সূচক বাড়াল আর্থিক খাতের শেয়ার

  • নিজস্ব প্রতিবেদক, বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
    Published: 2021-05-04 17:58:56 BdST

bdnews24

আর্থিক খাতের শেয়ারে ভর করে সপ্তাহের তৃতীয় দিন মঙ্গলবার সূচক বেড়েছে দেশের দুই পুঁজিবাজারে।

মঙ্গলবার প্রধান শেয়ারবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) বেশিরভাগ শেয়ারের দর কমলেও সূচক বেড়েছে মূলত ব্যাংক, ব্যাংক বর্হিভূত আর্থিক প্রতিষ্ঠান ও বীমা কোম্পানির শেয়ারের দাম বাড়ার কারণে।

প্রধান সূচক ডিএসইএক্স আগের দিনের থেকে ২৪ দশমিক ১২ পয়েন্ট বা দশমিক ৪৩ শতাংশ বেড়ে ৫ হাজার ৫৩৫ দশমিক ৪৮ পয়েন্টে অবস্থান করছে।

শান্তা অ্যাসেট ম্যানেজমেন্টের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ এমরান হাসান বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে বলেন, “মঙ্গলবার পুঁজিবাজারে ব্যাংক, বীমা ও ব্যাংক বহির্ভূত আর্থিক প্রতিষ্ঠানের শেয়ারগুলো ভালো করেছে। এই খাতের বেশিরভাগ কোম্পানির শেয়ারের দাম বেড়েছে। এই তিন খাতের শেয়ার সূচক বাড়াতে প্রভাব রেখেছে।”

মঙ্গলবার ৩১টি তালিকাভুক্ত ব্যাংকের মধ্যে দাম কমেছে মাত্র ৬টির। বেড়েছে ১৫টির এবং অপরিবর্তিত ছিল ৯টির। আর লেনদেন হয়নি একটির। 

২৩টি ব্যাংক বহির্ভূত আর্থিক প্রতিষ্ঠানের মধ্যে দাম কমেছে চারটির। বেড়েছে ১২টির এবং অপরিবর্তিত ছিল ৬টির। লেনদেন হয়নি একটির।

অন্যদিকে তালিকাভুক্ত ৫০টি বীমা প্রতিষ্ঠানের মধ্যে দাম কমেছে চারটির। বেড়েছে ৪৩টির এবং অপরিবর্তিত ছিল ৩টির দর।

আর্থিক খাতের পাশাপাশি মঙ্গলবার মিউচ্যুয়াল ফান্ডগুলোর দামও বেড়েছে। তালিকাভুক্ত ৩৭টি ফান্ডের মধ্যে দাম কমেছে ১টির। বেড়েছে ৩৩টির এবং অপরিবর্তিত ছিল ৩টির দর।

মঙ্গলবার ডিএসইতে লেনদেন হয়েছে ৩৫৫টি কোম্পানির শেয়ার ও মিউচ্যুয়াল ফান্ডের ইউনিট। এর মধ্যে দর বেড়েছে ১৪১টির ও কমেছে ১৪৭টির। দিন শেষে অপরিবর্তিত রয়েছে ৬৭টির দর।

ডিএসইতে লেনদেনও আগের দিনের তুলনায় বেড়েছে। মঙ্গলবার ১ হাজার ৩৫৬ কোটি ১০ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়, যা আগের কর্মদিবসে ১ হাজার ১৫৯ কোটি ৮৩ লাখ টাকা ছিল।

দরবৃদ্ধির শীর্ষে থাকার পাশাপাশি লেনদেনে প্রাধান্য ছিল বীমা খাতের।

মার্চেন্ট ব্যাংক লংকাবাংলার পরিসংখ্যানে দেখা গেছে, ডিএসইতে ৫১৫ কোটি ১৫ লাখ টাকার বীমার শেয়ার লেনদেন হয়েছে, যা পুরো লেনদেনের ৩৮ শতাংশ ছিল।

