ঘরের আসবাবপত্র

  • মামুনুর রশীদ শিশির, বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
    Published: 2016-04-18 11:34:19 BdST

প্রয়োজনীয় আসবাব কিংবা ঘর সাজাতে খাট, ওয়ারড্রব, আলনা, ড্রেসিং টেবিল, শোকেইস, আলমারি ইত্যাদির খোঁজখবর।

রাজধানীর বিভিন্ন এলাকায় ছড়িয়ে আছে ব্রান্ডের আসবাবপত্রের বিপনন কেন্দ্রগুলো। পাওয়া যাবে কাঠ, স্টিল, অ্যালুমিনিয়াম, পারটেক্স, বেতের তৈরি আসবাব।

তবে মিরপুর, গুলশান, তেজগাঁও এলাকায় একসঙ্গে অনেকগুলো আসবাবপত্রের শোরুম ঘুরে দেখার সুযোগ মিলবে।

হাতিল: রাজধানীর নয়া পল্টন, পান্থপথ, মিরপুর, এলিফ্যান্ট রোড, বাড্ডা, উত্তরা, তেজগাঁও, মোহাম্মদপুর, নারিন্দা, শান্তিনগর, খিলগাঁও, রামপুরা, ধানমন্ডি, বসু্ন্ধরা হাতিলের শোরুম রয়েছে।

ডাবল খাটের দাম পড়বে ৩০ থেকে ৫৬ হাজার টাকা। শোবার ঘরের শোফা কিনতে খরচ হবে ১৫ থেকে ২৫ হাজার টাকা। বেড সাইড টেবিলের দাম পড়বে ৬ থেকে ১৮ হাজার টাকা। ড্রেসিং টেবিল কিনতে গুনতে হবে ১২ থেকে ৪০ হাজার টাকা। আর ড্রেসিং টেবিল টুলের দাম ৩ থেকে ৫ হাজার টাকা। ওয়ারড্রব পাবেন সাড়ে ৩৪ হাজার থেকে ৭১ হাজার টাকায়।

এছাড়াও পছন্দসই ডিজাইনের আসবাবপত্র দিয়ে ঘর সাজানোর সুযোগও দিচ্ছে প্রতিষ্ঠানটি। ‘বেডরুম সেট’য়ে পাবেন একই নকশায় শোবার ঘরের সকল আসবাব। দাম নির্ভর করবে পণ্যের উপর।

অটবি: ডাবল খাট ১৩ হাজার থেকে ১ লাখ ৪০ হাজার টাকা। ৮ হাজার থেকে ১ লাখ ৭০ হাজার টাকায় পাওয়া যাবে আলমারি। ড্রেসিং টেবিলের দাম পড়বে সাড়ে ৭ হাজার থেকে ৮০ হাজার টাকা। ৩০ হাজার বাজেটে মিলবে ওয়ারড্রব।

শোরুম আছে রাজধানীর ওয়ারি, উত্তরা, ধানমণ্ডি, সাভার, এলিফ্যান্ট রোড, গুলশান ১, মালিবাগ, মিরপুর, মোহাম্মদপুর ও পান্থপথে। ঢাকার বাইরে চট্টগ্রাম, খুলনা, রাজশাহী, বরিশাল ও রংপুরে শোরুম আছে প্রতিষ্ঠানটির।

এছাড়া হাই ফ্যাশন গ্যালারি, পারটেক্স, নাভানা, আখতার, জারা, উড মার্ক ইত্যাদি ব্রান্ডের শোরুম ঘুরে কিনে নিতে পারেন প্রয়োজনীয় আসবাবপত্র।

নন ব্রান্ড: সাশ্রয়ী মূল্যে আসবাবপত্র কিনতে ঘুরে আসতে পারেন রাজধানীর পান্থপথে। বসুন্ধরা শপিং মলের উল্টা দিক থেকে শূরু করে কারওয়ান বাজার মোড় পর্যন্ত সারিবদ্ধভাবে রয়েছে প্রায় শতাধিক আসবাবপত্রের দোকান।

এছাড়াও সেগুনবাগিচা, শিল্পকলা একাডেমির পাশে, মিরপুর স্টেডিয়াম, মিরপুর-২, প্রগতি সরণি, বারিধারা জে-ব্লক, বাড্ডা, যাত্রাবাড়ি এলাকাতেও পাওয়া যাবে আসবাবপত্রের দোকান।

খাটের দাম পড়বে ২৮ হাজার থেকে ১ লাখ টাকা। ওয়ারড্রব ১৩ থেকে ২৮ হাজার টাকা। ড্রেসিং টেবিল মিলবে ৫ থেকে ৩০ হাজার টাকায়।

শোকেইস পাওয়া যাবে ১৫ থেকে ৬০ হাজার টাকায়। আলমারি আছে, ৯ থেকে ৬০ হাজার টাকার মধ্যে। বেড সাইড টেবিল কিনতে খরচ হবে সাড়ে ৩ থেকে ৫ হাজার টাকা।

সোফা কিনতে গুনতে হবে ১০ থেকে ৫০ হাজার টাকা। টি টেবিল পাবেন ৪ থেকে ১৫ হাজার টাকায়। ডাইনিং টেবিলের দাম ৫ থেকে ৩০ হাজার টাকা।

জাহাজের আসবাবপত্র: পুরানো তবে একটু ভালো মানের ও দীর্ঘস্থায়ী আসবাব কিনতে চাইলে ঢুকে পড়তে পারেন জাহাজের আসবাবপত্রের দোকানে।

পান্থপথে বসুন্ধরা সিটি পার হয়ে কারওয়ান বাজারের দিকে কয়েক পা এগোলেই পেয়ে যাবেন এরকমই একটি দোকান, ডিসি ফরেন ফার্নিচার।

দোকানের অডিটর হুমায়ন কবির জানালেন, ২০ বছর ধরে জাহাজের আসবাব বিক্রি করছেন তারা।

দেশি-বিদেশি অকেজো জাহাজগুলো থেকে নিলামে ফার্নিচার কিনে আনেন দোকানের মালিক মূলতান আলী।

দোকানের ম্যানেজার আবু তালেব জানালেন, জাহাজের ফার্নিচারগুলো মূলত হয় ওক কাঠের। জাহাজের আসবাব ছাড়াও বিভিন্ন দেশ থেকে আসবাব আমদানি করেন তারা, ক্রেতাদের অর্ডার অনুযায়ি বানিয়েও দেন।

শখের হোক আর প্রয়োজনীয়, সবরকম আসবাব আছে বিশাল এই দোকানে। ড্রয়িং রুমের টেবিল, ডাইনিং টেবিল-চেয়ার সেট, টি টেবিল, কম্পিউটার টেবিল, রকিং চেয়ার, অফিসিয়াল চেয়ার, ‌বাচ্চাদের দোলনা, দেয়ালের তাক, ছোট-বড় আলমারি, ওয়ারড্রব, খাট আরও কত কি!

দামও ক্রয়সীমার মধ্যেই। চেয়ার পাবেন ৩শ’ থেকে শুরু করে ১৫ হাজার টাকায়। খাট কিনতে পড়বে ৪ থেকে ৬০ হাজার টাকা। ওয়ারড্রব আড়াই হাজার থেকে ৭ হাজার টাকা, আলমারি পাবেন ৮ হাজার থেকে ১৫ হাজার টাকায়।

এছাড়াও আছে আসবাবের প্যাকেজ, যাতে থাকবে একই ডিজাইনের খাট, ড্রেসিং টেবিল, শোকেইস, আলমারি ইত্যাদি। দাম পড়বে ২ থেকে ৩ লাখ টাকা।