।

ব্যাংকগুলোর হাতে থাকা অতিরিক্ত ট্রেজারি বিল ও বন্ড কিনে টাকা ছাড়বে কেন্দ্রীয় ব্যাংক।

রোববার রাতে এ সংক্রান্ত একটি সার্কুলার জারি করেছে বাংলাদেশ ব্যাংক।

সব ব্যাংকের প্রধান নির্বাহীদের কাছে পাঠানো ‘সরকারি সিকিউরিটিজ ক্রয়-বিক্রয়’শীর্ষক সার্কুলারে বলা হয়েছে,  বাংলাদেশ ব্যাংকের ডেট ম্যানেজমেন্ট ডিপার্টমেন্ট সরকারি সিকিউরিটিজের সেকেন্ডারি মার্কেট উন্নয়নের পাশাপাশি মুদ্রানীতির উদ্দেশ্য বাস্তবায়নকল্পে প্রাইমারি ও সেকেন্ডারি মার্কেট হতে সরকারি সিকিউরিটিজ ক্রয় এবং প্রয়োজনে তা সেকেন্ডারি মার্কেটে বিক্রি করে থাকে।এই লেনদেনসমূহ বাজার মূল্যে সম্পাদন করা হয়ে থাকে।

বর্তমান পেক্ষাপটে সিদ্ধান্ত হয়েছে-

>> বাংলাদেশে কার্যরত সকল তফসিলি ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠানগুলোকে বাংলাদেশ ব্যাংক নিয়মিতভাবে সরকারি সিকিউরিটিজের বিপরীতে রেপো সুবিধা প্রদান করে থাকে। বর্তমানে করোনাভাইরাসের কারনে দেশের ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠানগুলোর তারল্য ব্যবস্থাপনায় যাতে প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি না হয় সেলক্ষ্যে কেন্দ্রীয় ব্যাংক সেকেন্ডারি মার্কেট হতে সরকারি সিকিউরিটিজ ক্রয় কার্যক্রম জোরদার করার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেছে।

>> কোন তফশিলি ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠানের নিকট সহজে বিনিময়যোগ্য সম্পদ (এসএলআর) সংরক্ষণের পর অতিরিক্ত সরকারি সিকিউরিটিজ থাকলে তা বাংলাদেশ ব্যাংকের নিকট বাজারমূল্যে বিক্রয় করতে পারবে। এরূপ বিক্রয়ের প্রয়োজন হলে ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠানগুলোকে অত্র বিভাগের সাথে যোগাযোগ করার জন্য পরামর্শ দেয়া যাচ্ছে।

বাংলাদেশ ব্যাংকের কর্মকর্তারা জানান, করোনাভাইরাস আতঙ্কে ব্যাংক থেকে গ্রাহকদের নগদ টাকা তোলার চাপ পরিমাণ বেড়ে গেছে। এর বিপরীতে কমে গেছে নগদ টাকা জমার পরিমান। এ বিষয়টি বিবেচনায় নিয়েই বাজারে তারল্য জোগান দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

নাম প্রকাশ না করা শর্তে বাংলাদেশ ব্যাংকের এক কর্মকর্তা বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে বলেন, এসএলআর সংরক্ষণের পর ১ লাখ কোটি টাকার বেশি ট্রেজারি বিল ও বন্ড ব্যাংকগুলোর কাছে রয়েছে। এর বিপরীতে ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠান সুদ পেয়ে থাকে।

“বর্তমান পরিস্থিতিতে নগদ টাকার চাপ বেড়ে গেছে; তাই চাইলেই এসব বিল বন্ড কিনে নেবে বাংলাদেশ ব্যাংক। ব্যাংকে যাতে কোনোভাবেই টাকার সংকট না হয়, এ জন্যই এ উদ্যোগ।”

পর্যাপ্ত নগদ টাকার সরবরাহ নিশ্চিত করতে হবে

অপর এক সার্কুলারে করোনাভাইরাসের কারণে সৃষ্ট পরিস্থিতিতে পর্যাপ্ত নগদ টাকার সরবরাহ নিশ্চিত করতে ব্যাংকগুলোকে নির্দেশ দিয়েছে কেন্দ্রীয় ব্যাংক।

তাতে বলা হয়েছে, সম্প্রতি করোনা ভাইরাসের প্রাদুর্ভাব এবং এর কমিউনিটি ট্রান্সমিশন রোধকল্পে সরকার কর্তৃক বিভিন্ন নির্দেশনার পরিপ্রেক্ষিতে ব্যাংকগুলোকে ইতোমধ্যে প্রয়োজনীয় নির্দেশনা প্রদান করা হয়েছে।

“এরূপ পরিস্থিতিতে গ্রাহকের চাহিদার বিপরীতে দৈনন্দিন নগদ অর্থের সরবরাহ যেন বিঘিœত না হয় সে লক্ষ্যে ব্যাংকের শাখাগুলোতে পর্যাপ্ত নগদ অর্থের সরবরাহ নিশ্চিত করার জন্য পরামর্শ প্রদান করা যাচ্ছে।”

কোন এলাকা/অঞ্চল সরকারি ঘোষণার মাধ্যেমে লকডাউন করা হলে সে এলাকায়/অঞ্চলে প্রয়োজনে স্থানীয় প্রশাসন ও আইন প্রয়োগকারী সংস্থাসহ উপর্যুক্ত কর্তৃপক্ষের সহায়তা গ্রহণ করে প্রয়োজনীয় নগদ অর্থের সরবরাহ নিশ্চিত করতে হবে।