পাপিয়ার মতো অপরাধী তাদের মধ্যেও ছিল হাজার হাজার: কাদের

  • নিজস্ব প্রতিবেদক, বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
    Published: 2020-02-26 18:05:58 BdST

bdnews24

আওয়ামী লীগ সরকারই প্রথম দলীয় লোকদের অপকর্মের বিচার করছে দাবি করে ওবায়দুল কাদের বলেছেন, এর আগে অন্য যারা ক্ষমতায় ছিলেন তাদের মধ্যে পাপিয়ার মতো হাজার হাজার অপরাধী থাকলেও কারও বিচার হয়নি।

মাদক-অস্ত্র চোরাচালান, জমি দখল ও হোটেলে নারীদের দিয়ে যৌন বাণিজ্যসহ বিভিন্ন অপকর্মের অভিযোগে যুব মহিলা লীগ নেত্রী শামীমা নূর পাপিয়ার গ্রেপ্তার নিয়ে বিএনপি নেতা খন্দকার মোশাররফ হোসেনের এক বক্তব্যের জবাবে একথা বলেছেন তিনি।

মঙ্গলবার এক অনুষ্ঠানে বিএনপির স্থায়ী কমিটির ওই সদস্য বলেন, আওয়ামী লীগ সরকার গভীর সংকটে পড়লে জনগণের দৃষ্টি অন্য দিকে সরাতে দলীয় লোকদের ‘মুখরোচক অপকর্ম’ প্রকাশ করে।

গ্রেপ্তারের পর র‌্যাব হেফাজতে শামীমা নূর পাপিয়া

বুধবার জাতীয় জাদুঘরে এক অনুষ্ঠানে তার ওই বক্তব্যের জবাবে আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক কাদের বলেন, “এই দেশে অনেক সরকার ক্ষমতায় এসেছে। বঙ্গবন্ধু হত্যার পর আমরা একুশ বছর ক্ষমতায় ছিলাম না। এই দেশে ক্ষমতার রাজনীতিতে অনেক অপকর্ম, অনেক অপরাধ, অনেক দুর্নীতি, অনেক সন্ত্রাস, অনেক খুন হয়েছে। কিন্তু এই পর্যন্ত শেখ হাসিনা ছাড়া আর কোনো প্রধানমন্ত্রী, কোনো রাষ্ট্রপতি নিজ দলের লোকদের অপকর্মের বিচার করেননি।

“একটা উদাহরণও দেখাতে পারবেন না। শেখ হাসিনা ছাড়া, আওয়ামী লীগ ছাড়া অন্য কোনো আমলে নিজেদের দুর্নীতিবাজ, নিজেদের সন্ত্রাসী, নিজেদের খুনি, নিজেদের চাঁদাবাজ, চিহ্নিত ভূমি দখল- এই সব অপরাধের জন্য কারও বিচার হয়নি। পাপিয়ার মতো অপরাধীদের বিচার হয়নি। এই সব অপরাধী তাদের মধ্যেও ছিল হাজার হাজার।”

সড়ক পরিবহনমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেন, “শেখ হাসিনাই এই দেশে প্রথম সৎ সাহস দেখিয়েছেন যে, অপকর্ম-অপরাধের বিচার আমি আমার ঘর থেকেই শুরু করলাম। এবং সেই ধারায় পাপিয়ারা গ্রেপ্তার হয়েছে। এখানে মুখরোচক কিছু নেই।

“মোশাররফ সাহেব, মুখরোচক খবর নয়, পাপের বিচার হবে, অপরাধের বিচার হবে। শেখ হাসিনা কোনো সন্ত্রাসী চাঁদাবাজ কোনো প্রকার অপরাধী- অপকর্মকারী তার দলে প্রশ্রয় দেয় না। এটাই প্রমাণ। এই পাপিয়াও বঙ্গবন্ধুকন্যার নির্দেশেই গ্রেপ্তার হয়েছে। আমাদের এখানে অপরাধ করে কেউ পার পাবে না।”

বিএনপি নেতাদের উদ্দেশে আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক বলেন, “ফখরুল সাহেব মোশাররফ সাহেব আপনাদের দলে হাজার হাজার খুনি অস্ত্রবাজ দখলদার আড়ালে ছিল। তাদর কোনো দিন অপরাধী হিসেবে চিহ্নিত করা হয়নি। তাদের বিচার করা হয়নি। ক্ষমতাসীন দল করে তাদের এমন ভাব ছিল যে, আমাদের গায়ে কেউ আঁচড় দিতে পারবে না।

“এবং পার পেয়ে গেছে তারা। আমরা আজ সৎ সাহস দেখাচ্ছি, নিজের ঘরের অপরাধীদেরও ক্ষমা আমরা করছি না। কোনো অপরাধী অপরাধ করে ক্ষমা পাবে না।”