এ বাজারের অন্য দুই সূচকের মধ্যে ডিএসইএস বা শরীয়াহ সূচক ১ দশমিক শূন্য ৮ পয়েন্ট বেড়ে অবস্থান করছে ১ হাজার ২৪৯ দশমিক ২৪ পয়েন্টে।

আর ডিএস৩০ সূচক ২ দশমিক ৬৬ পয়েন্ট বেড়ে অবস্থান করছে ২ হাজার ১১৮ দশমিক ৭১ পয়েন্টে।

ডিএসইতে লেনদেনের শীর্ষ ১০টি কোম্পানি

বেক্সিমকো লিমিটেড, লাফার্জ, লংকাবাংলা, বেক্সিমকো ফার্মা, এশিয়া প্যাসিফিক জেনারেল ইন্স্যুরেন্স, ন্যাশনাল ফিড মিল, রবি, ম্যাকসন স্পিনিং, সিটি জেনারেল ইন্স্যুরেন্স ও বিডি ফাইন্যান্স।

দাম বাড়ার শীর্ষ ১০টি কোম্পানি

রূপালী লাইফ, সন্ধানী লাইফ, প্রাইম ইসলামি লাইফ, ডেল্টা লাইফ, ইসলামি ইন্সুরেন্স, মেঘনা লাইফ, মেট্রো স্পিনিং, ইউনাইটেড, ফারইস্ট ইসলামি লাইফ ও স্ট্যান্ডার্ড ইন্স্যুরেন্স।

দাম কমার শীর্ষ ১০টি কোম্পানি

ঢাকা ডাইং, সোনালী আঁশ, ইনটেক, সাভার রিফ্র্যাক্টরিজ, ডোমিনেজ স্টিল, বেক্সিমকো লিমিটেড, আমান কটন, গোল্ডেন সন, আরামিট সিমেন্ট ও লিব্রা ইনফিউশন।

অপর বাজার চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জের (সিএসই) প্রধান সূচক সিএএসপিআই ৩৭ দশমিক ৪৮ পয়েন্ট বেড়ে অবস্থান করছে ১৫ হাজার ৯৯১ দশমিক ২৬ পয়েন্টে।

তবে চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) লেনদেন কমেছে। মঙ্গলবার ৩৭ কোটি ১৭ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে, যা আগের দিন ছিল ৬২ কোটি ৩৯ লাখ টাকা।

সিএসইতে লেনদেন হয়েছে ২৬১টি কোম্পানির শেয়ার ও মিউচ্যুয়াল ফান্ড। এর মধ্যে দর বেড়েছে ১১২টির, কমেছে ১০৭টির এবং অপরিবর্তিত রয়েছে ৪২টির দর।

মর্ডানার টিকা আনার খবরে রেনেটার দরবৃদ্ধি

মডার্নার তৈরি টিকা আনতে পারে রেনেটা এই খবরে মঙ্গলবার ৪৪ টাকা ৯০ পয়সা দাম বেড়েছে শেয়ারটির। যদিও ডিএসইতে ওষুধ খাতের বেশিরভাগ শেয়ারের দাম কমেছে।

দেশের পুঁজিবাজারে ওষুধ খাতে তালিকাভুক্ত ৩১ কোম্পানির মধ্যে এদিন মাত্র ৫টির দাম বেড়েছে। এর মধ্যে সবচেয়ে বেশি বেড়েছে রেনেটার শেয়ারের দাম।

আগের দিনের থেকে ৪৪ টাকা বেড়ে লেনদেন শেষে ক্লোজপ্রাইস ছিল ১,২৯৮ টাকা।

সোমবার খবর আসে যুক্তরাষ্ট্রের ওষুধ কোম্পানি মডার্নার করোনাভাইরাসের টিকা আনতে রেনাটা ফার্মাসিউটিক্যালস সরকারের কাছে আবেদন করেছে।