পছন্দের খবর জেনে নিন সঙ্গে সঙ্গে

জয় বাংলা ইয়ুথ অ্যাওয়ার্ড: নিবন্ধনের সময় বাড়ল ৭ দিন

  • জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক, বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
    Published: 2021-10-25 13:34:21 BdST

bdnews24

চলতি বছরের ‘জয় বাংলা ইয়ুথ অ্যাওয়ার্ড’ এর জন্য অনলাইনে নিবন্ধনের সময়সীমা সাত দিন বাড়িয়ে ৩১ অক্টোবর করা হয়েছে।

সোমবার আওয়ামী লীগের গবেষণা উইং সেন্টার ফর রিসার্চ অ্যান্ড ইনফরমেশন (সিআরআই) এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ ঘোষণা দেয়। এবার পঞ্চমবারের মত এ পুরস্কার দিতে যাচ্ছে সিআরআইয়ের অঙ্গ প্রতিষ্ঠান ইয়াং বাংলা।

ধর্মীয় ও জাতিগত সংখ্যালঘু, তৃতীয় লিঙ্গ, দলিত ও অনগ্রসর সমাজকে নিয়ে কাজ করে এমন সংগঠনসহ ৩০টি সংগঠন এবং প্রতিষ্ঠানকে পুরস্কার দিতে এক মাস ধরে অনলাইন নিবন্ধন চলছে। নিবন্ধনের সুযোগ শেষ হওয়ার কখা ছিল রোববার।

সেই সময় সাত দিন বাড়িয়ে সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, “তরুণদের আগ্রহের কারণে এবং সার্বিক অবস্থা বিবেচনায় চলতি মাসের শেষ দিন অর্থাৎ ৩১ অক্টোবর পর্যন্ত আবেদন করা যাবে।”

স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী উপলক্ষে স্বাধীনতাত্তোর বাংলাদেশ গঠনে বিভিন্ন ক্ষেত্রে অবদানের জন্য ‘জয় বাংলা ইয়ুথ অ্যাওয়ার্ডে’ এবারই প্রথম দেওয়া হবে আজীবন সম্মাননা পুরস্কার।

সম্প্রতি ধর্মীয় সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের ওপর সাম্প্রদায়িক হামলার পর সোশাল মিডিয়ায় প্রতিবাদ ছাড়াও মাঠপর্যায়ে রাস্তায় নেমে প্রতিবাদ করছে বহু যুবক ও যুব সংগঠন।

এছাড়া ক্ষতিগ্রস্তরা যাতে ঘুরে দাঁড়াতে পারে, সেজন্য তারা সহযোগী হিসেবে পাশে দাঁড়িয়েছে। জয় বাংলা ইয়ুথ অ্যাওয়ার্ডের পঞ্চম বছরের আয়োজনে এসব ক্ষেত্রে ভূমিকা রাখা সংগঠনকেও পুরস্কৃত করা হবে।

আ্যাওয়ার্ডে অংশ নিতে আগামী রোববারের মধ্যে যুব সংগঠনগুলোকে আবেদন করার আহ্বান জানিয়েছে ইয়াং বাংলা। ইয়াং বাংলার ওয়েবসাইটে (jbya.youngbangla.org)  এ আবেদনের করা যাবে। সেখানেই মিলবে বিস্তারিত তথ্য।

জমা পড়া আবেদনগুলো বাছাই করার পর তাদের কাজ এবং সমাজে এর প্রভাব দেখার জন্য মাঠ পর্যায়ে পর্যবেক্ষণে যাবে ইয়াং বাংলা টিম। সেখান থেকে শীর্ষ ৩০ সংগঠনকে বেছে নেওয়া হবে।

সামাজিক অন্তর্ভুক্তি ও সম্প্রদায়ভিত্তিক উন্নয়নে দুটি বৃহৎ ক্যাটগরিতে ১০টি পুরস্কার দেওয়া হবে।

সাংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, ১৮ থেকে ৩৫ বছর বয়সীদের সংগঠন, যে সংগঠন নারীর ক্ষমতায়ন, শিশু অধিকার, প্রতিবন্ধী ব্যক্তিদের ক্ষমতায়ন, পিছিয়ে পড়া মানুষের ক্ষমতায়ন, যুব উন্নয়ন, অতি দরিদ্র মানুষের ক্ষমতায়নে ভূমিকা রেখেছে তারা ‘জয় বাংলা ইয়ুথ অ্যাওয়ার্ডের’ জন্য আবেদন করতে পারবেন।

এছাড়া যেসব যুব সংগঠন তাদের কার্যক্রমের মধ্যে দিয়ে কোনো সম্প্রদায়ের উন্নতির জন্য কাজ করছে। ইন্টিগ্রেটেড কমিউনিটি ডেভেলপমেন্টের’ অধীনে তারাও আবেদন করতে পারে।

ছয়টি বিষয়ে আবেদনের সুযোগ রাখা হয়েছে, মাদকবিরোধী সচেতনতা অভিযান, পরিবেশ রক্ষা এবং জলবায়ু পরিবর্তন রোধে কার্যক্রম, দুর্যোগ ঝুঁকি হ্রাস এবং জরুরি প্রতিক্রিয়া, স্বাস্থ্যসেবা ও সচেতনতা, শিক্ষা, সামাজিক- সাংস্কৃতিক উদ্যোগ।

উন্নয়ন কর্মসূচি ও প্রকল্প, জননীতিতে গবেষণা ও উদ্ভাবন, উদ্যোক্তা ও সৃজনশীলতা এই চার ক্যাটাগরিতে আজীবন সম্মাননা দেওয়া হবে। এছাড়া নেতৃত্বগুণ, সেবার মানসিকতা ও উদ্যোগ এবং গবেষণার মধ্য দিয়ে স্বাধীনতাত্তোর দেশ গঠনে ভূমিকা রাখা ব্যক্তিদেরও আজীবন সম্মাননা দেওয়া হবে।

দেশের উন্নয়নমূলক কর্মকাণ্ডে তরুণ প্রজন্মকে সরাসরি অন্তর্ভুক্ত করার উদ্দেশ্যে তাদের নতুন ধারণা ও উদ্ভাবনগুলোকে তুলে আনার জন্যই ২০১৪ সালের ১৫ নভেম্বর আত্মপ্রকাশ করে ইয়াং বাংলা। প্রায় ৫০ হাজারের বেশি সেচ্ছাসেবী এবং ৩১৫টির বেশি সংগঠনকে সাথে নিয়ে চলা এ সংগঠনটির সদস্য সংখ্যা বর্তমানে প্রায় ৩ লাখ।

২০১৪ সালে প্রতিষ্ঠার পর থেকেই নিজ নিজ এলাকায় সফল হওয়া যুবক ও যুব সংগঠনগুলোকে পুরস্কৃত করে আসছে ইয়াং বাংলা।

২০১৮ সালের জয় বাংলা ইয়ুথ অ্যাওয়ার্ড বিজয়ী সাদাত রহমান গত বছর পেয়েছিলেন ‘আন্তর্জাতিক শিশু শান্তি পুরস্কার’। ‘সাইবার বুলিং’ থেকে শিশুদের রক্ষায় কাজ করে তিনি এ পুরস্কার পান।

বিশ্ববিদ্যালয় ভিত্তিক যেসব ক্লাব কমিউনিটি সার্ভিস, ক্যাম্পেইন এবং কার্যক্রমের মাধ্যমে বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিতরে তরুণ সমাজের জন্য কাজ করছে, তাদেরও জয় বাংলা ইয়ুথ অ্যাওয়ার্ডের জন্য আবেদনের আহ্বান জানিয়েছে ইয়াং বাংলা।