২৬ মার্চ ২০১৯, ১২ চৈত্র ১৪২৫

‘ট্রাম্প-ভীত’ মার্কিনীদের গন্তব্য কানাডা!

  • প্রযুক্তি ডেস্ক, বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
    Published: 2016-03-03 16:23:48 BdST

bdnews24

যুক্তরাষ্ট্রের আসন্ন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে কে হবেন জয়ী? এমন প্রশ্ন করে এখন কোনো সুনির্দিষ্ট উত্তর পাওয়া নয়, কিন্তু এ নিয়ে হয়তো আগেভাগেই পরিকল্পনা করে রেখেছেন কিছু মার্কিনী।

এ পর্যন্ত সাতটি অঙ্গরাজ্যে জয়লাভ করেছেন রিপাবলিকান দলের মনোনয়ন প্রত্যাশী ট্রাম্প। তিনি প্রেসিডেন্ট হিসেবে জয়ী হলে এরপর কী করা লাগবে, তা নিয়ে যেন এখনই ভেবে রাখছেন দেশটির অনেক নাগরিক। এমনটা মনে করার কারণ হচ্ছে, ট্রাম্প সাতটি অঙ্গরাজ্যে জয়লাভ করার পর থেকে, দেশটিতে গুগল সার্চে ‘কীভাবে কানাডার অধিবাসী হওয়া যায়?’- লিখে অনুসন্ধানের সংখ্যাটা রকেটের গতিতে বাড়ছে।

যুক্তরাষ্ট্রের জনগণ যে প্রতিবেশী দেশ কানাডায় যাওয়ার উপায় খুঁজছেন আর এ নিয়ে টুইটারে আগ্রহ প্রকাশ করছেন, সে বিষয়টি সর্বপ্রথম গুগলের ডেটা এডিটর সাইমন রজার্স-এর চোখে পড়ে বলে জানিয়েছে বিলেতি ট্যাবলয়েড মিরর। 

কানাডা যেতে আগ্রহী মার্কিন নাগরিকদের অনুসন্ধানের সংখ্যাটা মোটেও হেলা-ফেলা করার মতো নয়। সংখ্যাটা আসলেই এত বেশি ছিল যে, একসঙ্গে এতটা চাপ হয়তো সামলাতে পারেনি কানাডা সরকারের ওয়েবসাইট। একটা সময় সেখানে একটি এরর মেসেজ দেখানো হয়- “আপনি ওয়েবসাইটটি ব্যবহারের সময় বিলম্ব হতে পারে। আমরা এ সমস্যা সমাধানে কাজ করছি। ধৈর্য্য ধরার জন্য আপনাকে ধন্যবাদ।” যদিও এই সমস্যার সঙ্গে অনুসন্ধানের সঙ্গে কোনো সম্পর্ক ছিল কী না তা জানা যায়নি, তবে সমস্যাটি শুধু চলতি সপ্তাহেই দেখা গেছে।

এরই মধ্যে, চূড়ান্ত নির্বাচনে ট্রাম্প-কে জয়ী দেখতে ভয় পাচ্ছেন এমন মার্কিনীদের আশ্রয় দেওয়ার প্রস্তাব দিয়েছে কানাডার একটি দ্বীপ। কানাডার নোভা স্কশিয়া-এর কেইপ ব্রেটন নামের ওই দ্বীপে আমন্ত্রণ জানিয়ে খোলা হয়েছে একটি ওয়েবসাইটও।

এই সাইটে বলে হয়, “হাই আমেরিকানরা! ডোনাল্ড ট্রাম্প হয়তো দেশের প্রেসিডেন্ট হয়ে যাবেন! যদি তা-ই হয়, আর আপনি এখান থেকে বের হতে চান, আপনাকে আমি কেইপ ব্রেটন দ্বীপে চলে আসার জন্য পরামর্শ দিতে পারি।”