১৮ জুন ২০১৯, ৪ আষাঢ় ১৪২৬

বার্সাকে হারিয়ে কোপা দেল রে চ্যাম্পিয়ন ভালেন্সিয়া

  • স্পোর্টস ডেস্ক বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
    Published: 2019-05-26 02:57:58 BdST

bdnews24

‘ট্রেবল’ জয়ের স্বপ্ন ভাঙার পর ঘরোয়া ‘ডাবল’ এ লক্ষ্যস্থির করেছিল বার্সেলোনা। শেষ পর্যন্ত সেটাও হলো না। কাতালান ক্লাবটিকে হারিয়ে কোপা দেল রে চ্যাম্পিয়ন হয়েছে ভালেন্সিয়া।

স্পেনের সেভিয়ায় শনিবার রাতে প্রথমার্ধে দুই গোলে এগিয়ে যাওয়া ভালেন্সিয়া ফাইনাল জিতেছে ২-১ ব্যবধানে। শেষ দিকে লিওনেল মেসি ব্যবধান কমালেও হার এড়াতে পারেননি।

স্পেনের দ্বিতীয় সেরা প্রতিযোগিতায় এই নিয়ে অষ্টমবার চ্যাম্পিয়ন হলো ভালেন্সিয়া। আগের সাত শিরোপার সবশেষটি তারা জিতেছিল ২০০৭-০৮ মৌসুমে।

চলতি মৌসুমে ভালেন্সিয়ার সঙ্গে এই নিয়ে তিনবারের দেখায় জয়শূন্যই রইলো বার্সেলোনা। লা লিগায় দলটির সঙ্গে প্রথম পর্বে ১-১ ড্রয়ের পর ফিরতি দেখায় ঘরের মাঠে ২-২ ড্র করেছিল এরনেস্তো ভালভেরদের দল।

লা লিগায় চতুর্থ হওয়া দলটির বিপক্ষে শিরোপা লড়াইয়ে পঞ্চম মিনিটেই গোল খেতে বসেছিল বার্সেলোনা। ফরাসি ডিফেন্ডার ক্লেমোঁ লংলের ভুল পাস পেয়ে গোলরক্ষককে ফাঁকি দিয়ে শট নেন রদ্রিগো। শেষ মুহূর্তে বল গোললাইন থেকে ফেরান আরেক ডিফেন্ডার জেরার্দ পিকে।

২৮তম মিনিটে আর গোল খাওয়া এড়াতে পারেনি শিরোপাধারীরা। বাঁ দিক থেকে স্প্যানিশ ডিফেন্ডার হোসে গায়ার ডি-বক্সে বাড়ানো বল ধরে জোরালো শটে ভালেন্সিয়াকে এগিয়ে দেন ফরাসি ফরোয়ার্ড কেভিন গামেইরো।

পাঁচ মিনিট পরেই দ্বিতীয় গোল খেয়ে বসে বার্সেলোনা। ডান দিক দিয়ে ওঠা আক্রমণে গতিতে জর্দি আলবাকে পেছনে ফেলে ছোট ডি-বক্সে দারুণ এক ক্রস বাড়ান স্প্যানিশ মিডফিল্ডার কার্লোস সোলের। আর লাফিয়ে নেওয়া হেডে বল ঠিকানায় পাঠান স্প্যানিশ ফরোয়ার্ড রদ্রিগো।

মাঝমাঠের দখল নিয়ে আক্রমণের ধার বাড়াতে দ্বিতীয়ার্ধের শুরুতে ডিফেন্ডার নেলসন সেমেদোকে বসিয়ে মিডফিল্ডার মালকম ও আর্থারের জায়গায় আরেক মিডফিল্ডার আর্তুরো ভিদালকে নামান কোচ। তারপরও কাজের কাজ হচ্ছিল না কিছুই। ৫৭তম মিনিটে মেসির শট পোস্টে বাধা পেলে দলটির হতাশা বাড়ে।

অবশেষে ৭৩তম মিনিটে ব্যবধান কমিয়ে দলের ফিকে হয়ে যাওয়া আশা নতুন করে জাগান মেসি। কর্নার থেকে উড়ে আসা বলে লংলের হেড ঝাঁপিয়ে ঠেকান গোলরক্ষক; কিন্তু বিপদমুক্ত করতে পারেননি। গোলমুখে আলগা বল পেয়ে ফাঁকা জালে পাঠান আর্জেন্টাইন তারকা। সব প্রতিযোগিতা মিলে মৌসুমে এটা তার ৫১তম গোল।

কিন্তু বাকি সময়ে আর গোলের দেখা পায়নি গত চারবারের চ্যাম্পিয়নরা। এক দশকেরও বেশি সময় পর শিরোপা জয়ের উল্লাসে মেতে ওঠে ভালেন্সিয়া।

তিন ম্যাচ হাতে রেখে লা লিগার শিরোপা ধরে রাখা নিশ্চিত করা বার্সেলোনা ঘরের মাঠে ৩-০ গোলে লিভারপুলকে হারিয়ে চ্যাম্পিয়ন্স লিগের ফাইনালের পথে ছিল। কিন্তু অ্যানফিল্ডে ৪-০ ব্যবধানে হেরে বিদায় নেয় তারা।

কোপা দেল রে ফাইনালের আগের দিন সংবাদ সম্মেলনে এসে চ্যাম্পিয়ন্স লিগের হতাশা ভুলতে এই শিরোপা জয়ে লক্ষ্যস্থির করার কথা জানিয়েছিলেন অধিনায়ক মেসি। তা আর হলো না। মৌসুমের অধিকাংশ সময় দারুণ ছন্দে এগিয়ে চললেও শেষ দিকের দুটি হারে বার্সেলোনার শেষটা হলো হতাশায়।


ট্যাগ:  স্প্যানিশ ফুটবল  বার্সেলোনা  মেসি  কোপা দেল রে  ভালেন্সিয়া