২০ আগস্ট ২০১৯, ৫ ভাদ্র ১৪২৬

‘মাসুদ রানা’য় লাগছে হলিউডের ছোঁয়া

  • গ্লিটজ প্রতিবেদক, বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
    Published: 2019-07-22 17:47:37 BdST

bdnews24

কাজী আনোয়ার হোসেনের ‘মাসুদ রানা’কে নিয়ে নতুন যে চলচ্চিত্রটি হচ্ছে, তাতে অভিনয় করতে যাচ্ছেন হলিউডের এক ঝাঁক অভিনয় শিল্পীও, তবে মাসুদ রানার ভূমিকায় একজন বাংলাদেশিই থাকবেন।

৮৩ কোটি টাকার এই চলচ্চিত্র পরিচালনার দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত হলিউডি নির্মাতা আসিফ আকবরকে।

চলচ্চিত্রটি বাংলাদেশ থেকে প্রযোজনা করছে জাজ মাল্টিমিডিয়া; তবে হলিউডের সিলভারলাইনসহ আরও তিনটি প্রতিষ্ঠান প্রযোজনায় যুক্ত হচ্ছে।

জাজের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) অলিমুল্লাহ খোকন এই চলচ্চিত্রটি সর্বশেষ খবরাখবর সোমবার বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে জানিয়েছেন।

কাজী আনোয়ার হোসেনের জনপ্রিয় স্পাই থ্রিলার ‘মাসুদ রানা’ অবলম্বনে চার যুগ আগে বাংলাদেশে একটি চলচ্চিত্র নির্মিত হয়েছিল, তাতে মাসুদ রানার ভূমিকায় ছিলেন সোহেল রানা। মাসুদ রানা সিরিজের ‘বিস্মরণ’ অবলম্বনে নির্মিত ওই চলচ্চিত্রটি বেশ ব্যবসা করেছিল।

জাজ মাল্টিমিডিয়া এবার মাসুদ রানা সিরিজের তিনটি উপন্যাসের চলচ্চিত্রায়নের স্বত্ব কিনে প্রথমে ‘ধ্বংস পাহাড়’ অবলম্বনে চলচ্চিত্র নির্মাণে হাত দিয়েছে।

অলিমুল্লাহ খোকন জানান, চলচ্চিত্রের চিত্রনাট্য পরিমার্জন, পরিবর্তন ও পরিবর্ধন করেছেন আবদুল আজিজ, নির্মাতা আসিফ আকবর ও তরুণ থ্রিলার লেখক নাজিম উদ দৌলা।

আসিফ আকবর যুক্তরাষ্ট্রের কলম্বিয়া ইউনিভার্সিটি থেকে ফিল্ম মেকিংয়ের উপর উচ্চতর পড়াশোনা শেষ করে ইতোমধ্যে হলিউডে তিনটি চলচ্চিত্র নির্মাণ করেছেন।

অভিনয়শিল্পীদের বিষয়ে অলিমুল্লাহ জানান, ‘আয়রন ম্যান-২’ চলচ্চিত্রের অভিনেতা মিকি রোর্ক, ‘দ্য ট্রান্সপোর্টার’, ‘এভারলি’সহ আরও বেশ কয়েকটি হলিউডের চলচ্চিত্রের অভিনেত্রী গাব্রিয়েলা রাইট ও ভারতীয় রেসলার দ্য খালি এতে অভিনয় করছেন। আরও থাকছেন হলিউডের ড্যানিয়েল বার্নহাজ ও মাইকেল পেরে।

মাসুদ রানার চরিত্রে একজন বাংলাদেশি অভিনেতাকে দেখা যাবে জানালেও তিনি কে, তা এখনও নিশ্চিত করেননি তিনি।

রূপা, কবীর চৌধুরী ও রাহাত খানের চরিত্রেও তিন বাংলাদেশি অভিনেত্রীকে নেওয়ার পরিকল্পনার কথা জানান অলিমুল্লাহ। তবে সুলতার চরিত্রে দেখা যাবে বলিউডের এক অভিনেত্রীকে।

চলচ্চিত্রের ডিরেক্টর অব ফটোগ্রাফিতে থাকছেন পিটার ফিল্ড; যিনি এ আগে ‘জেমস বন্ড’ সিরিজের বিভিন্ন চলচ্চিত্রে ক্যামেরা চালিয়েছেন। ফাইট ডিরেক্টর হিসেবে থাকছেন ‘ব্যাটম্যান’, ‘ইন্সপেকশন’ চলচ্চিত্রে স্ট্যান্ট কো-অর্ডিনেটর হিসেবে কাজ করা ফিলিপ টান।

অলিমুল্লাহ বলেন, মরিশাস, থাইল্যান্ড ও বাংলাদেশের বিভিন্ন লোকেশনে চলচ্চিত্রটির শুটিং হবে।

বাংলা ও ইংরেজি-দুই ভাষায় হলিউডে নির্মাণ শেষে বিশ্বজুড়ে ছবিটি মুক্তি দেওয়ার পরিকল্পনা আছে প্রযোজনা প্রতিষ্ঠানের।

অলিমুল্লাহ বলেন, বাংলা ভাষায় চলচ্চিত্রটি মুক্তি পাবে বাংলাদেশ ও কলকাতায়। অন্যান্য দেশে মুক্তি পাবে ইংরেজি ভাষায়।