২৩ মার্চ ২০১৯, ৯ চৈত্র ১৪২৫

‘থ্রু হার আইস’-এ শামীম আখতারের ‘শিলালিপি’

  • গ্লিটজ প্রতিবেদক, বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
    Published: 2019-03-10 18:11:07 BdST

bdnews24

রাজধানীর গ্যোটে ইনস্টিটিউটে প্রদর্শিত হতে যাচ্ছে মুক্তিযুদ্ধ ভিত্তিক চলচ্চিত্র ‘শিলালিপি’।

ইন্টারন্যাশনাল ফিল্ম ইনিশিয়েটিভ বাংলাদেশের (আইএফআইবি) উদ্যোগে ঢাকার ধানমণ্ডিতে গ্যেটে ইনস্টিটিউটে চলছে নারী নির্মাতাদের নির্মিত চলচ্চিত্রগুলো নিয়ে ‘থ্রু হার আইস’ শীর্ষক প্রদর্শনী। প্রতি মাসের রোববার অনুষ্ঠিত এ প্রদর্শনীর তৃতীয় চলচ্চিত্র হিসেবে আগামী ১৭ মার্চ প্রদর্শিত হতে যাচ্ছে শামীম আখতারের শিলালিপি।

প্রদর্শনী শেষে নির্মাতার উপস্থিতিতে দর্শকের প্রশ্নোত্তর পর্বটি এবার পরিচালনা করছেন ড. ফাহমিদা আখতার।

এই প্রদর্শনী নিয়ে আইএফআইবির সভাপতি সামিয়া জামান বলেন, “বিশ্বব্যাপী নারী নির্মাতাদের যে চ্যালেঞ্জের মুখে পড়তে হয় তা স্বীকৃত, তারা সংখ্যায়ও কম। সম্প্রতি বাংলাদেশে দেখা যাচ্ছে নারী নির্মাতাদের নির্মাণে সরব হতে, স্টুডেন্টরাও আসছেন।  আমাদের মনে হয়েছে, তাদের নির্মিত চলচ্চিত্র নিয়ে একটি নিয়মিত প্রদর্শনী আয়োজন করতে পারলে ভালো হয়। ‘থ্রু হার আইস’- এ তাই করা হয়েছে।

“কনসেপ্টের জায়গা থেকে আমরা আইএফআইবির পক্ষ থেকে এটা নিয়ে ভেবেছি, কেননা আমাদের কাজই হচ্ছে তরুণ ফিল্ম মেকারদের নিয়ে। তার মধ্যে যারা মেয়েরা আছেন- ফিকশন কিংবা ডকুমেন্টারি বানাচ্ছেন তাদের উৎসাহ দেয়ার জন্যই এ উদ্যোগ। এতে সহযোগিতা করছে গ্যেটে ইনস্টিটিউট।”

এর আগে এ আয়োজনে প্রদর্শিত হয় রুবাইয়াত হোসেনের ‘আন্ডার কন্সট্রাকশান’ ও শবনম ফেরদৌসীর ‘ভাষাজয়িতা’।

উদ্যোক্তা সামিয়া জামান জানান, প্রতিটি প্রদর্শনীতেই সাড়া মিলছে দর্শক ও গণমাধ্যমের।

তার ভাষ্যে, “সবে তো শুরু, সামনের দিনগুলিতে আমরা আসলে জানতে পারবো যা করতে চেয়েছি তা কতটুকু সফল হলো। তবে, প্রথম দুটি প্রদর্শনীতে দারুণ সাড়া পেয়েছি আমরা। প্রশ্নউত্তর পর্বে নানা ধরণের দৃষ্টিভঙ্গিও উন্মোচিত হচ্ছে। এমন অনেক ছবি আছে যেগুলো বাণিজ্যিকভাবে সেভাবে প্রদর্শিত হয়নি বা আমাদের সামনে আসেনি, সেগুলোও প্রদর্শন করতে চাই আমরা। যারা দেখতে আসছেন তাদের কাছেও জানতে চাইছি তাদের প্রত্যাশা কি?”

মুক্তিযুদ্ধ ভিত্তিক চলচ্চিত্র শিলালিপি মুক্তি পায় ২০০২ সালে। চলচ্চিত্রটির চিত্রনাট্য ও পরিচালনা করেছেন-শামীম আখতার। মৃত্তিকা প্রোডাকশন প্রযোজিত চলচ্চিত্রটির অভিনয় শিল্পীরা হলেন- সারা যাকের, মানস চৌধুরী, নাসরিন সিরাজ, বন্যা লোহানী, ও জয়ন্ত চট্টোপাধ্যায় প্রমুখ। চলচ্চিত্রটির চিত্রগহণে ছিলেন- সৈয়দ আওলাদ। সম্পদনায়-শাহজাদা জাহীর এবং সঙ্গীতপরিচালনা করেছেন-মৌসুমী কাদের।