পছন্দের খবর জেনে নিন সঙ্গে সঙ্গে

ওমিক্রনের বিরুদ্ধে এখনকার টিকা কম কার্যকর, আশঙ্কা মডার্না সিইও’র

  • নিউজ ডেস্ক, বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
    Published: 2021-11-30 18:04:16 BdST

bdnews24
ফাইল ছবি। রয়টার্স থেকে নেওয়া

বিশ্বজুড়ে প্রচলিত কোভিড-১৯ টিকাগুলো করোনাভাইরাসের ডেল্টা সংস্করণের বিরুদ্ধে যতটা কার্যকর ছিল, ওমিক্রনের বিরুদ্ধে ততটা কার্যকর হবে না বলে আশঙ্কা করছেন টিকানির্মাতা কোম্পানি মডার্নার প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা স্টেফান বানসেল।

তেমনটা হলে রোগীর সংখ্যা ও হাসপাতালে ভর্তি বেড়ে যাবে এই আতঙ্কে মঙ্গলবার বিভিন্ন দেশের শেয়ার বাজারে বড় ধরনের দরপতন দেখা গেছে বলে জানিয়েছে বার্তা সংস্থা রয়টার্স।

বানসেলের শঙ্কার বিষয়টি প্রকাশিত হওয়ার পর অপরিশোধিত তেলের দাম এক ডলারের বেশি পড়ে যায়, অস্ট্রেলিয়ার মুদ্রা এক বছরের মধ্যে সর্বনিম্ন দরে পৌঁছায়, নিকেই সূচকের ঊর্‌ধ্বগতি থেমে যায়।

“ডেল্টার বিরুদ্ধে যতটা কার্যকর দেখেছিলাম, তেমনটা দেখবো বলে মনে হয় না আমার। আদৌ কতটা কার্যকর হবে তা বুঝতে  তথ্যউপাত্তের জন্য অপেক্ষা করতে হবে আমাদের। কিন্তু যত বিজ্ঞানীর সঙ্গে কথা বলেছি, তাদের মত হচ্ছে ‘ভালো কিছু হতে যাচ্ছে না’,” মঙ্গলবার ফাইন্যান্সিয়াল টাইমসে প্রকাশিত এক সাক্ষাৎকারে বলেছেন বানসেল।

এ সাক্ষাৎকার এবং তাদের টিকা ওমিক্রনের বিরুদ্ধে কতখানি কার্যকর তা জানতে কত সময় লাগতে পারে- সে প্রসঙ্গে রয়টার্স মডার্নার কাছে মন্তব্য চাইলেও তারা সাড়া দেয়নি।

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা সম্প্রতি করোনাভাইরাসের ওমিক্রন ভ্যারিয়েন্টের কারণে সংক্রমণ বাড়ার ‘উচ্চ ঝুঁক’ রয়েছে জানিয়ে বিশ্বকে প্রস্তুত থাকতে বলেছে।

বানসেল এর আগে সিএনবিসিকে বলেছিলেন, ওমিক্রনের বিরুদ্ধে তাদের টিকার কার্যকারিতা কেমন সে সম্বন্ধে বুঝতে তাদের সপ্তাহ দুয়েকের মতো সময় লাগতে পারে। আর নতুন ভ্যারিয়েন্টের উপযোগী টিকা বানিয়ে তা সরবরাহে লেগে যেতে পারে কয়েক মাস।

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার পাশাপাশি অনেক বিজ্ঞানীও ভ্যারিয়েন্টটির আক্রমণের তীব্রতা এবং এটি বিদ্যমান টিকাগুলোর সুরক্ষা এড়িয়ে যেতে পারে কিনা, তা বুঝতে কয়েকদিন থেকে কয়েক সপ্তাহ লাগবে বলে ধারণা দিয়েছেন।

“সম্ভবত এরপরও টিকা আপনাকে হাসপাতাল থেকে দূরে রাখবে,” ফিলাডেলফিয়ার পেন ইনস্টিটিউট ফর ইমিউনোলজির পরিচালক জন হোয়েরি। 

নতুন ভ্যারিয়েন্টের বিরুদ্ধে টিকার কার্যকারিতার অনিশ্চয়তা বিশ্বজুড়েই আতঙ্ক সৃষ্টি করেছে। পরিস্থিতি মোকাবেলায় বিভিন্ন দেশ সীমান্ত বন্ধের পথে হাঁটায় গত দুই বছর ধরে চলা মহামারীর ক্ষতি কাটিয়ে অর্থনীতি পুনরুদ্ধারের স্বপ্নও নতুন করে হোঁচট খেয়েছে।

বানসেলের মন্তব্যের আগে মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের ‘ওমিক্রন মোকাবেলায় যুক্তরাষ্ট্র এখনই ফের লকডাউন দেওয়ার পথে হাঁটবে না’ মন্তব্য বিনিয়োগকারীদের খানিকটা স্বস্তিতে রেখেছিল; তবে মডার্না সিইও’র সাক্ষাৎকারের পর তা উবে যায়।

বাইডেন করোনাভাইরাসের নতুন ভ্যারিয়েন্ট সামলাতে টিকাদানের আওতা বাড়াতে বলেছেন; যুক্তরাষ্ট্রের সেন্টারস ফর ডিজিজ কন্ট্রোল অ্যান্ড প্রিভেনশন দেশটির ১৮ ও এর বেশি বয়সী সবাইকে বুস্টার ডোজ নিতে পরামর্শ দিয়েছে।

ওমিক্রন নিয়ে আতঙ্কে যুক্তরাজ্যও তাদের কোভিড-১৯ বুস্টার কর্মসূচির আওতা বাড়াচ্ছে।

২৪ নভেম্বর দক্ষিণ আফ্রিকায় প্রথম শনাক্ত হওয়ার পর এ পর্যন্ত ডজনেরও বেশি দেশে ওমিক্রনের উপস্থিতি নিশ্চিত হওয়া গেছে। বিশ্বের তৃতীয় বৃহত্তম অর্থনীতির দেশ জাপানও একজনের দেহে করোনাভাইরাসের এ নতুন ভ্যারিয়েন্টটি পাওয়ার কথা জানিয়েছে।