ভয়ঙ্কর ঘূর্ণিঝড় আম্পানের মুখে ভারত

  • নিউজ ডেস্ক, বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
    Published: 2020-05-18 17:29:05 BdST

bdnews24

ভারতে শক্তিশালী থেকে ক্রমেই আরো শক্তি সঞ্চয় করে ভয়ঙ্কর রূপ নিয়ে ধেয়ে যাচ্ছে ঘূর্ণিঝড় আম্পান।

আগামী ২৪ ঘণ্টার মধ্যে শক্তি কয়েকগুণ বেড়ে আম্পান ‘সুপার সাইক্লোন’ হয়ে উঠবে বলে আশঙ্কা প্রকাশ করেছেন আবহাওয়াবিদরা।

তারা বলছেন, বুধবার বিকালেই ঝড়ের তাণ্ডব শুরু হয়ে যেতে পারে। সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হতে পারে পশ্চিমবঙ্গ এবং উড়িষ্যা।

প্রাণহানির ঘটনা যাতে না ঘটে সেজন্য আগাম সতর্কতা হিসেবে উপকূলের বাসিন্দাদের নিরাপদ জায়গায় সরিয়ে নিয়ে যাওয়া হচ্ছে। উপকূলবর্তী এলাকাগুলোতে বিপর্যয় মোকাবিলা বাহিনী মোতায়েন করা হয়েছে। পাঠানো হয়েছে ২০ টি ত্রাণ দল।

 আম্পান ধেয়ে আসতে থাকায় প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী ঘূর্ণিঝড় মোকাবেলার প্রস্তুতি পর্যালোচনায় জরুরি বৈঠকে বসছেন বলে জানিয়েছে বিবিসি।

পশ্চিমবঙ্গে জারি করা হয়েছে কমলা সতর্কতা। জাতীয় আবহাওয়া দফতর বলছে, আগামী ১২ ঘণ্টার মধ্যেই আম্পান ভয়ঙ্কর রূপ নেবে। গভীর সমুদ্রে ঝড়ের গতিবেগ ঘণ্টায় সর্বোচ্চ ২৬৫ কিলোমিটার হতে পারে। উপকূলে আছড়ে পড়ার সময় শক্তি কিছুটা কমবে। তবে তা ঘণ্টায় সর্বোচ্চ ১৮৫ কিলোমিটার হতে পারে বলে জানিয়েছে এনডিটিভি।

ঘূর্ণিঝড়ের কারণে উড়িষ্যার উত্তরাঞ্চল সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হওয়ার আশঙ্কা আছে। বুধবার পর্যন্ত কোনও মৎস্যজীবীকেই উত্তর বঙ্গোপসাগর ও পশ্চিমবঙ্গ-ওড়িশা উপকূলের দিকে সমুদ্রে না যাওয়ার পরামর্শ দেওয়া হয়েছে।

পশ্চিম-মধ্য বঙ্গোপসাগরের উপরে অবস্থান করা আম্পান উত্তর অভিমুখে রয়েছে। কয়েক ঘণ্টার মধ্যেই বাঁক নিয়ে তা উত্তর-পূর্ব দিকে এগোতে শুরু করবে। আম্পানের প্রভাবে কলকাতাসহ ৭ জেলায় প্রবল বৃষ্টিপাত হতে পারে মঙ্গল এবং বুধবার।

করোনাভাইরাসের ধাক্কায় ভারতে বিপর্যস্ত অবস্থার মধ্যে চোখ রাঙাচ্ছে এই ঘূর্ণিঝড়। লকডাউনের কারণে বহু পরিযায়ী শ্রমিক বিভিন্ন গ্রামে ফিরে গেছে। হাজার হাজার শ্রমিক এখনো বাড়ি ফিরছে। তার মধ্যেই আরেক বিপদ হয়ে ধেয়ে আসছে এই আম্পান।

ভারতের ন্যাশনাল ডিজাজস্টার রিলিফ ফোর্স (এনডিআরএফ) এর প্রধান বলেছেন, তারা পরিস্থিতি নিবিড়ভাবে নজরে রাখছেন এবং বিভিন্ন রাজ্য সরকারের সঙ্গেও যোগাযোগ রাখছেন।