পছন্দের খবর জেনে নিন সঙ্গে সঙ্গে

রোনালদোকে ছাড়াই ইউরোর সেরা একাদশ

  • স্পোর্টস ডেস্ক, বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
    Published: 2021-07-13 18:53:57 BdST

ইতালির শিরোপা জয়ের মধ্য দিয়ে শেষ হয়েছে ইউরোপিয়ান ফুটবলের সবচেয়ে বড় আসর ইউরো ২০২০। আসর শেষে টুর্নামেন্টের আয়োজক উয়েফা ঘোষণা করেছে টুর্নামেন্টের সেরা একাদশ। দলে প্রাধান্য পেয়েছেন দুই ফাইনালিস্ট ইতালি ও ইংল্যান্ডের খেলোয়াড়রা। সেখানে জায়গা হয়নি গোল্ডেন বুট জয়ী পর্তুগাল অধিনায়ক ক্রিস্তিয়ানো রোনালদোর।

একাদশে চ্যাম্পিয়ন ইতালির রয়েছেন সর্বোচ্চ পাঁচজন, রানার্স-আপ ইংল্যান্ডের তিনজন। ডেনমার্ক, স্পেন ও বেলজিয়াম দল থেকে আছেন একজন করে।

ইতালির অপরাজিত চ্যাম্পিয়ন হওয়ার পেছনে বড় অবদান রেখেছেন গোলরক্ষক জানলুইজি দোন্নারুম্মা। সাত ম্যাচের তিনটিতে জাল অক্ষত রাখার পাশাপাশি সেমি-ফাইনাল ও ফাইনালে টাইব্রেকারে তার বীরত্বেই শেষ হাসি হেসেছে আজ্জুরিরা।

ইতালির জমাট রক্ষণে দুই কাণ্ডারি ছিলেন লিওনার্দো বোনুচ্চি ও লিওনার্দো স্পিনাস্সোলা। চোটের কারণে স্পিনাস্সোলা আসরের মাঝপথে ছিটকে যাওয়ার আগ পর্যন্ত ছিলেন দলের অন্যতম সেরা খেলোয়াড়। আর ৩৪ বছর বয়সী বোনুচ্চি রক্ষণ সামলানোর পাশাপাশি ফাইনালে করেছেন সমতাসূচক গোল। পরে টাইব্রেকারেও লক্ষ্য ভেদ করেছেন। হয়েছেন ফাইনালের ম্যাচ সেরা।

একাদশে স্পেনের একমাত্র প্রতিনিধি তরুণ মিডফিল্ডার পেদ্রি আসর জুড়ে আলো ছড়িয়েছেন। মাত্র ১৮ বছর বয়সেই দলটির মাঝমাঠের সেরা তারকা ছিলেন তিনি। টুর্নামেন্টের সেরা উদীয়মান তারকার খেতাবও জিতেছেন বার্সেলোনা মিডফিল্ডার।

ইতালির আক্রমণভাগে দারুণ উজ্জ্বল ছিলেন ফেদেরিকো চিয়েসা। ফাইনালেও চোটের কারণে মাঠ ছাড়ার আগ পর্যন্ত ইতালি রক্ষণে ভীতি ছড়িয়েছেন তিনি।

বেলজিয়ামের হয়ে মেজর টুর্নামেন্টে আরেকটি স্বপ্নভঙ্গের যন্ত্রনায় পুড়লেও ফরোয়ার্ড রোমেলু লুকাকু ছিলেন ছন্দে। শেষ আটে বাদ পড়ার আগে করেছেন তিনটি গোল। বেলজিয়ামের বিপক্ষেই শেষ ষোলো থেকে বাদ পড়ে গত আসরের চ্যাম্পিয়ন পর্তুগাল। এর আগে ৫ গোল করা রোনালদো শেষ পর্যন্ত গোল্ডেন বুট জিতলেও জায়গা পাননি সেরা একাদশে।

উয়েফার টুর্নামেন্ট সেরা একাদশ: জানলুইজি দোন্নারুম্মা, কাইল ওয়াকার, লিওনার্দো বোনুচ্চি, হ্যারি ম্যাগুইয়ার, লিওনার্দো স্পিনাস্সোলা, জর্জিনিয়ো, পিয়ের-এমিল হয়বিয়ার, পেদ্রি, ফেদেরিয়ো চিয়েসা, রোমেলু লুকাকু, রাহিম স্টারলিং