পছন্দের খবর জেনে নিন সঙ্গে সঙ্গে

এ বছর ডেঙ্গু রোগী ২০ হাজার ছাড়াল, মৃত্যু ৭৬ জনের

  • নিজস্ব প্রতিবেদক, বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
    Published: 2021-10-10 23:01:26 BdST

দেশের বিভিন্ন হাসপাতালে গত ২৪ ঘন্টায় আরও ২১১ জন ডেঙ্গু আক্রান্ত হয়ে ভর্তি হয়েছেন, যা নিয়ে চলতি বছর হাসপাতালে চিকিৎসা নিতে আসা রোগীর সংখ্যা ২০ হাজার ছাড়াল।

সর্বশেষ হিসাবে গত একদিনে তিন জন ডেঙ্গু রোগীর মৃত্যুর খবর দিয়েছে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর।

অধিদপ্তরের তথ্য অনুযায়ী, এ বছর এখন পর্যন্ত মোট ২০ হাজার ১২৯ জন এইডিস মশাবাহিত এ ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন। এদের মধ্যে ১৯ হাজার ৮৬ জন সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন আর প্রাণ হারিয়েছেন ৭৬ জন।

করোনাভাইরাস মহামারীর মধ্যে রাজধানীবাসীকে বেশ ভোগাচ্ছে ডেঙ্গু। মশাবাহিত এ রোগের মৌসুমের শুরু থেকেই আক্রান্তের সংখ্যা বাড়ছে।

এর মধ্যে বিশ্ব ব্যাংকের এক গবেষণা আরও ভয় জাগাচ্ছে। ৭ অক্টোবর প্রকাশিত উন্নয়ন সহযোগী সংস্থাটির গবেষণা বলছে, আর্দ্রতা কমে আসার পাশাপাশি তাপমাত্রা ও বৃষ্টিপাতের মাত্রা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে ভবিষ্যতে রাজধানী ঢাকায় ডেঙ্গুর প্রকোপ আরও বাড়তে পারে।

রাজধানী ঢাকার শিশু হাসপাতালের ডেঙ্গু ওয়ার্ড। বেশিরভাগ শিশুকেই দেওয়া হচ্ছে স্যালাইন। বুধবারের ছবি

জলবায়ু যেভাবে বদলে যাচ্ছে, তাতে জনস্বাস্থ্যের ওপর এরই মধ্যে এর নেতিবাচক প্রভাব পড়তে শুরু করেছে; আগামী দিনগুলোতে তা আরও বাড়তে পারে বলে আভাস দিয়েছে সংস্থাটি।

প্রতিবছর গ্রীষ্মের সময়টা একটু একটু করে বেড়ে যাচ্ছে, সেই সঙ্গে বাড়ছে গরম। ক্যালেন্ডারে যে সময়টায় শীত থাকার কথা, তখনও তাপমাত্রা তুলনামূলকভাবে বেশি থাকছে।

সেপ্টেম্বর ও অক্টোবর মাসে গড় বৃষ্টিপাত বেড়ে যাওয়ায় দীর্ঘায়িত হচ্ছে বর্ষাকাল। এতে এই সময়টায় যেসব রোগের প্রদুর্ভাব দেখা দেয়, তা আরও বেশি সময় ধরে ছড়ানোর মত উপযুক্ত তাপমাত্রা ও বৃষ্টির পরিবেশ পাচ্ছে।

শুধু বাংলাদেশে নয়- দেখা গেছে, ১৯৯০ সালের পর থেকে পুরো বিশ্বেই এইডিস মশাবাহিত রোগ ডেঙ্গুর প্রকোপ প্রতি এক দশকে দ্বিগুণ হচ্ছে বলে বিশ্ব ব্যাংকের প্রতিবেদনে বলা হয়।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের হিসাবে, বর্তমানে দেশের হাসপাতালগুলোতে চিকিৎসা নিচ্ছেন ৯৬৭ জন ডেঙ্গু রোগী, যাদের ৭৯৫ জনই ঢাকা মহানগরীর।

এ বছর মোট ভর্তি রোগীর মধ্যে অগাস্ট ও সেপ্টেম্বর মাসেই ভর্তি হয়েছেন ১৫ হাজার ৫৩৯ জন। এ দুই মাসে মারা গেছেন ৫৭ জন।

জলবায়ু পরিবর্তন বাড়াচ্ছে ডেঙ্গুর বিপদ: গবেষণা  

ডেঙ্গু: অগাস্টের চেয়েও বেশি রোগী সেপ্টেম্বরে

ডেঙ্গুতে শিশুরা বেশি আক্রান্ত হচ্ছে, কারণ কী?

এখন চলছে ডেঙ্গুর ‘ডেনভি-৩’ ধরনের দাপট: বিসিএসআইআর  

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের তথ্য অনুযায়ী, রোববার সকাল ৮টা পর্যন্ত ডেঙ্গুতে নতুন আক্রান্ত হওয়া ২১১ জনের ১৬৪ জনই ঢাকার বাসিন্দা। ঢাকার বাইরের বিভাগগুলোতে ভর্তি হয়েছেন বাকি ৪৭ জন।

মহামারীর মধ্যে এ মৌসুমে জুলাই থেকে উদ্বেগ বাড়াতে থাকে ডেঙ্গু।

গত মাস সেপ্টেম্বরে এ মৌসুমের সর্বোচ্চ ৭ হাজার ৮৪১ জন রোগী ডেঙ্গু নিয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন। ওই মাসে প্রাণ গেছে ২৩ জনের।

এর আগে অগাস্টজুড়ে ৭ হাজার ৬৯৮ জন হাসপাতালে চিকিৎসা নিয়েছিলেন এবং মৃত্যু হয়েছে ৩৪ জনের। 

রাজধানী ঢাকার শিশু হাসপাতালের ডেঙ্গু ওয়ার্ড। বেশিরভাগ শিশুকেই দেওয়া হচ্ছে স্যালাইন।

রাজধানী ঢাকার শিশু হাসপাতালের ডেঙ্গু ওয়ার্ড। বেশিরভাগ শিশুকেই দেওয়া হচ্ছে স্যালাইন।

২০১৯ সালে বাংলাদেশে ডেঙ্গু মারাত্মক আকার ধারণ করায় এক লাখের বেশি মানুষ আক্রান্ত হয়েছিলেন। ওই বছরই সবচেয়ে বেশি মানুষের মৃত্যু হয়েছিল এ ভাইরাস জ্বরে।

সে বছর বিভিন্ন হাসপাতাল থেকে আসা ২৬৬টি মৃত্যু পর্যালোচনা করে ১৪৮ জনের ডেঙ্গুতে মৃত্যুর তথ্য নিশ্চিত করেছিল আইইডিসিআর।

পরের বছর ২০২০ সালে তা অনেকটা কমে আসে; হাসপাতালগুলোতে ভর্তি হয় ১ হাজার ৪০৫ জন ডেঙ্গু রোগী।

তবে এবার মহামারীর মধ্যে জুলাই থেকে ডেঙ্গু রোগীর সংখ্যা বাড়তে থাকায় উদ্বেগে রয়েছেন স্বাস্থ্য সংশ্লিষ্টরা।