এবার সাত কাহিনীর শাফায়াত

  • গ্লিটজ প্রতিবেদক বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
    Published: 2021-05-13 14:14:42 BdST

bdnews24

শাফায়াত মনসুর রানাকে অনেকেই ‘প্রিমিয়াম’ পরিচালক হিসেবে আখ্যায়িত করেন। খুব বেশি হলে দুটি প্রোডাকশন করতে দেখা যায় বিভিন্ন উৎসবে।

এবার তিনি সেই রেকর্ড ভাঙলেন। ‘ছক্কা নয়’, ‘বোনাস’-সহ একেবারে সাতটি প্রোডাকশন নিয়ে হাজির হচ্ছেন ঈদুল ফিতরের আয়োজনে।

বরাবরের মতো শাফায়াত এই সময়ে ঠিক প্রচারের আগের দিন পর্যন্ত নির্ঘুম রাত কাটান। তবুও এক ফাঁকে গ্লিটজকে জানালেন তার ব্যস্ততার কথা।

প্রথমেই জানালেন এবার আর অভিযোগের অবকাশ নেই। কিন্তু অভিযোগটা কী?

সেটি হলো- শাফায়াত নিজের বন্ধু মহল ছাড়া নাটকে কাউকে নিতে চান-না। এমন গুজব আছে ইন্ডাস্ট্রিতে।

তবে এবার প্রোডাকশন সাতটি।

তাই নিজেই হেসে বললেন, “অনেক শিল্পী অভিনয় করছেন সাতটি প্রোডাকশনে। মাসুম বাশার, নাজিবা বাশার, সাবিলা নূর, ইরফান সাজ্জাদ, মিশু সাব্বির থেকে শুরু করে এত শিল্পী যে গুনতে হবে।”

শিল্পীদের সংখ্যা জানাতে না পারলেও গল্প নিয়ে জানালেন একটু করে।

গেল বছর তথা মহামরীর প্রথম বছরে ‘ঘরবন্দী সময়ের গল্প’ শিরোনামে দুই ঈদের দুই সিরিজে শাফায়াতকে দেখা গেছে ব্যস্ত পরিচালক হিসেবে।

এবারও আলফা আইয়ের প্রযোজনায় সাতটি ‘শর্ট ফিল্ম’ নিয়ে তিনি ফিরেছেন।

গল্পগুলো কেমন সে প্রশ্নে তিনি বলেন, “এবার মনের মতো করে গল্প বলতে পেরেছি। যা চেয়েছি - সেটাই বানাচ্ছি। আশা করি দর্শকের সাড়া পাবো।”

মাত্র বিশ মিনিটের গল্প নিয়ে শাফায়াত বলেন, “গল্প বলার জন্য মাঝে মাঝে পাঁচ মিনিটও বেশি হয়। সেখানে বিশ মিনিটে অনেক কিছু দেখানো সম্ভব।”

দৈর্ঘ্য ছোট বলেই সিরিজের নাম দেওয়া হয়েছে শর্টকাট সিরিজ। দীপ্ত টিভিতে ঈদের রাত থেকে টানা সাত রাত থাকবেন শাফায়াত ১০টা ২০ মিনিট থেকে।

তার ঠিক আগেই দেখা যাবে তানিম রহমান অংশুর অপর সাতটি প্রোডাকশন।

কী দেখা যাবে এই শর্ট ফিল্মগুলোতে এই প্রশ্নের উত্তরে ধোঁয়াশা ছড়ালেন শাফায়াত বরাবরের মতো।

তবে জানান, এবারও সামাজিক বিষয় থাকছে গল্পে, তার প্রোডাকশনে।

‘এমন যদি হতো’, ‘চা খাবেন?’, ‘এক ভাই চম্পা’, ‘শুট আউট’, ‘টিকটক’, ‘মাথা নষ্ট’ ও ‘আকাশভরা তারা’- এই সাত শিরোনামের শর্টফিল্মে এবার তার ঈদ কেমন কাটবে সেই উৎকণ্ঠাতেই আছেন তিনি।

কারণ শাফায়াত মনে করেন, প্রতিটা প্রোডাকশন আসলে জুয়া খেলার মতো। দর্শকের ভালো লাগলে ‘জ্যাকপট’। না ভালো লাগলে, পুরোটাই মাটি।

তবে তিনি এটাও মনে করেন, নিজের গল্পের দর্শক তৈরি করাই তার কাজের প্রধান উদ্দেশ্য!