২৪ মার্চ ২০১৯, ১০ চৈত্র ১৪২৫

মুছে ফেলা বার্তা ‘ফিরছে’ হোয়াটসঅ্যাপে!

  • প্রযুক্তি ডেস্ক, বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
    Published: 2019-01-29 18:39:56 BdST

bdnews24
ছবি- রয়টার্স

হোয়াটসঅ্যাপে ত্রুটির কারণে মুছে ফেলা বার্তা ‘ফেরাতে পারছেন’ গ্রাহক।

অনেক দিন আগেই ভুলবশত পাঠানো বার্তা মুছে ফেলার ফিচার চালু করেছে হোয়াটসঅ্যাপ। কিন্তু ফিচারটি রাখা হয়েছে খুবই সীমিত সংখ্যক ব্যবহারকারীর কাছে। মুছতে হলে বার্তা পাঠানোর এক ঘন্টার মধ্যে তা মুছে ফেলতে হবে গ্রাহককে। পুরো কথোপকথন যাতে মুছে ফেলতে না হয় সে কারণেই আনা হয় ফিচারটি।

হোয়াটসঅ্যাপে ত্রুটির কারণে এবার পুনরুদ্ধার করা যাচ্ছে মুছে ফেলা বার্তাগুলোও। আর এটি সম্ভব হচ্ছে অ্যাপটির ব্যাকআপ ফিচারের কারণে-- খবর ব্রিটিশ ট্যাবলয়েড মিররের।

সাধারণত রাত ২টায় বেশিরভাগ গ্রাহকের হোয়াটসঅ্যাপ আলাপচারিতা ব্যাকআপ করা হয়। অন্যান্য আরও ব্যাকঅ্যাপ ফিচার থাকলেও ত্রুটির কারণে রাতের বেলা এই ব্যাকঅ্যাপের ফলেই বার্তা পুনরুদ্ধার করা সম্ভব হচ্ছে।

কেউ যদি বার্তা মুছে দেওয়ার পর তা আবার পড়তে চান তবে অ্যাপটি আনইনস্টল করে আবার নতুন করে ইনস্টল করলেই হবে। চ্যাট আর্কাইভ ব্যাকআপ থেকে লোড হওয়ার পর মুছে ফেলা বার্তাগুলোও এতে দেখা যাবে।

অনলাইনে থাকাকালীন কেউ বার্তা মুছে ফেললে অ্যাপে বলা হয়, “এই বার্তাটি মুছে ফেলা হয়েছে।”

চ্যাটিং থ্রেড থেকে বার্তা গায়েব হলেও ডিভাইসটিতে এটি থেকে যায়। আর ব্যাকআপ পুনরুদ্ধার করার পর ওই বার্তাকে আর মুছে ফেলা বার্তা হিসেবে চিহ্নিত করা হয় না বলে প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়েছে।

হোয়াটসঅ্যাপের এই ত্রুটির সুযোগ গ্রাহক খুব বেশি দিন নিতে পারবেন না বলেই ধারণা করা হচ্ছে। শীঘ্রই এটিস সারাতে পদক্ষেপ নেবে ফেইসবুক মালিকানাধীন চ্যাটিং মেসেঞ্জারটি।

অ্যান্ড্রয়েড নোটিফিকেশন ব্যবস্থায়ও মুছে ফেলা বার্তা দেখতে পারেন গ্রাহক। বেশিরভাগ সময়ই হোয়াটসঅ্যাপ এই নোটিফিকেশনগুলো বাতিল করে দেয়। কিন্তু তৃতীয় পক্ষের অ্যাপগুলো এই নোটিফিকেশনগুলো ধরে রাখতে পারে।


ট্যাগ:  মেসেজ  হোয়াটসঅ্যাপ