২৩ আগস্ট ২০১৯, ৮ ভাদ্র ১৪২৬

মেসেঞ্জার রেকর্ডিং শুনছিলেন ফেইসবুক কর্মীরা

  • প্রযুক্তি ডেস্ক, বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
    Published: 2019-08-14 22:03:38 BdST

bdnews24

ফেইসবুক গ্রাহকের ভয়েস রেকর্ডিংয়ের প্রতিলিপি করতে শত শত কর্মীকে বেতন দেওয়া হয়েছে বলে উঠে এসেছে নতুন এক প্রতিবেদনে। এসব কর্মী মেসেঞ্জারে গ্রাহকের কথপোকথন শুনে সেগুলোর প্রতিলিপি করতেন বলে জানানো হয়েছে।

গুগল, অ্যাপল, মাইক্রোসফট এবং অ্যামাজনের পর এবার ফেইসবুকও স্বীকার করেছে যে, এ ধরনের কাজের জন্য তারা তৃতীয় পক্ষের কর্মীদের ব্যবহার করেছে। এক সপ্তাহের বেশি সময় আগে তারা এই কাজ বন্ধ করেছে-- খবর বিবিসি’র।

ব্লুমবার্গের এক প্রতিবেদনে বলা হয়, কর্মীদের গ্রাহকের কথপোকথনের অডিও রেকর্ডিং দেওয়া হয়। তবে এই অডিওগুলো কী পদ্ধতিতে সংগ্রহ করা হতো তা বলা হয়নি।

ফেইসবুকের পক্ষ থেকে বলা হয়, রেকর্ডিংগুলোর ম্যানুয়ালি প্রতিলিপি করা হয় যাতে এআই ব্যবস্থা দিয়ে স্বয়ংক্রিয়ভাবে প্রতিলিপি করার কাজ আরও উন্নত করা যায়।

গ্রাহক প্রতিলিপিকরণ সেবা বাছাই করলে এবং মাইক্রোফোন অ্যাকসেস দিলেই কেবল এই রেকর্ডিং করা হয়।

“অ্যাপল এবং গুগলের মতোই আমরা মানব কর্মী দিয়ে অডিও পর্যালোচনা এক সপ্তাহের বেশি সময় আগে বন্ধ করেছি,” বলেন ফেইসবুক মুখপাত্র।

চলতি মাসের শুরুতে অ্যাপল এবং গুগলের পক্ষ থেকে বলা হয়, গ্রাহকের ভয়েস রেকর্ডিংয়ের প্রতিলিপি করতে মানব কর্মীদের ব্যবহার বন্ধ করা হয়েছে। তারা এখন গ্রাহকের রেকর্ডিং শুনতে পাবেন না।

মাইক্রোসফটও নিশ্চিত করেছে যে, স্কাইপের স্বয়ংক্রিয় অনুবাদ ব্যবস্থা মানব কর্মী দিয়ে পর্যালোচনা করা হয়।

অ্যামাজনের অ্যালেক্সা ভয়েস রেকর্ডিংও মানব কর্মী দিয়ে পর্যালোচনা করা হয় বলে জানানো হয়েছে। সম্প্রতি বিষয়টি নিয়ে প্রতিষ্ঠানটির সঙ্গে আলোচনা শুরু করেছে লুক্সেমবার্গের নীতি নির্ধারক দল।


ট্যাগ:  ফেইসবুক  মেসেঞ্জার