পছন্দের খবর জেনে নিন সঙ্গে সঙ্গে

এমবাপে আমাকে ‘ফরাসি হতে’ শিখিয়েছে: নেইমার

  • স্পোর্টস ডেস্ক, বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
    Published: 2021-04-13 21:22:57 BdST

bdnews24
পিএসজির আক্রমণভাগের দুই তারকা নেইমার ও কিলিয়ান এমবাপে

প্যারিসে ফরাসি জীবনযাত্রার সঙ্গে মানিয়ে নিতে সতীর্থ কিলিয়ান এমবাপে যে সাহায্য করেছেন, তার জন্য ধন্যবাদ জানালেন নেইমার। ফরাসি তরুণ ফরোয়ার্ডকে পিএসজির ‘গোল্ডেন বয়’ হিসেবে দেখেন ব্রাজিলিয়ান তারকা।

২০১৭ সালের অগাস্টে রেকর্ড ২২ কোটি ২০ লাখ ইউরো ট্রান্সফার ফিতে বার্সেলোনা ছেড়ে পিএসজিতে যোগ দেন নেইমার। এরপর থেকে প্যারিসের ক্লাবটির হয়ে তিনটি লিগ ওয়ানসহ বেশ কিছু শিরোপা জিতেছেন তিনি। গত মৌসুমে খেলেছিলেন চ্যাম্পিয়ন্স লিগের ফাইনালে।

পিএসজিতে শুরু থেকেই এমবাপেকে সতীর্থ হিসেবে পেয়েছেন নেইমার। ২০১৭ সালে প্রায় একই সময়ে মোনাকো থেকে প্যারিসে পড়ি জমান এমবাপেও। সম্প্রতি ফরাসি ফুটবল সাময়িকীকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে নেইমার তুলে ধরলেন তার জীবনে এমবাপের প্রভাব। 

“সে (এমবাপে) আমাকে ‘ফরাসি হতে’ অনেক কিছু শিখিয়েছে...আমাকে একজন ফরাসির চিন্তাভাবনা বুঝিয়েছে। এখানে আমার মানিয়ে নেওয়ার জন্য তার কাছে আমি ঋণী। এখানে থাকতে পেরে আমি খুশি।”

শুধু মানুষ হিসেবে নয়, এমবাপের ফুটবল স্কিলেরও উচ্ছ্বসিত প্রসংসা করেন নেইমার।

“প্রথমত, তার ব্যক্তিত্ব আমার হৃদয় ছুঁয়ে গিয়েছিল। কিলিয়ান খুব বুদ্ধিমান, সবসময় হাসিখুশি, বিনয়ী এবং সকলের প্রতি আন্তরিক। সে অসাধারণ একজন মানুষ। তাই তার সঙ্গে প্রথম সাক্ষাতের পর থেকে আমরা এত ভালোভাবে এগিয়ে চলছি।”

“এরপর, তাকে অনুশীলনে দেখার সুযোগ পেয়েছি, তার গতি, ড্রিবলিং, তার বুদ্ধিমত্তা এবং আরও বিকশিত হওয়ার জন্য তার বিনয় দেখার সুযোগ পেয়েছি। আমি নিজেকে বলেছি; ‘সে আমাদের গোল্ডেন বয়’।”

নেইমারের কাছে এমবাপে যেন একটা ‘পূর্ণাঙ্গ প্যাকেজ।’

“শুধু গতিই সবকিছু না। এর সঠিক ব্যবহারের জন্য স্মার্ট হতে হবে, যেমনটা কিলিয়ান। সে কেবল স্মার্ট ও দ্রুতগতির নয়, সঙ্গে তার ড্রিবলিংয়েরও বিশাল ভাণ্ডার রয়েছে।”