বন্ধুর জন্মদিনে গাছ উপহার দেওয়ার প্রতিজ্ঞা তরুণদের

  • রাসেল সরকার, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিনিধি, বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
    Published: 2020-06-05 16:44:51 BdST

জলবায়ু পরিবর্তন ও পরিবেশ বিপর্যয় থেকে পৃথিবীকে বাঁচাতে ‘গ্রিন হ্যাপি বার্থডে’ হ্যাশট্যাগে বন্ধুর জন্মদিনে গাছ উপহার দেওয়ার প্রতিজ্ঞা করছেন তরুণরা, যাদের অনুপ্রাণিত করছে বিশ্ববিদ্যালয় পর্যায়ের শিক্ষার্থীদের একটি স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন ‘আর্টিস্টস ফর চেইঞ্জ’।

করোনাভাইরাস মহামারীর এই সময়ে ভিন্ন এক প্রেক্ষাপটে পালিত হচ্ছে এবারের বিশ্ব পরিবেশ দিবস। সংক্রমণ এড়ানোর জন্য জনসমাগমের কোনো অনুষ্ঠান এবার রাখা হয়নি। তবে পরিবেশবাদী ও স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনগুলো সোশাল মিডিয়ায় সক্রিয় রয়েছে নানা ক্যাম্পেইন নিয়ে।

‘আর্টিস্টস ফর চেইঞ্জ’ এর আহ্বানে সাড়া দিয়ে অনেক তরুণ বন্ধুর জন্মদিনে গাছ উপহার দেওয়ার অঙ্গীকারনামার ছবি ফেইসবুক, টুইটার ও ইন্সটাগ্রামে পোস্ট করছেন। অন্যদেরও তারা জলবায়ু পরিবর্তন সম্পর্কে সচেতন হতে এবং ক্যাম্পেইনে অংশ নিতে চ্যালেঞ্জ জানাচ্ছেন।

টেন মিনিট স্কুলের প্রতিষ্ঠাতা আয়মান সাদিক, তার সহযোগী সাকিব বিন রাশিদ,অন্তিক মাহমুদ,  ন ডরাই চলচ্চিত্রের অভিনেতা শরিফুল রাজ, অভিনেত্রী সুনেরা বিনতে কামাল, ক্যাম্পাস ক্লাইমেক্স চলচ্চিত্রের অভিনেতা খাইরুল বাশার, ডাকসুর এজিএস সাদ্দাম হোসেইন, সাংস্কৃতিক সম্পাদক আসিফ তালুকদার, ছাত্রনেতা হায়দার মোহাম্মদ জিতু, শেখ ইনানসহ দেশের বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয় ও কলেজের পড়ুয়া শিক্ষার্থীরা ইতোমধ্যে এ ক্যাম্পেইনে অংশ নিয়েছেন।

২০১৯ সালের জানুয়ারি মাসে একটি আন্দোলনের প্ল্যাটফর্ম হিসেবে যাত্রা শুরু করে আর্টিস্টস ফর চেইঞ্জ ।

জলবায়ু পরিবর্তন ও পরিবেশ বিপর্যয় থেকে পৃথিবীকে বাঁচাতে বন্ধু ও প্রিয়জনকে জন্মদিনে গাছ উপহার দিতে এবং তরুণদের গাছ লাগানোর চর্চায় অনুপ্রাণিত করতে এই ক্যাম্পেইন চালাচ্ছে তারা। এর আগে একুশে গ্রন্থমেলাসহ বিভিন্ন অনুষ্ঠানকে কেন্দ্র করেও তারা প্রচার চালিয়েছে।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়, জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়, জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়, সলিমুল্লাহ মেডিকেল কলেজ, ইডেন মহিলা কলেজ, হোম ইকোনোমিক্স কলেজ, সেচ্ছাসেবী সংগঠন ইয়ুথ এন্ডিং হাঙ্গার বাংলাদেশসহ বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয় ও কলেজের শিক্ষার্থীরা এই প্লাটফর্মে  ‘অ্যাকটিভ সিটিজেন্স ইয়ুথ লিডার’ ভূমিকায় কাজ করছেন।

