পছন্দের খবর জেনে নিন সঙ্গে সঙ্গে

বিছানার চাদরের যত্ন

  • তৃপ্তি গমেজ, বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
    Published: 2015-04-22 15:55:53 BdST

ঘরে পাখা চলে, তারপরও ঘাম হয়। আর ঘুমের মধ্যে ঘেমে চাদর হয় নষ্ট। এর থেকে পরিত্রাণের উপায় জেনে নিন।

ঘুমালে বা শুয়ে থাকার সময় ঘাম থেকে বিছানার চাদর ভেজা ভেজা হয়ে যেতেই পারে। ফলে অনেক সময় চাদরে তিলা পড়ে। তাছাড়া ঘামে ভেজা চাদর নিয়মিত ব্যবহার করলে তা থেকে ব্যক্টেরিয়া সৃষ্টি হয় এবং দুর্গন্ধ ছড়ায়।

এ সমস্যার সমাধানে বিছানার চাদরের সঠিক যত্ন প্রসঙ্গে বাংলাদেশ গার্হস্থ্য অর্থনীতি কলেজের ‘বস্ত্র পরিচ্ছদ ও বয়নশিল্প’ বিভাগের সহকারী অধ্যাপক শাহ্‌মিনা রহমান বলেন, “গরমে বিছানার চাদর ঘামে ভিজে থাকে তাই দুই দিন পরপর চাদর ধোয়া উচিত। এতে চাদরে তিলা পড়ে না ও দুর্গন্ধ হয় না।”

তিনি আরও জানান, ঘামের মাধ্যমে শরীর থেকে লবণ বের হয় যা খুব সহজেই কাপড়ের রং নষ্ট করে। তাই নিয়মিত বিছানার চাদর ধুয়ে কম রোদে শুকালে চাদরে তিলা দাগ পড়ে না এবং রং নষ্ট হয় না।

চাদর যদি হালকা ঘামে ভিজে তবে তা ছায়ার নিচে বাতাসে শুকাতে দিতে হবে। আর যদি খুব বেশি ঘামে ভিজে যায় তবে অবশ্যই তা ডিটারজেন্ট দিয়ে ধুতে হবে ও রোদে শুকাতে হবে।

রোদে শুকানোর সময় অবশ্যই চাদর উল্টা করে শুকাতে দিতে হবে, তা না হলে কড়া রোদে চাদরের রং নষ্ট হয়ে যেতে পারে বলে জানান শাহমিনা রহমান।

গরমকালে হালকা রংয়ের চাদর ব্যবহার করা ভালো তবে যাদের ঘরে ছোট শিশু আছে, তাদের একটু গাঢ় রংয়ের চাদর ব্যবহার করার পরামর্শ দেন তিনি।

কারণ, শিশুরা সারাদিন ছোটাছুটি করে ও চাদর ময়লা করে। অনেক শিশু বিছানায় বসে খাবার খেয়ে থাকে, এতেও চাদর ময়লা হয়। রঙিন চাদর ব্যবহার করলে বিছানার ময়লাভাব সহজে বোঝা যায় না। তবে অবশ্যই ঘুমানোর আগে বিছানার চাদর পরিবর্তন করার পরামর্শ দেন শাহ্‌মিনা রহমান।

এই অধ্যাপক সাদা রংয়ের চাদর ধোয়ার পর ব্লুইং এজেন্ট বা ব্রাইটিনিং এজেন্ট ব্যবহার করতে পরামর্শ দেন। এতে সাদা বা হালকা রংয়ের চাদরে হলদেটে ভাব হয় না।

ঘামের মাধ্যমে শরীর থেকে নানারকম রোগজীবাণু বেরিয়ে আসে। তাই সপ্তাহে অন্তত একবার জীবাণুনাশক তরল দিয়ে কিছুক্ষণ ভিজিয়ে তারপর চাদর ধুয়ে ফেলার পরামর্শ দেন শাহমিনা।

ছবি: রয়টার্স।

রঙিন ঘরে হৃদয় দোলে

শীতকাপড়ের সঠিক সংরক্ষণ

গরমের সাজপোশাক

ঘরের সাজে বাঙালিয়ানা

বাহারি চুড়ি

গহনার সেকাল একাল