দেরির জন্যই পিছিয়ে বাংলাদেশ: বিডা

  • নিজস্ব প্রতিবেদক, বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
    Published: 2021-05-17 20:58:42 BdST

bdnews24

ব্যবসায় পরিবেশের সূচকে বাংলাদেশের পিছিয়ে পড়ার জন্য এই সংক্রান্ত কাজ দেরিতে শুরু করাকে কারণ হিসেবে চিহ্নিত করেছে বিনিয়োগ উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ (বিআইডিএ)।

তবে এখন এই সূচকে বাংলাদেশকে এগিয়ে নিতে পুঙ্খনাপুঙ্খ কাজ চলছে বলে সোমবার এক আলোচনা অনুষ্ঠানে জানিয়েছেন বিডার নির্বাহী চেয়ারম্যান মো. সিরাজুল ইসলাম।

ভার্চুয়াল এই অনুষ্ঠানে তিনি বলেন, “বাংলাদেশে ব্যবসায়ের সহজতা সূচকে পিছিয়ে থাকার কারণ হচ্ছে এই খাতে আগে কাজ হয়নি। কাজ হচ্ছে গত ২ থেকে ৩ বছর ধরে।

“এই কারণে দেখা যাচ্ছে পাকিস্তান আমাদের চেয়ে অনেক দিক দিয়ে পিছিয়ে থাকলেও বিশ্ব ব্যাংকের করা ব্যবসায় সহজতা সূচকে ৬০ ধাপ এগিয়ে আছে।”

সিরাজুল বলেন, “এর আগে বিভিন্নভাবে ব্যবসায়ের সহজতা সূচক উন্নয়নে কাজ করা হলেও সেটা সঠিক পদ্ধতিতে হয়নি।

“আমরা এখন বিশ্ব ব্যাংকের করা সূচকের প্রতিটি পয়েন্ট ধরে ধরে কাজ করার চেষ্টা করছি।”

কোনো দেশে ব্যবসায়ের পরিবেশ কেমন, তা বুঝতে বিশ্ব ব্যাংক গ্রুপ ‘ডুয়িং বিজনেস’ প্রতিবেদন তৈরি করে। ১০টি মাপকাঠিতে তুলনা করে এই সূচক তৈরি হয়।

২০২০ সালে বিশ্বের ১৯০টি দেশের মধ্যে বাংলাদেশের অবস্থান ছিল ১৬৮ নম্বরে। তবে তার আগের বছর ছিল ১৭৬ নম্বরে। পাকিস্তানের অবস্থান ১০৮ নম্বরে।

কাজ চললেও খুব সহজেই এই সূচকে উন্নয়ন সম্ভব নয় বলে মন্তব্য করেন বিডার নির্বাহী চেয়ারম্যান।

ইন্টারন্যাশনাল বিজনেস ফোরাম অব বাংলাদেশ (আইবিএফবি) এবং বাংলাদেশ এন্টারপ্রাইজ ইনস্টিটিউট (বিইআই) যৌথভাবে এই আলোচনা অনুষ্ঠান আয়োজন করে।

বিডার পরিচালক (ওয়ান স্টপ সার্ভিস অ্যান্ড রেগুলেটরি রিফর্ম) জীবন কৃষ্ণ সাহা রায় অনুষ্ঠানে মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন।

স্বাগত বক্তব্য দেন বাংলাদেশ এন্টারপ্রাইজ ইনস্টিটিউটে সভাপতি রাষ্ট্রদূত এম হুমায়ুন কবির। আইবিএফবি সভাপতি ও এনার্জিপ্যাক পাওয়ার জেনারেশন লিমিটেডের ব্যবস্থাপনা পরিচালক হুমায়ুন রশীদ এতে সভাপতিত্ব করেন।

ব্যবসায় পরিবেশ সূচক বা ডুইং বিজনেস প্রতিবেদন ২০০৩  সালে থেকে বিশ্ব ব্যাংক প্রকাশ করে আসছে।