২৫ মার্চ ২০১৯, ১১ চৈত্র ১৪২৫

সুমন মাহমুদের পাঁচটি ছড়া

  • সুমন মাহমুদ, বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
    Published: 2018-02-07 14:19:13 BdST

bdnews24
অলঙ্করণ: শিল্পী সমর মজুমদার

রঙধনু

 

রঙধনু সাত রঙ

সাত ভাই তারা

দূরে কেউ থাকে না

অন্যকে ছাড়া।

 

একজন হাসে আর

একজন কাঁদে

একজন পায়ে তার

ঝুমঝুমি বাঁধে।

 

একজন বসে ভাবে

অন্যটা ছুট

একজন লম্বাটে

বাকি লিলিপুট।

 

রঙধনু সাত রঙ

কি দারুণ মিল!

বৃষ্টির পরে এসে

করে ঝিলমিল।

 

 

আড়ি

 

টাট্টুঘোড়া, লাটাই, ঘুড়ি

এবং কাঠের টিয়ে

থাক পড়ে থাক খেলব না আর

পুতুল পুতুল বিয়ে।

 

আর কোনোদিন ধরব নাকো

বায়না মেলায় যাবার

শুনব না তো কোনো কথা

মায়ের এবং বাবার।

 

আড়ি আড়ি ভীষণ আড়ি

আড়ি সবার সাথে,

থাকব একা একা আমি

মাখব না দুধ ভাতে।

 

আকাশ

 

আকাশটা নীলে ভরা

জলে ভরা নদী

সাদা রঙ নীলে আঁকা

যেন সাদা দধি।

 

জোছনা রাতের ফুল

 

রাতের আঁধার ভেদ করে যেই

চাঁদমামাটা আলো জ্বালায়

শেওড়াগাছের ভূতগুলো সব

দূরে বহুদূরে পালায়।

 

জোছনা এসে এই জানালায়

লুকোচুরি খেলায় মাতে

স্নিগ্ধ আলোয় ভালোবাসার

পরশ ছড়ায় নরম হাতে।

 

স্বপ্ন এবং ঘুড়ি

 

কাগজ কেটে বানিয়ে ঘুড়ি

উড়িয়ে দিলে দূরে

একছুটে সে পালিয়ে যাবে

সুদূর আকাশপুরে।

 

আকাশপুরে ঘুড়ির সাথে

রোদের চলে খেলা

রোদ মানে ওই গাঁয়ের মাঠে

খাঁ খাঁ দুপুরবেলা।

 

দুপুর রোদের নূপুর পায়ে

নাচতে থাকে হাওয়া

সুতোর শরীর জুড়ে যেন

হাওয়ারই গান গাওয়া।

 

রোদের সাথে হাওয়ার দারুণ

মানিয়ে গেছে জুড়ি

দুপুর রোদে উড়তে থাকে

স্বপ্ন এবং ঘুড়ি।


ট্যাগ:  ছড়ায় বর্ণমালায়