কড়াই মুরগি

  • লাইফস্টাইল ডেস্ক,, বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
    Published: 2016-03-08 17:13:55 BdST

পরোটা দিয়ে খেতে দারুণ। পোলাও বা ফ্রাইড রাইসের সঙ্গেও পরিবেশন করতে পারেন।

রেসিপি দিয়েছেন মুহসিনা তাবাসসুম।

উপকরণ: মুরগি ১টি। টক দই ২,৩ টেবিল-চামচ। মিষ্টি দই ১ টেবিল-চামচ। লেবুর রস ১ চা-চামচ। পেঁয়াজকুচি, আদা, রসুন, পেঁয়াজবাটা— প্রতিটি ৩ টেবিল-চামচ। জিরা, ধনেবাটা বা গুঁড়া— ১ চা-চামচ করে। গরম মসলা ও এলাচবাটা— আধা চা-চামচ করে। মরিচগুঁড়া পরিমাণ মতো। বাদামবাটা ১ টেবিল-চামচ। টমেটো সস ১/৩ কাপ বা তার কম। লবণ পরিমাণ মতো। হলুদ সামান্য। তেল পরিমাণ মতো। ঘি  ১,২ টেবিল-চামচ।

চাট মসলা: এলাচ, লবঙ্গ, গরম মসলা, তেজপাতা, জিরা, ধনিয়া, শুকনা-মরিচ— সব ভালো করে টেলে শুকনা পাটায় বেটে বা ব্লেন্ডারে করে মিহি গুঁড়া করে নিন। কাচের জারে ভালো করে মুখ বন্ধ করে রেখে দিন।

পদ্ধতি: মুরগির মাংস ছোট ছোট টুকরা করে ভালো করে ধুয়ে পানি ঝরিয়ে নিন। লবণ, হলুদ ও লেবুর রস দিয়ে মেরিনেইট করে রাখুন ৩০ থেকে ৪০ মিনিট।

এবার প্যানে তেল দিয়ে অর্ধেক পেঁয়াজকুচি বেরেস্তা করে রাখুন। বাকি পেঁয়াজ মুরগিতে দিয়ে মাঝারি আঁচে বাদামি রং করে ভাজুন। এমন ভাবে তেল দেবেন যাতে বেশি বা কম না হয়।

তেল কম হলে আবার মাংস দ্রুত কড়াইতে লেগে যাবে।

মাংস বাদামি রং হয়ে আসলে একে একে সব মসলাবাটা দিয়ে দিন। এই কড়াই চিকেন রান্নায় পানি কম লাগে। নাড়াচাড়া করতে করতেই মাংস সিদ্ধ হয়ে যাবে। শেষের দিকে বাদামবাটা, দই ও সামান্য পানি দিয়ে অল্প আঁচে ঢেকে রাখুন।

ভালোভাবে সিদ্ধ হয়ে গেলে ঢাকনা খুলে আগুন মাঝারি আঁচে রেখে গুঁড়া মসলা দিয়ে ভাজতে থাকুন। তারপর অল্প করে চাট মসলা দিয়ে ভাজতে থাকবেন। সঙ্গে টমেটো সস ও ঘি দিন।

এবার শুকনা শুকনা হয়ে আসলে নামিয়ে সার্ভিং ডিশে নিয়ে বেরেস্তা ছিটিয়ে পরিবেশন করুন।