ত্বকের যত্নে ভিটামিন ই

  • লাইফস্টাইল ডেস্ক, বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
    Published: 2019-09-04 15:29:04 BdST

bdnews24

ত্বক ও চুল ভালো রাখতে ভিটামিন ই কার্যকর।

এছাড়াও রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায় এবং সুস্থ থাকতে সাহায্য করে।

স্বাস্থ্যবিষয়ক একটি ওয়েবসাইটে প্রকাশিত প্রতিবেদন অবলম্বনে ত্বকের যত্নে ভিটামিন ই'র নানান ব্যবহার সম্পর্কে জানানো হল।

বলিরেখা দূর করতে: বয়স বাড়ার সঙ্গে চেহারায় বলিরেখা দেয়। বয়সের ছাপ ধীর করতে সাহায্য করে ভিটামিন ই। কোষের ক্ষয় পূরণ করে এবং ত্বক আর্দ্র রাখতে সাহায্য করে।

দাগ দূর করে: ভিটামিন ই খুব ভালো অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট যা ত্বককে প্রাকৃতিকভাবে সারিয়ে তোলে। দাগের ওপরে সরাসরি ভিটামিন ই ব্যবহার করেও সুফল পাওয়া যায়। ভিটামিন ই কোষকলার উৎপাদন বাড়িয়ে দাগ দ্রুত হালকা করতে সাহায্য করে। 

হাতের শুষ্কতা দূর করতে: শুষ্ক হাতের সমস্যা সাধারণত দেখা দেয় ভিটামিন ই’র অভাবে। একটা ভিটামিন ই ক্যাপসুল কেটে তা তেলের সঙ্গে মিশিয়ে হাতে লাগান। ত্বক মসৃণ ও তারুণ্যময় হবে। 

ফাঁটা ঠোঁট: এই বিরক্তিকর সমস্যা এড়াতে ঠোঁটে ভিটামিন ই সমৃদ্ধ লিপ বাম ব্যবহার করা যেতে পারে। এটা ঠোঁটের ত্বক আর্দ্র রাখতে সাহায্য করে এবং সারাদিন ঠোঁটে স্থায়ী হয়। নিয়মিত ব্যবহারে ঠোঁটের কালচেভাবও দূর করে ভিটামিন ই।

‘হাইপার পিগমেন্টেইশন কমায়: শরীরের কোনো অংশে মেলানিনের পরিমাণ বেড়ে গেলে তা কালচে দেখায় ফলে ত্বকে ভারসাম্যহীনতা দেখা দেয়। একেই বলা হয় ‘হাইপার পিগমেন্টেইশন’। ভিটামিন ই মুখে খাওয়া হলে বা ত্বকের আক্রান্ত স্থানে ব্যবহার করা হলে তা এই সমস্যা দূর করতে সাহায্য করে। 

রোদপোড়া ক্ষয় দূর করতে: সূর্যরশ্মি ত্বকের ক্ষতি করে। এই ক্ষয় থেকে ত্বককে বাঁচাতে ভিটামিন ই তেল ব্যবহার করুন। সানস্ক্রিন ব্যবহারের আগে ত্বকে ভিটামিন ই তেল মেখে নিন। অথবা সবচেয়ে ভালো ফলাফলের জন্য ভিটামিন ই সমৃদ্ধ জেল ব্যবহার করুন।

মনে রাখবেন, পুষ্টিবিজ্ঞানের তথ্যানুসারে উন্নত রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা এবং সুস্থ ত্বক ও চোখের মূল চাবি-কাঠি হল ভিটামিন ই।  

ছবির প্রতীকী মডেল: জেসমিন জুঁই। ছবি সৌজন্যে: ত্রয়ী ফটোগ্রাফি স্টুডিও।

আরও পড়ুন

ত্বক উজ্জ্বল করতে ভিটামিন ই  

পুরুষের জন্য আবশ্যক সম্পূরক ভিটামিন  

ভিটামিনের অভাব বোঝার উপায়  

অতিরিক্ত ভিটামিনের কুফল  


ট্যাগ:  সাজসজ্জা