সংগঠনের সহ-সমন্বয়কারী মহিউদ্দিন রনি বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে বলেন, “পরিবেশকে রক্ষা করতে আমাদের সকলের দায়বদ্ধতা রয়েছে। আর এই দায়বদ্ধতা থেকেই আর্টিস্টস ফর চেইঞ্জ  প্লাটফর্মের বন্ধুরা লকডাউনে ঘরে বসেই অনলাইন ক্যাম্পেইনের আয়োজন করেছেন।

“যার সার কথা হচ্ছে, বন্ধুদের মনে এই বোধ জাগ্রত করে তোলা যে, তারা পরিবেশকে হুমকির মুখে ফেলবে না এবং তাদের প্রিয়জন ও বন্ধুর জন্মদিনে অন্তত একটি করে গাছ উপহার দেবে বলে কমিটমেন্ট করবে এবং তাদেরকে সচেতন করে তুলবে।”

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের থিয়েটার অ্যান্ড পারফর্ম্যান্স স্টাডিজ বিভাগের এই শিক্ষার্থী বলেন, “আর্টিস্টস ফর চেইঞ্জ  প্লাটফর্মের বন্ধুরা বিশ্বাস করে, একটি হ্যাশট্যাগ, একটি প্রতিজ্ঞা, একটি রীতি বাঁচাতে পারে আমাদের এই পৃথিবী।”

সংগঠনটির ক্যাম্পেইন নিয়ে মহিউদ্দিন রনি বলেন, “ঢাকা  বিশ্ববিদ্যালয়সহ বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ের তরুণদের মধ্যে বন্ধুদের জন্মদিনে গাছ উপহার দেওয়ার সংস্কৃতি জনপ্রিয় হয়ে উঠেছে। এছাড়া সেলিব্রেটি, ইয়ুথ আইকনরাও আমাদের ট্রেন্ডে স্বতস্ফূর্তভাবে অংশগ্রহণ করেছেন।”

৫ জুন বিশ্ব পরিবেশ দিবসকে ঘিরে এই প্লাটফর্মে যোগ দেওয়া তরুণরা অন্যদেরও চ্যালেঞ্জ দিয়ে জলবায়ু পরিবর্তন নিয়ে  ‘ভাবাচ্ছে’ বলে জানান তিনি।

সংগঠন পরিচালনায় অর্থায়ন কীভাবে হচ্ছে জানতে চাইলে রনি বলেন, “এটি একটি স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন। এখন পর্যন্ত অংশগ্রহণকারী তরুণ শিক্ষার্থীরাই ব্যাক্তিগত উদ্যোগে অর্থ যোগাচ্ছেন। ইয়ুথ এন্ডিং হাঙ্গারও অনুদান দিয়েছে।”

হ্যাশট্যাগ ‘গ্রিন হ্যাপি বার্থডে’র পাশাপাশি সংগঠনের নানা শিক্ষামূলক কার্যক্রমেও সবাইকে অংশ নেওয়ার আহ্বান জানান রনি।  

ডাকসুর সাংস্কৃতিক সম্পাদক আসিফ তালুকদার বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে বলেন,‘‘তরুণরা চাইলে হতে পারেন একজন শিল্পী, যিনি পরিবর্তনের স্বপ্ন দেখেন। বিশ্বকে বাঁচানোর স্বপ্ন দেখেন, পরিবেশকে রক্ষার স্বপ্ন দেখেন।

“তাই আমরা অঙ্গীকার করছি, পৃথিবীকে বাঁচাতে বন্ধুর জন্মদিনে গাছ উপহার দেব। সেই অঙ্গীকারনামার ছবি তুলে আমরা ফেইসবুকে পোস্ট করে অন্য বন্ধুদেরকেও ক্যাম্পেইনে অংশগ্রহণ করতে বলছি।”