কোভিশিল্ড টিকা নিয়ে রক্ত জমাট বাঁধার ‘অল্প কিছু ঘটনা’ ঘটেছে: ভারত

  • >> রয়টার্স
    Published: 2021-05-17 21:21:18 BdST

bdnews24

ভারতেও অ্যাস্ট্রাজেনেকার কোভিড-১৯ টিকা কোভিশিল্ড নেওয়ার পর ২৬ জনের দেহে রক্ত জমাট বাঁধার লক্ষণ দেখা গেছে বলে সোমবার জানিয়েছে দেশটির স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়।

দেশটিতে প্রায় ১৬ কোটি ৪০ লাখ মানুষকে কোভিশিল্ড টিকা দেওয়া হয়েছে। তাদের মধ্যে মাত্র ২৬ জনের দেহে রক্ত জমাট বাঁধার উপসর্গ দেখা দেওয়াকে ‘অল্প মাত্রার ঝুঁকির’ ঘটনা বলেই বর্ণনা করেছে মন্ত্রণালয়।

অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকার পার্শ্বপ্রতিক্রিয়ায় রক্ত জমাট বাঁধার উপসর্গ দেখা দেওয়ায় বিশ্বের বেশ কয়েকটি দেশ টিকাদান স্থগিত করেছিল। যাদের বেশিরভাগই পুনরায় অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকা দেওয়া শুরু করেছে; কেউ কেউ টিকা দেওয়ার ক্ষেত্রে বয়স সীমা বেঁধে দিয়েছে।

স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞরা অবশ্য শুরু থেকেই অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকায় ঝুঁকির তুলনায় লাভ অনেক বেশি বলে আসছেন। ভারত এই প্রথম অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকায় রক্ত জমাট বাঁধার উপসর্গ দেখা দেওয়ার কথা জানাল। স্থানীয়ভাবে যে টিকা কোভিশিল্ড নামে পরিচিত।

স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় থেকে বলা হয়, মানুষকে অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকা দেওয়ার পর ৪৯৮টি গুরুতর এবং মারাত্মক পার্শ্বপ্রতিক্রিয়ার ঘটনা নিয়ে তদন্ত করা হয়েছে। যেগুলোর মধ্যে ২৬ জনের শরীরে রক্ত জমাট বাঁধার উপসর্গ দেখা গেছে।

মন্ত্রণালয় থেকে বলা হয়, ভারতে প্রতি ১০ লাখ ডোজে রক্ত জমাট বাঁধার ঘটনা ০ দশমিক ৬১ জন মাত্র। যা যুক্তরাজ্য (৪ জন) এবং জার্মানির (১০ জন) তুলনায় অনেক কম।

ভারতে রক্ত জমাট বাঁধার ঘটনাগুলো কতটা গুরুতর সে বিষয়ে মন্ত্রণালয় থেকে আর কোনও তথ্য দেওয়া হয়নি। ভারতে অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকার পাশাপাশি ভারত বায়োটেকের তৈরি করোনাভাইরাসের টিকা কোভ্যাক্সিন দেওয়া হচ্ছে।

কোভ্যাক্সিনের ক্ষেত্রে রক্ত জমাট বাঁধার কোনও ঘটনা এখন পর্যন্ত পাওয়া যায়নি বলে জানায় স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়। দেশটিতে প্রায় এক কোটি ৯০ লাখ মানুষকে কোভ্যাক্সিন দেওয়া হয়েছে।