পছন্দের খবর জেনে নিন সঙ্গে সঙ্গে

সালাউদ্দিন-ব্রুসন বৈঠকে শুধুই সাফ চ্যাম্পিয়নশিপ

  • ক্রীড়া প্রতিবেদক, বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
    Published: 2021-09-21 17:45:14 BdST

bdnews24

ক্লাবের হয়ে আপাতত দায়িত্বে ইতি। এবার অস্কার ব্রুসনের সামনে জাতীয় দলকে এগিয়ে নেওয়ার চ্যালেঞ্জ। কাজ শুরুর আগে বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশন- বাফুফে প্রধান কাজী সালাউদ্দিনের সঙ্গে বসেছিলেন স্প্যানিশ কোচ। সেখানে সবচেয়ে বেশি গুরুত্ব পেয়েছে আসন্ন সাফ চ্যাম্পিয়নশিপ।

বাফুফে আগামী বুধবার আনুষ্ঠানিকভাবে ব্রুসনকে পরিচয় করিয়ে দেবে। ওই সংবাদ সম্মেলনে নিজের ভাবনা, সাফ ফুটবল চ্যাম্পিয়নশিপ নিয়ে পরিকল্পনা, দল নিয়ে বিস্তারিত জানাবেন দুই মাসের জন্য দায়িত্ব পাওয়া এই কোচ।

বাফুফে সভাপতি সালাউদ্দিনের বাসায় মঙ্গলবার দল, কোচিং স্টাফসহ নানা বিষয় নিয়ে আলোচনা করেন ব্রুসন। ন্যাশনাল টিমস কমিটির চেয়ারম্যান কাজী নাবিল আহমেদ বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে জানান, তাদের বৈঠকে প্রাধান্য পেয়েছে সাফ চ্যাম্পিয়নশিপ।

“আগামীকাল কোচ সংবাদ সম্মেলন করে বিস্তারিত জানাবেন। আজ আমরা আলোচনা করেছি, কী করে সামনে এগোনো যায়। টিম স্টাফ নিয়েও তিনি কথা বলেছেন। সাফ নিয়ে তার কি পরিকল্পনা, তাও জানিয়েছেন। আমরা সবকিছু বিবেচনা করছি। আগামীকাল বিস্তারিত জানানো হবে।”

প্রিমিয়ার লিগ সোমবার শেষের পর সাফের দল ঘোষণা এবং প্রস্তুতি শুরুর কথা ছিল। কিন্তু হঠাৎ পালাবদলে আটকে আছে সব।

জেমি ডেকে দুই মাসের ‘ছুটি’ দিয়ে এ সময়ের জন্য ব্রুসনকে দায়িত্ব দিয়েছে বাফুফে। এই দুই মাসে সাফ চ্যাম্পিয়নশিপ ছাড়াও শ্রীলঙ্কা ও কুয়েতে দুটি প্রতিযোগিতায় খেলবে বাংলাদেশ। গুঞ্জন আছে, ব্রুসন চাইছেন দীর্ঘমেয়াদে দায়িত্ব। নাবিল অবশ্য জানালেন, এসব নিয়ে কোনো আলোচনা হয়নি।

“কোচ দীর্ঘমেয়াদে দায়িত্ব চাইছেন, এমন কোনো আলোচনা হয়নি। এই খবর ঠিক নয়। শুধু সাফ নিয়ে তার সঙ্গে আলোচনা হয়েছে। আপাতত এটা নিয়ে তিনি কাজ করবেন। পরের যে দুটি প্রতিযোগিতা আছে, তা নিয়ে আমাদের মধ্যে কোনো আলোচনা হয়নি। আপাতত চিন্তা সাফ ঘিরে। পরের প্রতিযোগিতাগুলো নিয়ে আমরা পরে ভাবব।”

আগামী ১ অক্টোবর মালদ্বীপের রাজধানী মালেতে শুরু হবে সাফ চ্যাম্পিয়নশিপের ত্রয়োদশ আসর। এরপর কুয়েতে এএফসি অনূর্ধ্ব-২৩ এশিয়ান কাপের বাছাই এবং ৮ থেকে ১৭ নভেম্বর শ্রীলঙ্কার চার জাতি টুর্নামেন্টে খেলবে বাংলাদেশ।

২০০৩ সালের সাফের চ্যাম্পিয়ন বাংলাদেশ ২০০৫ সালে হয়েছিল রানার্সআপ। এরপর থেকেই শুরু পেছনের দিকে ছুটে চলা। পরের চার আসরের গ্রুপ পর্ব থেকে বিদায় নেওয়ার বিষাদ হয় সঙ্গী।